ব্রেক্সিট: ইইউ থেকে বিদায় যুক্তরাজ্যের | বিশ্ব | DW | 01.01.2021
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

যুক্তরাজ্য

ব্রেক্সিট: ইইউ থেকে বিদায় যুক্তরাজ্যের

৩১ ডিসেম্বর মধ্যরাতে ইউরোপীয় ইউনিয়নকে বিদায় জানালো যুক্তরাজ্য। ব্রেক্সিট সম্পূর্ণ হলো।

সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হয়েছিল আগেই। তবে ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত সরকারি ভাবে ইউরোপীয় ইউনিয়নের অংশ ছিল যুক্তরাজ্য। ব্রাসেলসের সময়ে ৩১ তারিখ মধ্যরাতে ইইউ থেকে বিচ্ছিন্ন হলো বরিস জনসনের দেশ। ব্রেক্সিট সম্পূর্ণ হলো। এবার যুক্তরাজ্য থেকে ইউরোপের যে কোনো দেশে যেতে গেলে ভিসা লাগবে। ইউরোপ থেকে যুক্তরাজ্যে গেলে একটি নির্দিষ্ট সময় ভিসা ছাড়া থাকা যাবে। তার বেশি সময় থাকতে হলে ভিসা নিতে হবে। সীমান্তে বসছে পুলিশ।

যুক্তরাজ্যের ব্রেক্সিটের সিদ্ধান্ত কতটা যুক্তিযুক্ত, তা নিয়ে যথেষ্ট বিতর্ক আছে। বস্তুত, ৩১ তারিখ রাতেও সে বিতর্ক উসকে দিয়েছেন ফরাসি প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাক্রোঁ। নিউ ইয়ার বক্তৃতায় তিনি বলেছেন, যুক্তরাজ্য শুধু ফ্রান্সের প্রতিবেশী নয়, বন্ধু দেশ। ব্রেক্সিটের পর কী ভাবে সেই সম্পর্ক বজায় থাকবে, তা নিয়ে ফ্রান্স উদ্বিগ্ন। ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন অবশ্য উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন। নতুন বছর উপলক্ষে বক্তৃতায় বরিস বলেছেন, যুক্তরাজ্য একটি স্বাধীন, আন্তর্জাতিকতাবাদে বিশ্বাসী রাষ্ট্রে পরিণত হলো। স্বাধীন ভাবে এ বার বাণিজ্যে অংশ নেওয়া যাবে।

বস্তুত, ৩১ তারিখ রাত ১১টার সময়েই সরকারি ভাবে ইইউ থেকে বিদায় নেয় যুক্তরাজ্য। কারণ তখন ব্রাসেলসের ঘড়িতে ১২টা বাজে। ব্রাসেলস যেহেতু ইউরোপীয় ইউনিয়নের রাজধানী, ফলে তাদের সময়েই যুক্তরাজ্যকে বিদায় নিতে হয়। এবার আর যুক্তরাজ্যের মানুষ ইউরোপে স্বাধীনভাবে যাতায়াত করতে পারবেন না। ভিসা করেই ইউরোপের যে কোনো দেশে ঢুকতে হবে। চুক্তি অনুযায়ী, ১৮০ দিনের মধ্যে ৯০ দিন টানা কোনো যুক্তরাজ্যের মানুষ ইউরোপের কোনো দেশে থাকতে চাইলে তাঁকে ভিসা করাতে হবে। অন্যদিকে, ইউরোপের কোনো মানুষ যুক্তরাজ্যে টানা ছয় মাস ভিসা ছাড়া থাকতে পারবেন। তার বেশি থাকতে চাইলে তাঁকে ভিসা করাতে হবে।

ইউরোপ থেকে যুক্তরাজ্যে এসে কাজ করতে চাইলে অথবা যুক্তরাজ্য থেকে ইউরোপে গিয়ে কাজ করতে চাইলে ওয়ার্ক ভিসা করা করাতেই হবে।

ব্রেক্সিটের কয়েক দিন আগে ইইউ সঙ্গে যুক্তরাজ্যের বাণিজ্য চুক্তি হয়েছে। ফলে মুক্ত বাণিজ্যের ক্ষেত্রে কিছু সুবিধা পাবে দুই পক্ষই। জিব্রালটার নিয়ে বৃহস্পতিবার শেষ মুহূর্তে আরও একটি চুক্তি হয়েছে। যুক্তরাজ্য এবং স্পেনের মধ্যবর্তী জিব্রালটার প্রণালী কার হবে, তা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরেই বিতর্ক চলছিল। ৩১ তারিখ শেষ মুহূর্তে দুই দেশ সিদ্ধান্ত নেয়, জিব্রালটার স্পেন এবং যুক্তরাজ্য দুই তরফের কাছেই খোলা থাকবে। এখানে যাতায়াতের জন্য আলাদা কোনো পারমিট করাতে হবে না।

এসজি/জিএইচ (রয়টার্স, এপি)

বিজ্ঞাপন