মহানবী(সা:)-বিতর্ক: দিল্লি ও উত্তরপ্রদেশে প্রবল বিক্ষোভ | বিশ্ব | DW | 10.06.2022

ডয়চে ভেলের নতুন ওয়েবসাইট ভিজিট করুন

dw.com এর বেটা সংস্করণ ভিজিট করুন৷ আমাদের কাজ এখনো শেষ হয়নি! আপনার মতামত সাইটটিকে আরো সমৃদ্ধ করতে পারে৷

  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

মহানবী(সা:)-বিতর্ক: দিল্লি ও উত্তরপ্রদেশে প্রবল বিক্ষোভ

মহানবীকে(সা:) নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের প্রতিবাদে দিল্লি, উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গ, তেলেঙ্গানার বিভিন্ন জায়গায় প্রবল বিক্ষোভ।

কলকাতায় বিক্ষোভের ছবি।

কলকাতায় বিক্ষোভের ছবি।

শুক্রবারেরর নামাজের পরই ভারতের বিভিন্ন শহরে রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখান মুসলিমরা। মহানবীকে(সা:)নিয়ে বিজেপি মুখপাত্র নূপুর শর্মার বিতর্কিত মন্তব্যের প্রতিবাদে এই বিক্ষোভ। বিক্ষোভকারীদের দাবি ছিল, নূপুর শর্মাকে গ্রেপ্তার করতে হবে।

দিল্লিতে জামে মসজিদের সামনে, কলকাতা ও হাওড়ার কয়েকটি জায়গায়, উত্তরপ্রদেশের লখনউ, সাহারানপুর, প্রয়াগরাজ, কানপুর, মোরাদাবাদ এবং তেলেঙ্গানার হায়াদ্রাবাদে বিক্ষোভ দেখানো হয়। জম্মু ও কাশ্মীরের শ্রীনগরে দোকানপাট পুরোপুরি বন্ধ ছিল। উত্তরপ্রদেশের কয়েকটি জায়গায় বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ হয়। বিক্ষোভকারীরা পাথর ছোড়ে। পুলিশ কাঁদানে গ্যাসের শেল ফাটায়।

কলকাতার পার্ক সার্কাসে বিক্ষোভ।

কলকাতার পার্ক সার্কাসে বিক্ষোভ।

দিল্লিতে নামাজের পরই জামে মসজিদের সিঁড়িতে প্রথমে বিক্ষোভ শুরু হয়। প্ল্যাকার্ড হাতে বিক্ষোভকারীরা দাঁড়িয়ে পড়েন। তারা স্লোগান দিতে শুরু করেন। সেখানে ভিড় হয়ে যায়। কিছুক্ষণ পরে জামে মসজিদের সামনে বিক্ষোভ শুরু হয়। জামে মসজিদের শাহি ইমাম বলেছেন, ''আমি জানি না, কখন বিক্ষোভ শুরু হয়। কিছু মানুষ স্লোগান দিতে থাকেন। প্রচুর মানুষ সেখানে ছিলেন। তবে তারা দ্রুত চলে যান।''

দিল্লি পুলিশের পক্ষ থেকে এএনআই-কে জানানো হয়েছে, ''মানুষ বিক্ষোভ দেখাচ্ছিলেন। আমরা তাদের সরিয়ে দিয়েছি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে।''

কলকাতায় পার্ক সার্কাস মোড়ে প্রচুর মানুষ জড়ো হয়ে বিক্ষোভ দেখান। হাওড়াতেও বিক্ষোভ দেখানো হয়।

তবে উত্তরপ্রদেশের পরিস্থিতি বেশ উত্তেজনাপূর্ণ হয়ে ওঠে। সাহারানপুর, প্রয়াগরাজ, মোরাদাবাদে পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ হয়েছে।

জিএইচ/এসজি (পিটিআই, এএনআই)