1. কন্টেন্টে যান
  2. মূল মেন্যুতে যান
  3. আরো ডয়চে ভেলে সাইটে যান
Mexiko Drogen Legalisierung Cannabis
ছবি: Castelan Cruz Ricardo/abaca/picture alliance

কোভিডে গাঁজা সেবনে উল্লম্ফন

২৭ জুন ২০২২

বিভিন্ন দেশে গাঁজার বৈধতা প্রদান এবং মহামারির মধ্যে লকডাউনের কারণে বিশ্বে গাঁজা সেবনের পরিমাণ বেড়েছে৷ এমন তথ্য দিয়ে জাতিসংঘের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে এর ফলে বিষন্নতা ও আত্মহত্যার ঝুঁকি বাড়ছে৷

https://www.dw.com/bn/%E0%A6%95%E0%A7%8B%E0%A6%AD%E0%A6%BF%E0%A6%A1%E0%A7%87-%E0%A6%97%E0%A6%BE%E0%A6%81%E0%A6%9C%E0%A6%BE-%E0%A6%B8%E0%A7%87%E0%A6%AC%E0%A6%A8%E0%A7%87-%E0%A6%89%E0%A6%B2%E0%A7%8D%E0%A6%B2%E0%A6%AE%E0%A7%8D%E0%A6%AB%E0%A6%A8/a-62275657

সোমবার প্রকাশিত জাতিসংঘের অফিস অন ড্রাগ অ্যান্ড ক্রাইমসের (ইউএনওডিসি) বার্ষিক প্রতিবেদনে অনুযায়ী, গাঁজা বিশ্বের সবচেয়ে বেশি ব্যবহৃত মাদক৷ বাজার শক্তিশালী হওয়ায় যার ব্যবহার ক্রমশ বাড়ছে৷

২০১২ সালে চিকিৎসা বহির্ভূত গাঁজা ব্যবহারের বৈধতা দেয় যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ও কলোরাডো রাজ্য৷ পরবর্তীতে আরো কিছু রাজ্য তাদের পথ অনুসরণ করে৷ ২০১৩ সালে উরুগুয়ে এবং ২০১৮ সালে ক্যানাডা গাঁজা বেঁচাকেনা ও সেবনের বৈধতা দেয়৷ অন্য কিছু দেশও এমন পদক্ষেপ নেয়৷ তবে প্রতিবেদনে মূলত এই তিন দেশের দিকেই নজর দিয়েছে ইউএনওডিসি৷

প্রতিবেদনে তারা বলেছে, ‘‘গাঁজার বৈধতায় মাদকটির ব্যবহারে উর্ধ্বমুখী প্রবণতাকে ত্বরান্বিত করেছে৷'' তবে তরুণদের মধ্যে গাঁজা সেবনের প্রবণতা খুব একটা বাড়েনি৷ তারা বরং আরো উচ্চ ক্ষমতার মাদকের দিকে বেশি ঝুঁকেছে৷ তবে প্রতিবেদন বলছে, ‘‘নিয়মিত গাঁজা সেবনকারীদের মধ্যে মানসিক ব্যাধি ও আত্মহত্যার প্রবণতা বেড়েছে৷''

প্রতিবেদনে দেয়া তথ্য অনুযায়ী, ২০২০ সালে বিশ্বের ২৮ কোটি ৪০ লাখ মানুষ বা পাঁচ দশমিক ছয় শতাংশ জনগোষ্ঠী হেরোইন, কোকেন, অ্যাম্ফেটামিনসের মতো অন্তত একটি মাদকে আসক্ত ছিল৷ এর মধ্যে গাঁজা সেবনকারীর সংখ্যা ছিল ২০ কোটি ৯০ লাখ৷ বলা হয়েছে, কোভিড-১৯ মহামারির সময় লকডাউন ২০২০ সালে গাঁজা সেবনের প্রবণতা বৃদ্ধি করেছে৷ ঐ বছর কোকেন উৎপাদনও রেকর্ড পরিমাণ বেড়েছে৷

এফএস/কেএম (রয়টার্স)

স্কিপ নেক্সট সেকশন ডয়চে ভেলের শীর্ষ সংবাদ

ডয়চে ভেলের শীর্ষ সংবাদ

Symbolbild I Energiearmut I Hohe Energiepreise

‘গ্যাস সংকটের সহসা সমাধান নেই’

স্কিপ নেক্সট সেকশন ডয়চে ভেলে থেকে আরো সংবাদ

ডয়চে ভেলে থেকে আরো সংবাদ

প্রথম পাতায় যান