সিরিয়ার উত্তর-পূর্বে যে-কোনো রাতে তুরস্কের অভিযান | বিশ্ব | DW | 07.10.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

তুরস্ক-সিরিয়া

সিরিয়ার উত্তর-পূর্বে যে-কোনো রাতে তুরস্কের অভিযান

সিরিয়ার উত্তর-পূর্ব থেকে সৈন্য সরিয়ে নিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র৷ এর্দোয়ান-ট্রাম্প টেলিফোন কথোপকথনের পর এ উদ্যোগ নেয় যুক্তরাষ্ট্র৷ এর্দোয়ান বলেছেন, ‘‘যে-কোনো রাতে আমরা (সিরিয়া সীমান্তে)  আসতে পারি৷''

রবিবার তুরস্কের সংবাদ সংস্থা ডিএইচএ জানায়, ট্যাঙ্কসহ তুরস্কের সৈন্যের বহর ইতিমধ্যে সিরিয়ার সীমান্তের দিকে রওনা হয়েছে৷ রোববার রাতে এক বিবৃতিতে হোয়াইট হাউস জানায়, যুক্তরাষ্ট্র সিরিয়ার তুরস্ক সংলগ্ন সীমান্ত থেকে সৈন্য সরাতে শুরু করেছে৷ তুরস্ক আগেই ওই সীমান্ত দিয়ে হামলা শুরুর হুমকি দিয়েছিল৷ হোয়াইট হাউসের বিবৃতিতে বলা হয়, ‘‘তাদের দীর্ঘদিনের পরিকল্পনা অনুযায়ী তুরস্ক খুব শিগগিরই সিরিয়ার উত্তরের দিকে অগ্রসর হবে৷ যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনি এ অভিযান সমর্থন করবে না বা তাতে জড়াবে না৷'' 

কুর্দিদের নেতৃত্বাধীন সিরিয়ান ডেমোক্র্যাটিক ফোর্স (এসডিসি) যুক্তরাষ্ট্রের এই সিদ্ধান্তে ক্ষোভ এবং উদ্বেগ প্রকাশ করেছে৷ সোমবার এক বিবৃতিতে এসডিসি বলেছে, ‘‘আমরা তুরস্কের সঙ্গে সামরিক সংঘাত এড়ানোর চেষ্টা করা সত্ত্বেও যুক্তরাষ্ট্র অনাপত্তির বিষয়গুলো সুরাহা না করেই তুরস্ক সীমান্ত থেকে সৈন্য সরিয়ে নিচ্ছে৷ এখন সিরিয়ার উত্তর এবং পূর্বে আগ্রাসন শুরু করতে চলেছে তুরস্ক৷ ''

Syrien al-Hasaka | Demonstration von syrischen Kurden (Getty Images/AFP/D. Souleiman)

তুরস্কের হামলার হুমকির বিরুদ্ধে সিরীয় কুর্দিদের বিক্ষোভ

সোমবার তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রেচেপ তাইয়িপ এর্দোয়ানও বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন,‘‘কোনো সতর্কবার্তা ছাড়া যে-কোনো রাতে আমরা (সিরিয়া সীমান্তে)  আসতে পারি৷''

জাতিসংঘ বিষয়টি নিয়ে উদ্বিগ্ন৷ সিরিয়ায় জাতিসংঘের কর্মকর্তা পানোস মৌমতসিস এক বিবৃতিতে বলেছেন, ‘‘ জানি না কী ঘটতে চলেছে৷ সবচেয়ে খারাপ কিছুর জন্যই প্রস্তুতি নিচ্ছি আমরা৷''

এদিকে সৈন্য সরাতে শুরু করার পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্র এ কথাও বলেছে যে, গত দু' বছরে যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বে আইএসমুক্ত করা অঞ্চলগুলোতে এখন থেকে আইএস-এর যে কোনো তৎপরতার দায়িত্ব তুরস্ককে নিতে হবে৷

এসিবি/কেএম (এএফপি, ডিপিএ, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন