২২ জানুয়ারি ফাঁসি হবে ৪ জনের | বিশ্ব | DW | 07.01.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

২২ জানুয়ারি ফাঁসি হবে ৪ জনের

দিল্লি ধর্ষণ মামলায় ৪ অভিযুক্তের ফাঁসি হবে আগামী ২২ জানুয়ারি। মঙ্গলবার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিল আদালত।

রাষ্ট্রপতির কাছে প্রাণভিক্ষা, সুপ্রিম কোর্টে আপিল-- কোনও কিছুতেই লাভ হল না। শেষ পর্যন্ত ফাঁসির সাজাই বহাল থাকল দিল্লি ধর্ষণ কাণ্ডে অভিযুক্ত ৪ বন্দির। আদালত জানিয়ে দিল আগামী ২২ জানুয়ারি সকাল ৭টায় ফাঁসি হবে তাদের।

২০১২ সালে দিল্লির রাস্তায় ৬ জন মিলে গণধর্ষণকরেছিল ২৩ বছরের এক যুবতীকে। অতি সংকটজনক অবস্থায় তাঁকে ভর্তি করা হয়েছিল হাসপাতালে। কিন্তু শেষ পর্যন্ত বাঁচানো যায়নি। দিল্লি সহ গোটা দেশে যা নিয়ে প্রবল বিক্ষোভ হয়েছিল। জনতা ধর্ষিত এবং নিহত মেয়েটির নাম রেখেছিল নির্ভয়া। এত দিনে সেই ঘটনার চূড়ান্ত সাজা ঘোষণা হল।

ঘটনার পর ৬ অভিযুক্তকেই গ্রেফতার করেছিল পুলিশ। তার মধ্যে প্রধান অভিযুক্ত আগেই তিহার জেলে আত্মহত্যা করেছেন। আর এক অভিযুক্ত ঘটনার সময় নাবালক ছিল। ৩ বছর হোমে থাকার পর এখন সে মুক্ত। বাকি চার অভিযুক্তকেই ফাঁসির সাজা শুনিয়েছিল আদালত। কিন্তু প্রত্যেকেই সুপ্রিম কোর্টের কাছে প্রাণ ভিক্ষা চেয়েছিল। প্রাণ ভিক্ষার আবেদন গিয়েছিল রাষ্ট্রপতির কাছেও। কিন্তু সকলেরই সেই আবেদন খারিজ হয়ে যায়। মঙ্গলবার আদালত জানিয়ে দিল আগামী ২২ জানুয়ারি তাদের ফাঁসি হবে।

আদালতের চূড়ান্ত সিদ্ধান্তের পর নির্ভয়ার মা সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ''এতদিনে আমার মেয়ে বিচার পেল। এই রায়ের ফলে আদালতের প্রতি দেশের মানুষের বিশ্বাস আরও বাড়বে।''

এসজি/জিএইচ(এনডিটিভি, পিটিআই)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন