ভ্যাকসিন বিরোধী-পুলিশ সংঘর্ষ আমস্টারডামে | বিশ্ব | DW | 18.01.2021
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

নেদারল্যান্ডস

ভ্যাকসিন বিরোধী-পুলিশ সংঘর্ষ আমস্টারডামে

লকডাউন ও ভ্যাকসিন-বিরোধীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ আমস্টারডামে। বিক্ষোভ সামাল দিতে এই শীতেও জলকামান ব্যবহার পুলিশের।

আমস্টারডামে পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ।

আমস্টারডামে পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষ।

করোনা-লকডাউন ও ভ্যাকসিনেরবিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে দুই হাজারের মতো বিক্ষোভকারী জমায়েত হয়েছিলেন আমস্টারডামে। ভ্যান গখ মিউজিয়ামের সামনের চত্বরে বিক্ষোভ দেখাচ্ছিলেন তাঁরা। অনেকের হাতে ধরা পোস্টারে লেখা ছিল, 'কোভিড ভ্যাকসিন= বিষ'। সরকার যে করোনা ঠেকাতে কড়া লকডাউন চালু করেছে, তারও প্রতিবাদ জানাচ্ছিলেন তাঁরা। 

বিক্ষোভকারীরা সামাজিক দূরত্ব রাখেননি। তাঁদের মুখে মাস্কও ছিল না। 

দুই দিন আগে শিশুকল্যাণ কেলেঙ্কারির জেরে সরকারের পতন হয়েছে। রাজনৈতিক অস্থিরতা দেখা দিয়েছে। তদারকি সরকারের মন্ত্রীরা যখন কার্ফিউ ঘোষণা করা নিয়ে বৈঠক করছিলেন, তখনই ভ্যাকসিন ও করোনা-কড়াকড়ির প্রতিবাদে বিক্ষোভ হলো। 

পুলিশ এই বিক্ষোভের অনুমতি দেয়নি। আমস্টারডাম নগর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তাঁরা জানিয়ে দিয়েছিলেন, বিক্ষোভ দেখাতে হলে ওয়েস্টারপার্ক এলাকায় যেতে হবে এবং সেখানে ৫০০ জনের বেশি বিক্ষোভকারী থাকতে পারবেন না। 

স্থানীয় সংবাদপত্রের খবর, বিক্ষোভকারীরা জমায়েত হলে পুলিশ তাদের চলে যেতে বলে। কিন্তু তারা পুলিশকে লক্ষ্য করে পাথর মারতে থাকে। পুলিশ তখন জলকামান নিয়ে আসে। বিক্ষোভকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে জলকামান চালানো হয়। বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে। 

পুরসভার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, এখন যে পরিস্থিতি চলছে, তাতে সাধারণ মানুষরে স্বাস্থ্যের ক্ষেত্রে বিপুল ঝুঁকি আছে। এখন নিয়ম মেনে চলতে হবে। বিক্ষোভকারীরা নিয়ম মানেননি। 

নেদারল্যান্ডসে গত ডিসেম্বর থেকেই সব স্কুল, কলেজ বন্ধ। সম্প্রতি লকডাউনের মেয়াদ আরো তিন সপ্তাহ বাড়ানো হয়েছে। করোনা আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে থাকায় এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। 

জিএইচ/এসজি(এপি, রয়টার্স)

বিজ্ঞাপন