বিশাল অপরাধ চক্রের সন্ধান পেল জার্মান পুলিশ | বিশ্ব | DW | 31.01.2018
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি

বিশাল অপরাধ চক্রের সন্ধান পেল জার্মান পুলিশ

ভারত, বাংলাদেশের মতো দেশে এ ধরনের অপরাধচক্র নতুন নয়৷ কিন্তু জার্মানির মতো প্রথম বিশ্বেও? নির্মাণ সংস্থাগুলিকে ঘিরে এক বিশাল অপরাধচক্রের সন্ধান পেয়েছে জার্মান পুলিশ৷

বড়সড় দুর্নীতিচক্রের হদিশ মিলল জার্মানিতে৷ দেশের নর্থ রাইন ওয়েস্টফেলিয়া অঞ্চলে মঙ্গলবার ভোরে পুলিশ এবং কাস্টমসের দুর্নীতিদমন শাখার অফিসাররা অভিযান চালায়৷ অভিযোগ, অভিযান চালিয়ে একটি বিশাল আকারের অপরাধচক্রের সন্ধান মিলেছে৷ যারা জার্মানির বিভিন্ন নির্মাণ সংস্থায় বেআইনি ভাবে শ্রমিক নিয়ে আসে৷ এই শ্রমিকদের জার্মান আইন অনুসারে বেতন দেওয়া হয় না৷ বীমা এবং সামাজিক নিরাপত্তার নিয়মগুলিও পালিত হয় না৷ বহুদিন ধরেই পুলিশের কাছে এ বিষয়ে তথ্য ছিল৷ মঙ্গলবার সকালে এই অভিযান চালিয়ে মোট আটজনকে গ্রেফতার করা হয় বলে খবর৷

পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে, মঙ্গলবার ভোরে অভিযানটি বা রেইড শুরু হয়৷ নর্থ রাইন ওয়েস্টফেলিয়া অঞ্চলের ৩১ টি শহরে মোট ১৪০টি নির্মাণ সংস্থায় রেইড চালানো হয়৷ যেখান থেকে উদ্ধার হয়েছে বিপুল পরিমাণ ভুয়ো কাগজপত্র, বেআইনি অস্ত্র এবং প্রচুর পরিমাণ অর্থ৷ জানা গিয়েছে, নির্মাণ সংস্থাগুলি ভুয়ো বিল তৈরি করে অপরাধচক্রের হাতে দিত৷ সেই বিল ব্যবহার করে অপরাধচক্র বেআইনি ভাবে শ্রমিক আনার কাজটি করত৷ যে আটজনকে মঙ্গলবার গ্রেফতার করা হয়, তাদের মধ্যে দু'জন জার্মান, একজন বসনিয়ার, দু'জন সার্বিয়ার, একজন ইসরায়েলের৷ বাকি একজনের পরিচয় এখনো জানা যায়নি৷ এদের সকলের বয়স ৩১ থেকে ৭২ বছরের মধ্যে৷

সূত্রের খবর, শুধু বেআইনি শ্রমিক নিয়ে আসাই নয়, অপরাধচক্রটি নির্মাণ সংস্থাগুলির ট্যাক্স ফাঁকি দেওয়ার কাজেও সাহায্য করতো৷ পুলিশ এবং কাস্টমস অফিসারদের দাবি, এ ধরনের এত বড় অপরাধচক্রের সন্ধান এর আগে জার্মানিতে পাওয়া যায়নি৷ মঙ্গলবারের অভিযান নিয়ে তারা আশাবাদী৷ তাদের বিশ্বাস, কান টানলে মাথা আসে৷ গ্রেফতার হওয়া ব্যক্তিদের কাছ থেকে এই সংক্রান্ত আরো তথ্য মিলবে৷ সন্ধান পাওয়া যাবে রাঘব বোয়ালদের৷ তবে এতদিন কী করে এই অপরাধচক্র কাজ চালালো তা নিয়ে বিস্ময় প্রকাশ করেছেন অনেকেই৷

পুলিশ জানিয়েছে, এই অপরাধচক্রের হাত বহু দূর বিস্মৃত বলেই তাদের ধারণা৷ ভিনদেশের অপরাধচক্র এর সঙ্গে জড়িত হলেও অবাক হওয়ার কারণ নেই৷ পুলিশ এবং আইনজ্ঞদের ধারণা, অপরাধ প্রমাণিত হলে গ্রেফতার হওয়া প্রত্যেক অভিযুক্তের অন্তত ১০ বছরের কারাবাস হবে৷ সঙ্গে বিপুল টাকা ক্ষতিপূরণও দিতে হবে৷

এসজি/ডিজি

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন