বড় ধরনের বিপর্যয়ের দিকে এগোচ্ছে বালির মাউন্ট আগুং আগ্নেয়গিরি | বিশ্ব | DW | 27.11.2017
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ইন্দোনেশিয়া

বড় ধরনের বিপর্যয়ের দিকে এগোচ্ছে বালির মাউন্ট আগুং আগ্নেয়গিরি

ইন্দোনেশিয়ায় মাউন্ট আগুং-এ বিস্ফোরণের পর, হাজার হাজার মিটার উচ্চতায় বাতাসে ছাই ছড়িয়ে পড়ায় প্রায় এক লাখ মানুষকে এলাকা ছেড়ে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে দেশটির সরকার৷ জারি করা হয়েছে সর্বোচ্চ সতর্কবার্তাও৷

সোমবার বালিতে সর্বোচ্চ এ সতর্কতা জারি করেছে ইন্দোনেশিয়ার সরকার৷ আগ্নেয়গিরির ১০ কিলোমিটার এলাকার আশেপাশের প্রায় ১ লাখ মানুষকে এলাকা ছাড়তে বলা হযছে৷ দেশটি ব্যবস্থাপনা সংস্থা বলছে, সম্ভাব্য দুর্যোগ ও ঝুঁকির কথা চিন্তা করেই এই সতর্কতা জারি করা হয়েছে৷  

বিমান চলাচল বিপর্যস্ত

কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ছাই ভরা মেঘের কারণে বালির এনগুরাহ রাই আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ২৪ ঘণ্টার জন্য সব ফ্লাইট বন্ধ করা হয়েছে৷ এর আগে, রোববার সন্ধ্যায় পূর্বের আরেক দ্বীপ লম্বোকের ছোট আরেকটি বিমানবন্দরও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল৷

Karte Indonesien Bali Mount Agung ENG

মা্উন্ট আগুং এর অবস্থান

ফাঁদে পড়েছেন পর্যটকরা

সপ্তাহজুড়ে এই ফ্লাইট বাতিলের কারণে হাজার হাজার পর্যটক বেশ দুশ্চিন্তায় পড়েছে৷ রবিবার এয়ার এশিয়া তাদের ৩০টি ফ্লাইট বাতিল করে৷ এছাড়া ভার্জিন, কেএলএম এবং এয়ার এশিয়া মালয়েশিয়াও শনিবার বেশ কয়েকটি ফ্লাইট বাতিল করেছিল৷

বড় ধরনের আগ্নেয়গিরির আশংকায় সেপ্টেম্বরে দেশটির সরকার প্রায় ১ লাখ ৩০ হাজার মানুষকে সেই এলাকা ছাড়ার কথা বলেছিল৷ এর আগে ১৯৬৩ সালের বড় এক অগ্ন্যুত্পাতে এক হাজারের বেশি মানুষ নিহত হয়েছিল৷ ইন্দোনেশিয়ার ওপর দিয়ে প্রশান্ত মহাসাগরের ‘রিং অফ ফায়ার' অতিক্রম করেছে এবং এখানে ১২০টিরও বেশি সক্রিয় আগ্নেয়গিরি আছে৷

Indonesien Bali Ausbruch des Vulkans Mount Agung (Getty Images/AFP/S. Tumbelaka)

আগ্নেয়গিরি দেখতে মানুষের ভিড়

আইএস/এডব্লিউ/এএম (এপি, এএফপি, রয়টার্স, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

বিজ্ঞাপন