ভিড় ট্রেনে মেঝেতে বসেই ঘরে ফিরলেন গ্রেটা টুনব্যার্গ | বিষয় | DW | 16.12.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

গ্রেটা টুনব্যার্গ

ভিড় ট্রেনে মেঝেতে বসেই ঘরে ফিরলেন গ্রেটা টুনব্যার্গ

জার্মান রেল ডয়চে বানের একাধিক ট্রেনে প্রায়ই ব্যাপক ভিড় থাকে৷ মাদ্রিদের পরিবেশ সম্মেলন থেকে বাড়ি ফেরার সময় সেই ভিড়ের স্বাদ পেলেন গ্রেটা টুনব্যার্গও৷

মাদ্রিদ থেকে সুইডেনে বাড়ি ফেরার জন্য পরিবেশকর্মী গ্রেটা টুনব্যার্গ বেছে নিয়েছিলেন জার্মান রেল ডয়চে বানের একটি ট্রেন৷ কিন্তু শনিবারের ভিড়ের কারণে তার কপালে জুটল না একটি সিটও৷

বাধ্য হয়ে দুই কামরার মাঝে বসেই আসতে হলো তাকে৷ সেই ছবি দিয়ে একটি টুইটও করেন গ্রেটা টুনব্যার্গ৷

অল্প সময়ের মধ্যেই এই টুইটটি ভাইরাল হয়ে পড়লে অন্যান্য বিরক্ত যাত্রীরাও গ্রেটার সাথে গলা মেলাতে থাকেন৷ ডয়চে বানের ট্রেনে মাত্রাতিরিক্ত ভিড় ছাড়াও উঠে আসে অনিয়মিত ট্রেনের প্রতি সাধারণ মানুষের নালিশের কথা৷

এমনিতে জার্মানি নিয়মানুবর্তিতা ও দক্ষতার জন্য পরিচিত হলেও, ডয়চে বানের প্রতি মানুষের নালিশ বর্তমানে দৈনন্দিন বাস্তবতা৷

গ্রেটার টুইট নিয়ে আলোচনা শুরু হলেও, পরে ডয়চে বান আরেকটি টুইট করে জানায় যে গোটা যাত্রার সময়টা মেঝেতে বসে কাটাননি গ্রেটা৷ বরং, ডয়চে বানের কর্মীদের তৎপরতায় ট্রেনের ফার্স্ট ক্লাসে নিয়ে যাওয়া হয়৷

এছাড়াও, সেই ট্রেনটি যে পুরোপুরি পরিবেশবান্ধব বিদ্যুৎ দ্বারা চালিত ছিল, সেই কথাও ছিল ডয়চে বানের টুইটে৷

পরে, গ্রেটা পাল্টা টুইটে জানান যে ট্রেনে মাত্রাতিরিক্ত ভিড় আসলে পরিবেশের জন্য একটি ইতিবাচক লক্ষণ৷ এতে প্রমাণিত হয় যে মানুষ পরিবেশবান্ধব যাত্রাকেই বেছে নিচ্ছেন, তা যতই কষ্টের হোক না কেন৷

ভেসলি রান, কিথ ওয়াকার/এসএস

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়