হেরে গেলো বার্সেলোনা, শেষ হাসি হাসলো ইন্টারমিলান | খেলাধুলা | DW | 20.04.2010
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

হেরে গেলো বার্সেলোনা, শেষ হাসি হাসলো ইন্টারমিলান

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের সেমিফাইনালের প্রথম পর্বের খেলাটি বসেছিল ইটালির মিলানে৷ দুর্ধর্ষ ইন্টার মিলানের সামনে মঙ্গলবার রাতে একটু ক্লান্ত দেখাচ্ছিল বার্সেলোনার মেসিদের৷ আর তাই হয়তো তিন গোল হজম করতে হলো বার্সেলোনার৷

default

বার্সেলোনার গোল রক্ষককে ফাঁকি দিয়ে চলে যাচ্ছে বল

অবশ্য তারা ইন্টারমিলানের পোস্টে এক গোল ঢুকাতে পেরেছে৷

ইন্টারমিলানের পুরো নামটা জানেন৷ ইটালির এই দলটির পুরো নাম ইন্টারন্যাজিওন্যালে মিলানো, সংক্ষেপে ভালোবেসে ইন্টারমিলান নামেই ডাকা হয়৷ এই দলের সঙ্গে অনেকটা সেয়ানে সেয়ানে লড়াই ছিল বার্সেলোনার৷ সমর্থকদের কাছে বার্সেলোনা শুধুই বার্সা৷

সেমিফাইনালের এই খেলায় নিজেদের বড় লোকসানের জন্য খেলোয়াড়দের ক্লান্তিকেই দুষেছেন বার্সেলোনার সমর্থকরা৷ কেনই বা তা হবে না! ছাই মেঘের কবলে পড়ে বিমানে উড়ে নয়, দীর্ঘ পথ তাদের পাড়ি দিতে হয়েছে দূরপাল্লার বাসে চেপে৷ বাস সে যতই আরামদায়ক হোক না কেন, পথের ক্লান্তি বলে একটা কথা আছে না!

যাকগে, খেলার শুরুটা হয়েছিল বেশ৷ স্টেডিয়াম ভর্তি দর্শক৷ হর্ষধ্বনি দুই শিবির থেকেই৷ বল মাঠে গড়ানোর পর বোঝা গেলো নিজের মাঠে কতোটা শক্তিশালী ইন্টারমিলানের খেলোয়াড়রা৷ খেলা শুরু হবার ১৯ মিনিটের মাথায় বার্সেলোনার পক্ষে প্রথম গোলটি করেন পেদ্রো রডরিগেজ,

Champion League Inter Milan Barcelona

বার্সেলোনার হয়ে একমাত্র গোলের নায়ক প্রাডো

১৯ মিনিটের মাথায়৷ বার্সেলোনার সমর্থকদের আনন্দ হাততালি আর সুর করে গান গাইবার সুযোগটা একবারই এসেছিল৷ এরপর আর কোন গোল তারা পায়নি, ফলে আনন্দও করতে পারেনি৷ কেবল হজম করেছে অপর দলের গান, আনন্দ আর গোল৷ ৩০ মিনিটের মাথায় ওয়েসলি স্নাইডারের পা থেকে আবার গোল আসে ইন্টারমিলানের৷ এরপর ৪৮ এবং ৬১ মিনিটের মাথায় গোল করেন মাইকন এবং দিয়েগো মিলিটো৷

এই খেলার পর ‘দ্য গোল' নামের ফুটবল খেলা বিষয়ক নিউজ ওয়েবসাইট বার্সেলোনার লিয়নেল মেসিকে উপাধি দিয়েছে সেরা খেলোয়াড় নয়, ফ্লপ খেলোয়াড় হিসাবে৷ আর সেরা খেলোয়াড় হয়েছেন ইন্টারমিলানের ওয়েসলি স্নাইডার৷

বলে রাখা ভালো গত নভেম্বর মাসে বার্সেলোনা কিন্তু ইন্টারমিলানকে ধরাশায়ী করেছিল৷ এবার কি সেই পরাজয়ের প্রতিশোধ নিলো ১৯০৮ সালে জন্ম নেয়া দল ইন্টার মিলান!

চ্যাম্পিয়ন্স লিগের অর্থাৎ উয়েফা কাপের সেমিফাইনালের অপর আসরটি বুধবার৷ জার্মানির বায়ার্ন মিউনিখ এবং অলিম্পিক লিওঁ হচ্ছে মুখোমুখি৷

প্রতিবেদন: সাগর সরওয়ার

সম্পাদনা: রিয়াজুল ইসলাম

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন