করোনায় বসে নেই বোকো হারাম, আইএস, আল কায়েদা | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 09.04.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

বিশ্ব

করোনায় বসে নেই বোকো হারাম, আইএস, আল কায়েদা

সারা বিশ্ব যখন করোনার বিরুদ্ধে লড়ছে তখন পশ্চিম আফ্রিকায় জঙ্গি হামলা বাড়িয়েছে বোকো হারাম৷ এদিকে, ইসলামিক স্টেটের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট একটি গোষ্ঠী মোজাম্বিকের একটি শহর দখল করে নিয়েছে৷

গত সপ্তাহে এক বিবৃতিতে ইসলামিক স্টেট করোনা মহামারির সময়েও হামলা চালিয়ে যেতে অনুসারীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে৷ করোনা ভাইরাস অমুসলিমদের জন্য আল্লাহর কাছ থেকে আসা একটি শাস্তি বলেও বিবৃতিতে উল্লেখ করা হয়৷

আল কায়েদা এক বিবৃতিতে লকডাউনের সময় বাসায় বসে ইসলাম নিয়ে পড়াশোনা করতে অমুসলিমদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে৷

যত হামলা

মার্কিন জেনারেল স্টেফান টাউনসেন্ড সংবাদভিত্তিক ওয়েবসাইট মিলিটারি টাইমসকে জানান, করোনার কারণে তারা সোমালিয়ায় কার্যক্রম স্থগিত রাখতে চেয়েছিলেন৷ কিন্তু আল কায়েদা, আল শাবাব ও আইসিস সংকটের ফায়দা তোলার ঘোষণা দিয়েছে৷

ইসলামিক স্টেটের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট মোজাম্বিকের এক জঙ্গি সংগঠন ২৪ মার্চ বন্দর নগরী মোসিম্বোয়া ডা প্রাইয়ায় হামলা চালিয়ে শহরটিকে খেলাফতের অংশ ঘোষণা করেছে৷ দেশটিতে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৭ জন৷ 

গত রবিবার ক্যামেরুনের উত্তরাঞ্চলের এক গ্রামে আত্মঘাতী বোমা হামলায় সাতজন প্রাণ হারান৷ হামলাকারী দুজন বোকো হারামের সদস্য ছিলেন বলে ধারণা করা হচ্ছে৷ দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৭৩০ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন৷ মারা গেছেন ১০ জন৷

২৩ মার্চ আল কায়েদার সঙ্গে জড়িত বোকো হারামের একটি অংশ চাডের এক সেনাঘাঁটিতে হামলা চালায়৷ এতে ৯২ জন সশস্ত্র সৈন্য প্রাণ হারান৷ সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে চাডের যুদ্ধে এটিই সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী হামলা৷ চাডে এখন পর্যন্ত করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১০ জন৷

ইসলামিক স্টেট ফর ওয়েস্ট আফ্রিকা প্রভিন্স' বা আইএসডাব্লিউওপির সঙ্গে সংশ্লিষ্ট বোকো হারামের আরেক অংশ ২৪ মার্চ নাইজেরিয়ার সৈন্যদলের উপর হামলা করে৷ এতে অন্তত ৪৭ জন সৈন্য প্রাণ হারান বলে স্থানীয় পত্রিকাগুলো জানিয়েছে৷ নাইজেরিয়ায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১৭৬৷ মারা গেছেন ছয় জন৷

এদিকে মিশরের দুজন সামরিক কর্মকর্তা বার্তা সংস্থা এপিকে জানিয়েছেন, দেশটির উত্তরাঞ্চলে ইসলামিক স্টেটের কার্যক্রম বেড়েছে৷ সামরিক বাহিনী সম্ভাব্য অন্তত তিনটি বড় হামলা ঠেকিয়েছে বলে জানান তাঁরা৷

পালটা হামলা

এসব হামলার জবাবে ‘মাল্টিন্যাশনাল জয়েন্ট টাস্কফোর্স' বা এমএনজেটিএফ লেক চাড এলাকায় বোকো হারাম ও আইএসডাব্লিউএপির বিরুদ্ধে অভিযান চালাচ্ছে৷

গত সপ্তাহে মার্কিন বাহিনীর আকাশ থেকে চালানো হামলায় আল শাবাবের একজন ঊর্ধতন সদস্য নিহত হয়েছেন বলে দাবি করেছেন এক মার্কিন কর্মকর্তা৷

আবু-বকর জাল্লোহ/জেডএইচ 

ফেব্রুয়ারির ছবিঘরটি দেখুন...

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন