লাদেনপুত্র নিহত, নিশ্চিত করলেন ট্রাম্প | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 14.09.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

যুক্তরাষ্ট্র

লাদেনপুত্র নিহত, নিশ্চিত করলেন ট্রাম্প

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প অবশেষে ওসামা বিন লাদেনের উত্তরাধিকারী হামজা বিন লাদেনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছেন৷ প্রায় সপ্তাহ ছয়েক আগে মার্কিন গণমাধ্যম তার মৃত্যুর খবর প্রচার করলেও তা এতোদিন কেউ স্বীকার করেনি৷

ওসামার ছেলেকে আন্তর্জাতিক জঙ্গি গোষ্ঠী আল-কায়েদার দায়িত্ব নেওয়ার জন্য প্রস্তুত করা হচ্ছিলো বলে ধারণা করা হয়৷ ট্রাম্প জানিয়েছেন, আফগান-পাকিস্তান সীমান্তে মার্কিন কাউন্টার-টেরোরিজম অপারেশনে হামজা মারা গেছেন

হোয়াইট হাউজ থেকে দেয়া এক বিবৃতিতে ট্রাম্প জানান, ‘‘হামজার মৃত্যুর ফলে আল-কায়েদা নেতৃত্ব হারালো, হামজার বাবার সঙ্গে সংগঠনটির প্রতীকী সম্পর্ক ছিন্ন হলো এবং সংগঠনটির গুরুত্বপূর্ণ অপারেশনগুলোও নস্যাৎ করা সম্ভব হলো৷''

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক কর্মকর্তার বরাত দিয়ে আগস্টের শুরুতেই মার্কিন গণমাধ্যম জানিয়েছিল যে গত দুই বছরের মধ্যে কোনো এক মার্কিন অপারেশনে আল-কায়েদার সম্ভাব্য নেতা মারা গেছেন৷

গত মাসে প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এসপার এ তথ্য স্বীকার করে নিলেও এ সম্পর্কে ট্রাম্প না কোনো শীর্ষ সামরিক কর্মকর্তা এ নিয়ে কোনো মন্তব্য জানাননি৷

তবে এখন কেনো ট্রাম্প এ ঘোষণা দিলেন তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে৷ মার্কিন-তালিবান আলোচনা ভেস্তে যাওয়ার পর এবং নাইন ইলেভেনের বার্ষিকীর একদিন পরই এ ঘোষণা দিলেন ট্রাম্প৷

ওসামা বিন লাদেনের ২০ সন্তানের ১৫তম হামজার বয়েস ৩০ বছর বলে ধারণা করা হয়৷

ফেব্রুয়ারিতে মার্কিন সরকার হামজাকে ধরতে এক মিলিয়ন ডলার পুরস্কার ঘোষণা করে৷ ফলে এখন ধারণা করা হচ্ছে তাকে ‘আল-কায়েদার ভবিষ্যত সম্ভাব্য নেতা' বলে ঘোষণা দেয়ার আগেই তিনি নিহত হয়েছিলেন৷

২০১১ সালে পাকিস্তানের  অ্যাবোটাবাদে মার্কিন নেভি সিল বাহিনীর এক অপারেশনে নিহত হন ওসামা বিন লাদেন৷

এর পর থেকে আল-কায়েদার নেতৃত্বে রয়েছেন ওসামার তৎকালীন মিশরীয় ডেপুটি আয়মান আল-জাওয়াহিরি৷ জাওয়াহিরিও বর্তমানে আফগান-পাকিস্তান সীমান্তের কোন এক জায়গায় আত্মগোপন করে আছেন বলে ধারণা করা হয়৷

এডিকে/এআই (এএফপি, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন