রাজকোটের রাজা হবে কে? | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 07.11.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ক্রিকেট

রাজকোটের রাজা হবে কে?

ইতিহাস পরিসংখ্যান কদিন আগেও ছিল ভারতের পক্ষে৷ অথচ মাত্র এক খেলার ফলেই পালটে গেলো চিত্র৷ টাইগারদের সামনে আজ সুবর্ণ সুযোগ ইতিহাস পকেটে পোরার৷

প্রথম আট ম্যাচের একটিতেও ভারতকে হারাতে পারেনি বাংলাদেশ৷ দুটি ম্যাচে টানটান উত্তেজনা তৈরি হলেও শেষ পর্যন্ত আর জয়ের মুখ দেখা হয়নি টাইগারদের৷

স্বাভাবিকভাবেই ক্রিকেটপ্রেমীদের বরাবর আশা, বাংলাদেশই সবচেয়ে ভালো খেলবে৷ কিন্তু সামর্থ্য, অভিজ্ঞতা, মাঠের উপস্থিত বুদ্ধি আর টেম্পারামেন্টে প্রায়শই ধরাশায়ী হতে হয় বাংলাদেশ দলকে৷

বাংলাদেশের ক্রিকেট ইতিহাসে প্রথমবারের মতো পূর্ণাঙ্গ ভারত সফর নিয়ে বেশ অনিশ্চয়তাই তৈরি হয়েছিল৷ ক্রিকেটারদের ধর্মঘট, বিসিবির সঙ্গে খেলোয়াড়দের দূরত্ব, জুয়াড়ির তথ্য গোপন করায় সাকিবকে আইসিসির নিষেধাজ্ঞা, সবকিছু মিলিয়ে বেশ ভজঘট অবস্থা৷

শেষ পর্যন্ত সাকিবকে ছাড়াই ভারত যায় বাংলাদেশ, দল থেকে ছুটে নেন নিয়মিত ওপেনার তামিম ইকবালও৷ দলের দায়িত্ব যায় মাহমুদুল্লাহর ঘাড়ে৷ অন্যদিকে ভারতেও অবশ্য টিটোয়েন্টি দলে নেই বিরাট কোহলি৷ জসপ্রীত বুমরাহ ও হার্দিক পান্ডিয়াও চিকিৎসার কারণে বিশ্রামে রয়েছেন৷

এর মধ্যে ভয়াবহ দূষণে যেখানে দিল্লির বাসিন্দারাও ঠিকভাবে শ্বাস নিতে পারছিলেন না, সেখানে বাংলাদেশের ক্রিকেটারেরা কিভাবে স্বাভাবিক খেলা খেলবেন, সেটিও ছিল চিন্তার বিষয়৷

কিন্তু আগের সব পরিসংখ্যান বদলে, সব দুশ্চিন্তা ছুড়ে ফেলে প্রথম টিটোয়েন্টি জেতে বাংলাদেশ৷ সিরিজে এগিয়ে থাকা টাইগারদের ভারতের বিপক্ষে সিরিজ জেতার সুবর্ণ সুযোগ আজ রাজকোটে৷

বাংলাদেশে ডয়চে ভেলের কনটেন্ট পার্টনার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম জানিয়েছে, বুধবারের অনুশীলনে বেশ ফুরফুরে ছিলেন সফরকারী ক্রিকেটাররা। এ দিন নেটে বোলিং করেননি মুস্তাফিজুর রহমান, আল আমিন হোসেন ও শফিউল ইসলাম। সেন্টার উইকেটে শার্ল ল্যাঙ্গাভেল্টের তত্ত্বাবধানে সেরেছেন প্রস্তুতি। পরে সৌম্য আলাদাভাবে করেছেন স্পট বোলিং। নেটে অনেকটা সময় ধরে বোলিং করেন তাইজুল ইসলাম, আরাফাত সানি ও আমিনুল ইসলাম। মোহাম্মদ মিঠুনসহ সব ব্যাটসম্যান নেটে ব্যাটিং করেন লম্বা সময় ধরে।

সাইক্লোন মাহার প্রভাবে আগেরদিন তুমুল বৃষ্টি হলেও বৃহস্পতিবার মেঘ কেটে গেছে৷ গুজরাটের অনেক জায়গায় ভারী বৃষ্টির সম্ভাবনা থাকলেও ভারত-বাংলাদেশ দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টির ভেন্যু রাজকোটের আকাশে সকাল থেকেই রোদের উজ্জ্বল উপস্থিতি।

অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ সংবাদ সম্মেলনে জানিয়েছেন, সিরিজ জেতার কাজটা রাজকোটেই সেরে ফেলতে চায় বাংলাদেশ। তিনি জানান, ‘‘বাংলাদেশের ক্রিকেটে যা হলো গত কদিনে, এমন একটা সিরিজ জেতা বিশাল উদ্দীপক হবে বাংলাদেশের ক্রিকেট ও বাংলাদেশ দলের জন্য৷ ভারতকে হারাতে আমাদের সেরা ক্রিকেট খেলতে হবে৷ আমরা জানি, তারা খুব ভালো দল। ঘরের মাঠে এবং সব খানেই৷''

আগের ম্যাচের উইনিং কম্বিনেশনে পরিবর্তন না আনার আভাস দিয়েছেন অধিনায়ক৷ পিচ খুব বেশি শুষ্ক থাকলে ম্যাচের আগে সে অনুযায়ী চিন্তাভাবনা করবেন বলেও জানিয়েছেন মাহমুদুল্লাহ৷

ভারতের টিটোয়েন্টি অধিনায়ক রোহিত শর্মাও দলে পরিবর্তন না আনার কথা বলেছেন৷ আগের ম্যাচের কথা ভুলে চরম লড়াইয়ের হুঁশিয়ারিও রোহিতের কণ্ঠে৷

এডিকে/কেএম

নির্বাচিত প্রতিবেদন

বিজ্ঞাপন