1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

সর্বোচ্চ নিরাপত্তা সতর্কতায় পালিত হচ্ছে ঈদ

গুলশান ও শোলাকিয়া হামলার পর থেকে দেশে লাগাতার জঙ্গিবিরোধী অভিযান চলছে৷অন্তত চারটি বড় অভিযানের পর দৃশ্যত জনমনে কিছুটা স্বস্তি ফিরেছে৷ তারপরও ঈদুল আজহায় নেয়া হয়েছে বিশেষ নিরাপত্তা সতর্কতা৷

গুলশানে হামলার পর থেকে ঢাকায়ই গ্রেপ্তার হয়েছে ৫৩ জন জঙ্গি৷ তাদের মধ্যে নারী জঙ্গিও রয়েছে৷ এই সময়ে ঢাকায় তিনটি ও নারায়ণগঞ্জের একটি অভিযানে নিহত হয়েছে ‘নব্য জেএমবি'-র ১৪ জন গুরুত্বপূর্ণ জঙ্গি৷ এদের মধ্যে তামিম চৌধুরী, মেজর (অব.) জাহিদুল ইসলাম ও শমসেদ-এর মতো তিনজন অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সদস্যও রয়েছে৷

শনিবারের সর্বশেষ অভিযানে ঢাকার আজিমপুরের শমসেদ নিহত হয়৷ পুলিশ বলছে, সে গ্রেপ্তার এড়াতে আগেই ধারালো অস্ত্র দিয়ে আত্মঘাতী হয়৷ পুলিশ ওই আস্তানা থেকে তিন নারী জঙ্গিকেও আহত অবস্থায় আটক করেছে৷ তারাও আত্মহত্যার চেষ্টা করেছিল বলে পুলিশ জানিয়েছে৷

অডিও শুনুন 02:10

এবারের ঈদে শোলাকিয়ায় নজিরবিহীন নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে

গুলশানসহ জঙ্গি হামলার মূল হোতা তামিম, জাহিদ এবং শমসেদসহ ১৪ জন জঙ্গি নিহত হওয়ায় বাংলাদেশে জঙ্গিরা এখন কোণঠাসা হয়ে পড়েছে বলে মনে করেন পুলিশের শীর্ষ কর্মর্তারা৷ তবে তারপরও পুলিশ সতর্ক রয়েছে৷ বিশেষ করে গত ঈদে শোলাকিয়ায় হামলার ঘটনা মাথায় রেখে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হয়েছে৷

কিশোরগঞ্জের পুলিশ সুপার আনোয়ার হোসেন খান সোমবারই জানিয়েছিলেন, ‘‘সবকিছু মাথায় রেখে এবার শোলাকিয়ায় নজিরবিহীন নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে৷ তিন স্তরের নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যে বিপুল সংখ্যক বিজিবি, ব়্যাব-পুলিশ, এপিবিএন ও আনসার সদস্য থাকছে৷ তাছাড়া সাদা পোশাকেও নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা মাঠের ভেতর ও বাইরে কাজ করবেন৷''

পুলিশ সুপার ঈদের দিন শোলাকিয়ার মাঠের তিন দিকের সব প্রবেশপথ বন্ধ করে দেওয়া হবে বলেও জানিয়েছিলেন৷ মঙ্গলবার সেরকম ব্যবস্থাই দেখা গেছে শোলাকিয়ায়৷ প্রবল বর্ষণের মধ্যে অনুষ্ঠিত হয়েছে ঈদ জামাত৷ মাঠের সামনের দুটি গেটে মেটাল ডিটেক্টর দিয়ে দেহ তল্লাশির পর মুসল্লিদের ভেতরে ঢুকতে দেওয়া হয়৷ মাঠ ঘিরে ছিল ক্লোজ সার্কিট (সিসি) ক্যামেরার নজরদারি৷

শোলাকিয়ার ইমাম মাওলানা ফরিদউদ্দিন মাসউদ ডয়চে ভেলেকে জানান, তিনি নিরাপত্তা ব্যবস্থায় সন্তুষ্ট৷ তিনি আরো জানান, ঈদের জামাতে এবার তাঁর ব্যক্তিগত নিরপত্তাও বাড়ানো হয়েছে৷

অডিও শুনুন 03:09

‘বিশেষ পরিস্থিতির কারনেই এবার বাড়তি নিরাপত্তা’

ঈদের আগে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ কমিশনার (মিডিয়া) মাসুদুর রহমানও ডয়চে ভেলেকে কঠো্র নিরাপত্তা ব্যবস্থার আশ্বাস দিয়ে ভলেছিলেন, ‘‘বিশেষ পরিস্থিতির কারনেই এবার বাড়তি নিরাপত্তা৷ ঈদের জামাত এবং জনসমাগমস্থল বিশেষ নিরাপত্তা নজরদারিতে আছে৷ এটা শুধু ঢাকা নয়, সারাদেশেই জোরদার করা হয়েছে৷''

তিনি বলেন, ‘‘আমরা জনসাধারণকে সংবাদমাধ্যমের সহায়তায় সতর্ক বার্তা দিচ্ছি৷ তারা যেন সন্দেহজনক কিছু দেখলে বা বুঝলে কাছের পুলিশকে খবর দেন৷ এই খবর তারা সরাসরিও দিতে পারেন৷ আবার ফেসবুক, ফোন বা অ্যাপস-এর মাধ্যমেও দিতে পারেন৷''

প্রসঙ্গত, এবার ব়্যাব পুলিশের সঙ্গে বিজিবিও যোগ দিয়েছে৷ আরো আছে হেলিকপ্টার টহল৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

এই বিষয়ে অডিও এবং ভিডিও

সংশ্লিষ্ট বিষয়