বব্স’এর ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড’ জিতেছে বাংলা ব্লগ | বিশ্ব | DW | 02.05.2012

ডয়চে ভেলের নতুন ওয়েবসাইট ভিজিট করুন

dw.com এর বেটা সংস্করণ ভিজিট করুন৷ আমাদের কাজ এখনো শেষ হয়নি! আপনার মতামত সাইটটিকে আরো সমৃদ্ধ করতে পারে৷

  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

বিশ্ব

বব্স’এর ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড’ জিতেছে বাংলা ব্লগ

ডিডাব্লিউ’র সেরা ব্লগ প্রতিযোগিতার ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড’ জিতেছে একটি বাংলা ব্লগ৷ ছয়টি মিশ্র ক্যাটেগরির একটি, সীমানাবিহীন সাংবাদিক পুরস্কার জয় করেছে আবু সুফিয়ান’এর বাংলা ব্লগ৷ ‘ইউজার প্রাইজ’ জয় করেছে দু’টি বাংলা ব্লগ৷

বব্স'এ বাংলা ভাষার অংশগ্রহণ মাত্র তিন বছর আগে৷ প্রথম ও দ্বিতীয় বছর এই প্রতিযোগিতার মূল ছয়টি মিশ্র বিভাগে কোন বাংলা ব্লগ জুরি অ্যাওয়ার্ড অর্জন করতে পারেনি৷ মিশ্র বিভাগগুলোতে সাধারণত প্রতিযোগিতা হয় ভিন্ন ভিন্ন ভাষার ব্লগের মধ্যে৷ ফলে আরব বিশ্ব কিংবা চীন, ইরানের ব্লগের সঙ্গে বাংলা ব্লগের পেরে ওঠা বেশ কঠিন এক ব্যাপার বৈকি৷ বিশেষ করে এসব অঞ্চলের বাক স্বাধীনতা, মানবাধিকার বারবার বাধাগ্রস্ত হচ্ছে, যেগুলো উঠে আসে ব্লগ, ফেসবুক, টুইটারে৷ ফলে আন্তর্জাতিক জুরিমন্ডলী সেদিকেই নজর দেন বেশি৷

Blogger Abu Sufian BOBs

বিজয়ী ব্লগার আবু সুফিয়ান

বাংলা ব্লগের বিশ্বজয়

বব্স ২০১২'র মিশ্র ক্যাটেগরি সীমানাবিহীন সাংবাদিক পুরস্কার বিভাগে এবছর ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড' জিতেছে একটি বাংলা ব্লগ৷ বিশ্বের আরো দশটি ভাষার একই বিষয়ের ব্লগের সঙ্গে লড়াইয়ে বিজয়ী আবু সুফিয়ান'এর বাংলা ব্লগ৷ এই বিজয়ে উচ্ছ্বসিত আবু সুফিয়ান ডয়চে ভেলেকে বলেন, ‘‘ এটা নিঃসন্দেহে একটি বড় অর্জন৷ একজন ব্লগার হিসেবে, একজন সাংবাদিক হিসেবে এবং বাংলাদেশের একজন মানুষ হিসেবে আমি মনে করি, এটা অনেক বড় পাওয়া৷ আমি মনে করি এটি সমস্ত বাঙালি ব্লগার এবং বাংলাদেশের সাংবাদিকদের অর্জন৷''

সাংবাদিক দম্পতি সাগর সরওয়ার এবং মেহেরুন রুনির হত্যাকাণ্ডের বিচারের দাবিতে অত্যন্ত সক্রিয় ব্লগার আবু সুফিয়ান৷ গত ফেব্রুয়ারিতে এই বর্বোরিচত হত্যাকাণ্ডের পর এখনও কেউ গ্রেপ্তার হয়নি৷ সুফিয়ান তাঁর লেখনির মাধ্যমে এই হত্যাকাণ্ডের প্রতিবাদে জনসচেতনতা সৃষ্টি করেছেন৷ এই বিষয়ে রাজপথে ব্লগারদের বিভিন্ন কর্মসূচিতেও সরব ভূমিকা পালন করেন তিনি৷ এছাড়া বাংলাদেশে গুম, বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ড নিয়েও দীর্ঘদিন ধরে লিখছেন সুফিয়ান৷ এই বিষয়ে তিনি বলেন, ‘‘সাগর-রুনির হত্যাকাণ্ডের বিচারের দাবিতে আমরা ভার্চুয়াল জগত থেকে রাজপথে নেমে এসেছি এবং ধারাবাহিকভাবে বিভিন্ন কর্মসূচি দিয়ে আসছি৷ কিন্তু আমরা ব্লগাররা আশঙ্কা করছি ব়্যাবও হয়ত পুলিশের মতোই এই হত্যাকাণ্ডের বিচারের ক্ষেত্রে খুব বেশি ইতিবাচক ভূমিকা পালন করবে না বা করতে পারবে না৷ সেক্ষেত্রে ব্লগারদের পক্ষ থেকে আমি বলতে চাই, এই তদন্ত (সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ড)কাজ -- এটা যদি বিদেশি যারা বিশেষজ্ঞ রয়েছেন তারা যদি এসে তদন্ত কাজে সহযোগিতা করেন বা নিরপেক্ষভাবে তারাও যদি তদন্ত করেন -- তাহলে তদন্ত কাজ অনেক বেশি গতিপ্রাপ্ত হবে এবং সত্য বেরিয়ে আসবে কারা এই হত্যাকাণ্ডের পেছনে রয়েছে৷''

BOBs-Jury-Sitzung in Berlin

বাংলা ভাষার পক্ষে জুরিমণ্ডলীর সদস্য ছিলেন প্রখ্যাত আলোকচিত্রশিল্পী এবং ব্লগার ড. শহীদুল আলম

জুরি’র মন্তব্য

সেরা ব্লগ অনুসন্ধান প্রতিযোগিতার এবারের আসরে বাংলা ভাষার পক্ষে জুরিমণ্ডলীর সদস্য ছিলেন প্রখ্যাত আলোকচিত্রশিল্পী এবং ব্লগার ড. শহিদুল আলম৷ আবু সুফিয়ান'র এর বাংলা ব্লগ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘‘সবচেয়ে বড় ব্যাপার হচ্ছে এই সাংবাদিককে স্বীকৃতি দেওয়া হয়েছে৷ তাঁর কাজকে মূল্যায়ন করা হয়েছে এবং আমি আশা করি এটা হবার কারণে একটা প্রভাব পড়বে৷ যে প্রশ্নগুলো সে তুলছিল, উত্থাপন করছিল, যে প্রশ্নগুলো তাঁর একার নয়, আমাদের অনেকেরই প্রশ্ন, সেগুলোর জবাবদিহিতা কোন একভাবে সরকারের দিতে হবে৷ এবং ব্লগিং বিষয়টি তুলনামুলকভাবে আমাদের কাছে নতুন, প্রযুক্তিগতভাবে আমরা অন্যদের তুলনায় হয়ত ততটা এগিয়ে নেই কিন্তু বাংলাদেশি ব্লগাররা যে এখন এই ধরনের ভূমিকা রাখছে সেটা লোকে বুঝবে অন্তত৷''

সাগর-রুনির হত্যাকাণ্ডের বিচারের দাবিতে আবু সুফিয়ান'এর ব্লগ প্রসঙ্গে শহিদুল আলম বলেন, ‘‘আমার মনে হয় পুরস্কারটা পাওয়ার পেছনে এটা একটা কারণ ছিল৷ ব্লগাররা যে রাস্তায় নেমেছে তাদের আন্দোলন নিয়ে, তারা যে শুধু বাড়ি বসে ইন্টারনেটে কাজ করছে না, বরং রাজপথ দখল করছে এবং এই দাবি যে জনগণের দাবি সেটা নিশ্চয়ই বিচারকরা ভেবেছে৷''

শহীদুল আলম মনে করেন, আন্তর্জাতিক এই সম্মাননার ফলে আবু সুফিয়ান যে বিষয়গুলো নিয়ে কাজ করছেন সেগুলোও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে আলোচিত হবে৷ এবং এরফলে যে প্রশ্নগুলো উত্থাপিত হবে, কোন না কোনভাবে সরকারকে সেসবের মুখোমুখি হতে হবে৷

Logo The BOBs 2012

বব্স ২০১২'র মিশ্র ক্যাটেগরি সীমানাবিহীন সাংবাদিক পুরস্কার বিভাগে এবছর ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড' জিতেছে একটি বাংলা ব্লগ

‘বেদনার জানালা'

বব্স ২০১২'র সেরা ব্লগ পুরস্কার জয় করেছে ফার্সি ভাষার ব্লগ ‘উইনডো অব অ্যাঙ্গুইশ' বা ‘বেদনার জানালা'৷ ফার্সি কমিউনিটিতে আরাস সিগারচি'র এই ব্লগ অত্যন্ত সুপরিচিত এবং ব্যাপক পঠিত৷ এই প্রসঙ্গে বব্স এর ইরানি ভাষার জুরি আরাশ আবাদপুর বলেন, ‘‘তিনি এর আগে আমার যতটুকু মনে পড়ে, দু'বার আন্তর্জাতিক স্বীকৃতি পেয়েছেন৷ কিন্তু একজন ব্লগার হিসেবে আমি মনে করি, একেকটি সম্মাননা ব্লগারদের জন্য নতুন এক সম্ভাবনার দ্বার খুলে দেয়৷ এরফলে যে ব্লগার স্বীকৃত পেল, তাঁর অর্জন সম্পর্কে সবাই জানতে পারে, যারা ব্লগ পড়ে তারাও স্বীকৃতিপ্রাপ্ত ব্লগারের প্রতি আরো মনোযোগী হয়৷''

জুরি অ্যাওয়ার্ড

এছাড়া চলতি বছর জুরি অ্যাওয়ার্ড বিজয়ী অন্যান্য ব্লগগুলো হচ্ছে: সামাজিক সচেতনতায় প্রযুক্তি ক্যাটেগরিতে আরবি ভাষার ব্লগ ‘হ্যারেসম্যাপ', সেরা সোশ্যাল অ্যাক্টিভিজম ক্যাম্পেইন ক্যাটেগরিতে আরবি ভাষায় ব্লগার রাজান গাহাভি'র মুক্তির দাবিতে তৈরি ফেসবুক ক্যাম্পেইন, সেরা ভিডিও চ্যানেল ক্যাটেগরিতে চীনা ভাষায় ওয়াং বুয়া'র ব্লগ এবং স্পেশাল টপিক অ্যাওয়ার্ড: এড্যুকেশন অ্যান্ড কালচার ক্যাটেগরিতে ফরাসি ভাষার ব্লগ ফাসোকান অ্যাওয়ার্ড জয় করেছে৷

‘ইউজার প্রাইজ’ জয়ী দুটি বাংলা ব্লগ

ডয়চে ভেলের এই প্রতিযোগিতায় এবছর ‘ইউজার প্রাইজ' জয় করেছে দুটি বাংলা ব্লগ৷ এগুলো হচ্ছে সেরা সেরা সোশ্যাল অ্যাক্টিভিজম ক্যাম্পেইন ক্যাটেগরিতে আসিফ মহিউদ্দিন'এর বাংলা ব্লগ এবং সেরা বাংলা ব্লগ ক্যাটেগরিতে সুড়ঙ্গ – নিয়াজের ভুবন৷

বলাবাহুল্য, বব্স'এর ‘জুরি অ্যাওয়ার্ড' বিজয়ীরা জার্মানির বন শহরে অনুষ্ঠিতব্য গ্লোবাল মিডিয়া ফোরামে অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ পাবেন৷ জুন মাসে এই ফোরামে বিজয়ীদের হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হবে৷

প্রতিবেদন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন

এই বিষয়ে অডিও এবং ভিডিও