বেনজির ভুট্টোর তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 27.12.2010
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

বেনজির ভুট্টোর তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী

২৭শে ডিসেম্বর পাকিস্তানের মানুষের জন্য শোকের একটি দিন৷ তিন বছর আগে এই দিনে সাবেক প্রধানমন্ত্রী, পিপিপি নেতা বেনজির ভুট্টো আততায়ীর গুলিতে নিহত হন৷ মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৫৪ বছর৷

Benazir Bhutto

পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী, পিপিপি নেতা বেনজির ভুট্টো

পাকিস্তানের মানুষ আজ গভীর শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করছে তাদের প্রিয় নেত্রীকে৷ ভুট্টোর প্রাণ রক্ষায় ব্যর্থতার অভিযোগে চলতি মাসেই দুজন ঊর্ধতন পুলিশ অফিসারকে গ্রেপ্তার করেছে পাকিস্তানের পুলিশ৷ এরা হলেন হত্যাকাণ্ডের সময় রাওয়ালপিন্ডির পুলিশ প্রধান সউদ আজিজ ওবং আর একজন সিনিয়র পুলিশ অফিসার খুররম শাহযাদ৷

তিন বছর আগে অর্থাৎ ২০০৭ সালে ২৭শে ডিসেম্বর রাওয়ালপিন্ডি শহরে নির্বাচনী প্রচারাভিযানে ভাষণ দেয়ার পর বোমা হামলায় বেনজির নিহত হন৷ প্রথমে গুলি ছোঁড়া হয় এরপরই ঘটে কয়েকটি প্রচণ্ড বিস্ফোরণ৷ এই ঘটনার জন্য শিথিল নিরাপত্তাকেই দায়ী করেছে অনেকে৷

Männer in Pakistan vor Plakatwand mit Benazir Bhutto Flash-Galerie

বেনাজির’এর হত্যাকাণ্ড নিয়ে বহু প্রশ্ন রয়ে গেছে, যার নিরসন হয় নি এখনও

এই হত্যাকাণ্ড নিয়ে বহু প্রশ্ন রয়ে গেছে, যার নিরসন হয় নি এখনও৷ জাতিসংঘের একটি প্যানেল ভুট্টোর সুরক্ষার জন্য যথেষ্ট ব্যবস্থা গ্রহণে ব্যর্থতার জন্য দায়ী করে পাকিস্তান সরকারকে৷ বলা হয়, পাকিস্তানের বিভিন্ন গোয়েন্দা সংস্থা এবং কর্মকর্তারা তদন্ত কাজে বাধা দিয়েছে৷

বেনজিরের মৃত্যুর পরই পাকিস্তান পিপল্স পার্টি নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে ক্ষমতা আসে৷ পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট হিসেবে আসীন বেনজিরের স্বামী আসিফ আলি জারদারি৷

প্রতিবেদন: মারিনা জোয়ারদার

সম্পাদনা: আবদুল্লাহ আল-ফারূক