মিথ্যার কথা স্বীকার করলেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী | বিশ্ব | DW | 15.01.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ইরান

মিথ্যার কথা স্বীকার করলেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী

বিমান ধসে পড়ার জন্য যান্ত্রিক ত্রুটিকে দায়ী করে যে সত্য গোপন করা হয়েছিল তা স্বীকার করলেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জাভাদ জারিফ৷ তবে এমন ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রের দায় আছে বলেও মনে করেন তিনি৷

গত শুক্রবার ইউক্রেনের একটি বিমান তেহরানে বিধ্বস্ত হয়৷ ১৭৬ জনকে নিয়ে তেহরান বিমান বন্দর থেকে উড়েছিল বিমানটি৷ সবাই মারা গেছেন৷

সেদিনই ইরাকে মিসাইল হামলা চালিয়েছিল ইরান৷ হামলার পর যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে প্রতিশোধ নেয়ার উল্লাসে মেতেছিল ইরানের মানুষ৷ কিন্তু বিমান যে ইরানের রেভোল্যুশনারি গার্ডের ছোঁড়া মিশাইলে বিধ্বস্ত হয়েছে তা জানার পর বিক্ষোভ শুরু হয় সরকারের বিরুদ্ধে৷ ওঠে দায়ীদের কঠোর শাস্তির দাবি৷

পরে সরকারের তরফ থেকে বিষয়টি স্বীকার করা হলেও সরকারের উচ্চ পর্যায়ের কেউ এ বিষয়ে সরাসরি কিছু বলেননি৷ দিল্লিতে এক নিরাপত্তা বৈঠকে যোগ দিতে গিয়ে উচ্চ পর্যায়ের সেই নীরবতা ভাঙলেন জাভাদ জারিফ৷ সেখানে তিনি বলেন, প্রথম দুই দিন মিথ্যা বলা হয়েছে বলে ক্ষুব্ধ জনতা গত কয়েক রাত বিক্ষোভ করেছে৷ তিনি জানান, প্রথমে তিনি এবং প্রেসিডেন্ট রুহানি জানতে পারেন যে বিমানটি আসলে ভুল করে ছোঁড়া মিসাইলের আঘাতে বিধ্বস্ত হয়েছে৷ ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, এ ঘটনার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের ‘অজ্ঞতা এবং ঔদ্ধত্বও' দায়ী৷

ইরানের কুদস বাহিনীর প্রধান কাসিম সুলেইমানিকে যুক্তরাষ্ট্র বিমান হামলায় হত্যা করার পর দু দেশের মধ্যে উত্তেজনা বেড়ে যায়৷ ইরাকে ইরানের মিসাইল হামলা এবং তেহরানে ইউক্রেনের বিমান বিধ্বস্ত হওয়ার পর উত্তেজনা কিছুটা কমেছে৷ ইরান সরকারের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, বিমান বিধ্বস্ত করার জন্য দায়ীদের বিচার হবে৷

এসিবি/কেএম (ডিপিএ, রয়টার্স, এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন