বিদায়ের আগেও সতর্ক করে দিলেন ম্যার্কেল | বিশ্ব | DW | 24.06.2021
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

জার্মানি

বিদায়ের আগেও সতর্ক করে দিলেন ম্যার্কেল

জার্মান চ্যান্সেলর হিসেবে বিদায়ের আগে সংসদে করোনা মহামারি সম্পর্কে আবার সতর্ক করে দিলেন ম্যার্কেল৷ এদিকে জার্মানিতে ডেল্টা সংস্করণের অনুপাত প্রতি সপ্তাহে প্রায় দ্বিগুণ হয়ে উঠছে৷

আঙ্গেলা ম্যার্কেল

আঙ্গেলা ম্যার্কেল

জার্মানিতে করোনা সংকটের শুরু থেকেই চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেলের সতর্কবাণী ও পূর্বাভাস যথেষ্ট গুরুত্ব পেয়ে এসেছে৷ তার বিজ্ঞান-ভিত্তিক মূল্যায়ন প্রায় প্রতিটি ধাপেই সত্য প্রমাণিত হয়েছে৷ চ্যান্সেলর হিসেবে বিদায় নেবার আগে সংসদে সম্ভবত শেষ বারের মতো প্রশ্নোত্তর পর্বেও তিনি জার্মানির মানুষের উদ্দেশ্যে সতর্ক থাকার পরামর্শ দিলেন৷ তার মতে. যথেষ্ট সাফল্যের সঙ্গে জার্মানিতে করোনা ভাইরাসের তৃতীয় ঢেউ ভেঙে দেওয়া সম্ভব হলেও মহামারি মোটেই শেষ হয়ে যায় নি৷ তার মতে, পরিস্থিতি এখনও অত্যন্ত নাজুক৷ তাই বিবেচনাবোধ কাজে লাগিয়ে কিছু অবস্থায় মাস্ক পরা, দূরত্ব বজায় রাখার মতো নিয়ম চালিয়ে যাওয়া জরুরি বলে ম্যার্কেল মনে করেন৷

ম্যার্কেল এ প্রসঙ্গে আবার করোনা ভাইরাসের ডেল্টা সংস্করণ সম্পর্কে সতর্ক করে দেন৷ তিনি বলেন, যে সব দেশে ডেল্টা ভেরিয়েন্টের অনুপাত বেড়ে গেছে, সেখানে সংক্রমণের হারও বেড়েছে৷ সেই সাবধানবাণীর ভিত্তিতে জার্মানিকেও এমন অবস্থা এড়াতে যথেষ্ট উদ্যোগ নিতে হবে বলে ম্যার্কেল মনে করেন৷ চলতি বছরের গ্রীষ্মের মধ্যে জার্মানির সব মানুষ করোনা টিকার কমপক্ষে একটি ডোজ নেবার সুযোগ পাবেন বলে ম্যার্কেল আবার অঙ্গীকার করেন৷ তিনি অর্থনীতি ও কর্মসংস্থান সংক্রান্ত ইতিবাচক পূর্বাভাষ সম্পর্কেও স্বস্তি প্রকাশ করেন৷

উল্লেখ্য, রবার্ট কখ ইনস্টিটিউটের সূত্র অনুযায়ী জার্মানিতে করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে ডেল্টা সংস্করণের অনুপাত এরই মধ্যে প্রায় ১৫ শতাংশ ছুঁয়েছে৷ অর্থাৎ প্রতি সপ্তাহে সেই অনুপাত প্রায় দ্বিগুণ হয়ে উঠছে৷ এমন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ার কারণে ব্রিটেনের মতো জার্মানিতেও এই ভেরিয়েন্ট কবে পুরোপুরি আধিপত্য বিস্তার করবে, সে বিষয়ে জল্পনাকল্পনা চলছে৷

করোনা টিকাদান কর্মসূচির গতি আরও বাড়াতে পারলে ডেল্টা ভেরিয়েন্ট মোকাবিলা করা আরও সহজ হবে বলে অনেক বিশেষজ্ঞ মনে করছেন৷ বিশেষ করে টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিতে ভুললে চলবে না৷ সেইসঙ্গে ব্রিটেনের মতো ডেল্টা-কবলিত দেশ থেকে প্রবেশ করলে কোয়ারেন্টাইনের নিয়মও গুরুত্বপূর্ণ৷ চ্যান্সেলর ম্যার্কেল ইউরোপীয় ইউনিয়নের সব দেশেই এমন নিয়ম চালু করার পক্ষে সওয়াল করেন৷ ব্রিটেন থেকে অবাধ প্রবেশের সুযোগের কারণে বিশেষ করে পর্তুগালে ডেল্টার প্রকোপ দ্রুত বেড়ে যাওয়ায় এমন পদক্ষেপের প্রয়োজনীয়তা নিয়ে তর্কবিতর্ক চলছে৷ আসন্ন ইইউ শীর্ষ সম্মেলনেও বিষয়টি আলোচিত হতে পারে৷ ইউরোপীয় ইউনিয়নের রোগ নিয়ন্ত্রণ দফতরের মূল্যায়ন অনুযায়ী সদস্য দেশগুলিতে করোনায় আক্রান্তদের মধ্যে ডেল্টার অনুপাত আগস্ট মাসের মধ্যে ৯০ শতাংশ হয়ে উঠবে৷

এসবি/কেএম (ডিপিএ, রয়টার্স, এএফপি)

সংশ্লিষ্ট বিষয়