সমকামী বিয়ের বৈধতা দিলো তাইওয়ান | বিশ্ব | DW | 17.05.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

তাইওয়ান

সমকামী বিয়ের বৈধতা দিলো তাইওয়ান

এশিয়ার প্রথম দেশ হিসেবে তাইওয়ানের সংসদ শুক্রবার সমকামী বিয়েকে আইনগত বৈধতা দিয়ে একটি বিল পাস করেছে৷ ফলে সে দেশের সমকামীরা এখন তাঁদের বিয়ে নিবন্ধন করতে পারবেন৷

২০১৭ সালে তাইওয়ানের সুপ্রিম কোর্ট এক রায়ে বলেছিলেন, সমকামী বিয়ে হতে না দেয়াটা অসাংবিধানিক৷ সেই সময় সুপ্রিম কোর্ট সরকারকে দুই বছরের মধ্যে সমকামীদের বিয়ের স্বীকৃতি দিয়ে একটি বিল উপস্থাপন করতে বলেছিলেন৷ অন্যথায় স্বয়ংক্রিয়ভাবে বিয়ের সমতা আইন চালু হয়ে যাবে বলে জানিয়েছিলেন আদালত৷ আগামী ২৪ মে দুই বছরের মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা ছিল৷

তার আগেই শুক্রবার সংসদে ৬৬-২৭ ভোটে বিলটি পাস হলো৷

তবে গত বছরের নভেম্বরে সমকামীদের বিয়ে নিয়ে একাধিক গণভোটের আয়োজন করেছিল তাইওয়ান৷ সেই সময় ভোটাররা এর বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছিলেন৷ ‘দ্য কোয়ালিশন ফর দ্য হ্যাপিনেস অফ আওয়ার নেক্সট জেনারেশন' নামের একটি সংগঠন বলছে, সংসদে বিল পাস করার মাধ্যমে গণভোটে অংশ নেয়া ৭০ লক্ষ ভোটারের ইচ্ছাকে পদদলিত করা হলো৷

তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন সংসদের সিদ্ধান্তের প্রশংসা করে টুইট করেছেন৷ তিনি এই সিদ্ধান্তকে ‘সত্যিকারের সমতার দিকে বড় পদক্ষেপ' হিসেবে উল্লেখ করেছেন৷

প্রেসিডেন্ট সাই ইং-ওয়েন শুরুতে সমকামী বিয়ের পক্ষে কথা বললেও পরে ভোটার হারানোর আশঙ্কায় সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশ বাস্তবায়নে গড়িমসি করছিলেন৷

তবে শেষ পর্যন্ত সংসদে বিলটি পাস হওয়ায় এবং এতে প্রেসিডেন্টের দলের সমর্থন থাকায় জানুয়ারিতে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া নির্বাচনে সাই ইং-ওয়েনের পুনর্নিবাচিত হওয়ার বিষয়টি কঠিন হয়ে উঠতে পারে৷

এদিকে, সংসদে ভোটাভুটিকে কেন্দ্র করে সমকামী ও তাঁদের অধিকার নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন সংগঠনের কর্মকর্তারা বৃষ্টি সত্ত্বেও সংসদের বাইরে হাজির হয়েছিলেন৷ রায় পক্ষে আসার পর তাঁরা একে অপরকে ধরে আলিঙ্গন করেন এবং রংধনু পতাকা উড়িয়ে আনন্দ প্রকাশ করেন৷

জেডএইচ/এসিবি (ডিপিএ, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

বিজ্ঞাপন