স্বাধীনতা ঘোষণা সত্ত্বেও আলোচনা চায় কাটালুনিয়া | বিশ্ব | DW | 10.10.2017
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

স্পেন

স্বাধীনতা ঘোষণা সত্ত্বেও আলোচনা চায় কাটালুনিয়া

প্রত্যাশা অনুযায়ী ‘প্রতীকী' স্বাধীনতা ঘোষণা করলেও মাদ্রিদের সঙ্গে আলোচনার স্বার্থে রাজ্য বিধানসভায় আপাতত সেই সিদ্ধান্ত কার্যকর না করার ডাক দিয়েছেন স্পেনের কাটালুনিয়া রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী কারলেস পুজেমন৷

মঙ্গলবার সন্ধায় বার্সেলোনায় কাটালুনিয়া রাজ্য বিধানসভায় বহু প্রতীক্ষিত ভাষণে মুখ্যমন্ত্রী কারলেস পুজেমন বিতর্কিত গণভোটে স্বাধীনতার রায়ের আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি দিলেন৷ অর্থাৎ তিনি কার্যত কাটালুনিয়ার স্বাধীনতা ঘোষণা করলেন৷ কিন্তু একতরফা এই ঘোষণা সত্ত্বেও মাদ্রিদে ফেডারেল সরকারের সঙ্গে সংলাপের পথও খোলা রাখতে চান তিনি৷ তাই ‘প্রতীকী' অর্থে স্বাধীনতার এই ঘোষণা সত্ত্বেও এখনই সেই সিদ্ধান্ত কার্যকর না করার ডাক দিয়েছেন পুজেমন৷

আপাতত কাটালুনিয়ার এমন ‘প্রতীকী' স্বাধীনতাও স্পেনে গভীর সংকট সৃষ্টি করেছে, এ বিষয়ে কোনো সন্দেহ নেই৷ বার্সেলোনা থেকে সংলাপের এই বার্তা মাদ্রিদে ফেডারেল সরকার গ্রহণ করবে – এমন কোনো সম্ভাবনা দেখা যাচ্ছে না৷ মঙ্গলবারই এক সরকারি মুখপাত্র এই ঘোষণার তীব্র সমালোচনা করে সংলাপের প্রস্তাব উড়িয়ে দিয়েছেন৷ শুরু থেকেই একতরফা স্বাধীনতার প্রশ্নে কোনোরকম আলোচনার পথ বন্ধ করে দিয়েছে প্রধানমন্ত্রী মারিয়ানো রাখোই-এর সরকার৷

এমন পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী রাখোই স্পেনের আধুনিক ইতিহাসে অভূতপূর্ব পদক্ষেপ নেবার ইঙ্গিত দিয়েছেন৷ কাটালুনিয়ার রাজ্য বিধানসভা ভেঙে দিয়ে তিনি আগাম নির্বাচন ডাকতে পারেন৷ সাংবিধানিক আদালতের কাছেও সরকার এই স্বাধীনতার ঘোষণাকে অসাংবিধানিক হিসেবে নস্যাৎ করে দেবার আবেদন জানাতে পারে৷

এসবি/এসিবি (এএফপি, রয়টার্স, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়