যৌন ভিডিও কাল হলো, সংসার ভাঙল প্রভা | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 23.02.2011
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

যৌন ভিডিও কাল হলো, সংসার ভাঙল প্রভা

অবশেষে ঘর ভেঙেছে অপূর্ব আর প্রভার৷ বাংলাদেশের একটি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, দিনকয়েক আগেই চুকে গেছে তাদের সম্পর্ক৷ প্রভাও এই খবরের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন৷ কিন্তু প্রশ্ন অন্যত্র৷

default

প্রতীকী ছবি

অভিনেতা অপূর্ব'র সঙ্গে মডেল কন্যা প্রভা'র ছাড়াছাড়ি হয়েছে ১১ ফেব্রুয়ারি৷ বার্তা সংস্থা বাংলানিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে প্রভা জানিয়েছেন, গত ১১ ফেব্রুয়ারি আমাদের বাসায় দুই পরিবারের উপস্থিতিতে ডিভোর্স হয়েছে৷ জানা যায়, অপূর্বর সঙ্গে প্রভার বিয়ের পর পরই তার একটি যৌন ভিডিও ইন্টারনেটে প্রকাশ পায়৷ সাবেক ছেলেবন্ধু রাজিবের সঙ্গে এই ভিডিও বেশ বিব্রতকর পরিস্থিতিতে ফেলে প্রভাকে৷

প্রযুক্তির কল্যাণে আজকাল অবশ্য তারকাদের সেক্স ভিডিও দুর্লভ কোন বস্তু নয়৷ জনপ্রিয় মার্কিন তারকা কিম কার্ডাশিয়ানের সেক্স ভিডিও নিয়ে তোলপাড় চলছে গত কয়েক বছর ধরে৷ তাতে কার্ডাশিয়ানের জনপ্রিয়তা খুব একটা কমেছে বলে মনে হয় না৷ বরং সেক্স ভিডিও নিয়ে রসালো সব মন্তব্য করেছেন কিম নিজেই, টুইটারে৷ ভিডিওটির প্রকাশকের বিরুদ্ধে মামলা করে পেয়েছেন পঞ্চাশ লাখ মার্কিন ডলার!

বলিউড তারকা ক্যাটরিনা কাইফের ছোট বোনের সেক্স ভিডিও ব্যাপক আলোড়ন ওঠে গত বছর৷ ক্যাটরিনা অবশ্য দাবি করেছিলেন, ভিডিও-র মেয়েটি তাঁর বোন নন, বোনের মত দেখতে৷ ক্যাটরিনা যাই বলুক, নিন্দুকরা কিন্তু বলতে ছাড়েননি মেয়েটা ইসাবেল কাইফ, ক্যাটরিনার ছোট বোন৷

সেক্স ভিডিও নিয়ে এতকথা বলছি, কেননা প্রযুক্তিই এসবকে ছড়াচ্ছে মুহূর্তের মধ্যে৷ আজকাল মুঠোফোনেই মিলছে ভালো মানের ক্যামেরা৷ তার সঙ্গে রয়েছে ইন্টারনেট৷ তাই, যে কোন ভিডিও বা ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়া যায় মুহূর্তের মধ্যেই৷

প্রযুক্তির এই অপব্যবহার রোধে কিন্তু আইনও রয়েছে৷ বাংলাদেশে কয়েক বছর আগেই চালু হয়েছে আইসিটি অ্যাক্ট৷ এই আইনের আওতায় ইন্টারনেটে অশ্লীল কিছু প্রকাশ করলে তার শাস্তি নিশ্চিত করা সম্ভব৷ তবে, এখন পর্যন্ত এই আইনের আওতায় খুব কমই মামলা হয়েছে৷

বলাবাহুল্য প্রযুক্তির এই অপব্যবহার প্রযুক্তির মাধ্যমে প্রতিহত করা একরকম অসম্ভব৷ কেননা, কপি-পেস্টের এই যুগে যেকোন ডিজিটাল কন্টেন্ট মুহূর্তের মধ্যেই কয়েক লাখ কপিতে পরিণত হচ্ছে৷ তাই, ধরে সেগুলো মোছা অসম্ভব৷ তবে, সতর্ক হলে এরকম বিব্রতকর পরিস্থিতি থেকে রেহাই পাওয়া সম্ভব৷ অন্তত বিশেষ মুহূর্তে প্রযুক্তি পণ্যের কাছ থেকে দূরে থাকাই সমাচীন৷

প্রতিবেদন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: অরুণ শঙ্কর চৌধুরী

নির্বাচিত প্রতিবেদন