হেরেও হার মানছেন না ট্রাম্প | বিশ্ব | DW | 07.11.2018
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

যুক্তরাষ্ট্র

হেরেও হার মানছেন না ট্রাম্প

অ্যামেরিকার ক্ষমতাকেন্দ্রে একচেটিয়া আধিপত্য হারালো রিপাবলিকান দল৷ প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প প্রাণপণ চেষ্টা করেও কংগ্রেসের একটি কক্ষে দলের সংখ্যাগরিষ্ঠতা বজায় রাখতে পারলেন না৷

মিডটার্ম নির্বাচনে মার্কিন কংগ্রেসের নিম্ন কক্ষ হাউস অফ রিপ্রেজেন্টেটিভ চলে গেল বিরোধী ডেমোক্র্যাটিক দলের কাছে৷ গত ৮ বছরে এই প্রথম এমনটা ঘটলো৷ তবে সেনেটের এক তৃতীয়াংশ আসনের নির্বাচনে রিপাবলিকান দল সংখ্যাগরিষ্ঠতা আরো বাড়াতে পেরেছে৷ গতবারের তুলনায় অনেক বেশি সংখ্যক ভোটার তাঁদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করে এমন ফল সম্ভব করেছেন বলে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞরা মনে করছেন৷

নিম্ন কক্ষে হার উচ্চ কক্ষে রিপাবলিকান দলের জয়ের আনন্দ ঢেকে দিচ্ছে৷ বিশেষ করে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প যেভাবে দলের প্রচার অভিযানে নিজেকে ভাসিয়ে দিয়েছিলেন, তার পরেও এমন ফল সরাসরি তাঁর কার্যকাল সম্পর্কে ভোটারদের রায় হিসেবে গণ্য করা হচ্ছে৷ হারের খবর সত্ত্বেও ট্রাম্প অবশ্য দমে যাবার পাত্র নন৷ এক টুইট বার্তায় তিনি বরং দলের ‘অসাধারণ সাফল্য' তুলে ধরে সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন৷

উল্লেখ্য, এর আগে অন্য কোনো প্রেসিডেন্ট মিডটার্ম নির্বাচনের প্রচারে এমন সক্রিয় ভূমিকা পালন করেননি৷ তার পরেও ক্ষমতা হারিয়ে রিপাবলিকান দল ট্রাম্পের উপর আরো নির্ভরশীল হয়ে পড়লো বলে অনেক বিশ্লেষক মনে করছেন৷

ওয়াশিংটনে এমন রাজনৈতিক ভূমিকম্পের ফলে বাকি দুই বছরের কার্যকালে পদে পদে বাধার মুখে পড়তে পারেন ট্রাম্প৷ আগামী জানুয়ারি মাসে সংসদের অধিবেশন শুরু হবার পর তাঁর পদক্ষেপ বা সিদ্ধান্তে বাধার পাশাপাশি গোটা প্রশাসনের কাজকর্মের উপর কড়া নজর রাখতে পারে বিরোধী ডেমোক্র্যাটিক দল৷ প্রেসিডেন্টের আয়কর সংক্রান্ত বিভ্রান্তি, তাঁর ব্যবসায়িক স্বার্থের সঙ্গে ক্ষমতার সম্ভাব্য সংঘাত, ২০১৬ সালে তাঁর প্রচার অভিযানের সঙ্গে রাশিয়ার যোগসূত্র সংক্রান্ত অভিযোগেরও তদন্ত তরান্বিত করতে পারে বিরোধীরা৷ এমনকি প্রেসিডেন্টকে ক্ষমতাচ্যুত করতে ‘ইমপিচমেন্ট' প্রক্রিয়াও শুরু করার ক্ষমতা পাচ্ছে বিরোধীরা, যদিও সেনেটে এমন পদক্ষেপের প্রতি সমর্থন আদায় করা কঠিন হবে৷ অন্যদিকে বাধার মুখে ট্রাম্প তাঁর সব ব্যর্থতার দায় ডেমোক্র্যাটদের উপর চাপিয়ে দেবার সুযোগ পাবেন৷

জয়ের খবর পেয়ে হাউস অফ রিপ্রেজেন্টেটিভে ডেমোক্র্যাটিক নেতা ন্যান্সি পেলোসি দলের সদস্য ও সমর্থকদের উদ্দেশ্যে বলেন, তাদের জন্যই আগামীকাল অ্যামেরিকায় এক নতুন দিনের সূচনা ঘটবে৷ তাঁর মতে, অ্যামেরিকার মানুষ শান্তি চান, ফল দেখতে চান৷ উল্লেখ্য, নির্বাচনি প্রচারে নিজের সমর্থকদের উদ্বুদ্ধ করতে ট্রাম্প সম্প্রীতির বদলে বিভাজনের উপরই জোর দিয়েছিলেন৷

সংসদ নির্বাচনের পাশাপাশি বেশ কয়েকটি রাজ্যে গভর্নর পদের জন্যও নির্বাচন হয়েছে৷ ডেমোক্র্যাটিক দল মিশিগান, ইলিনয় ও ক্যানসাস রাজ্যে রিপাবলিকান দলের হাত থেকে এই পদ ছিনিয়ে নিয়েছে৷

Infografik US Midterms Senat 2018 BN

এসবি/এসিবি (রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন