বলিউডে মাদকযোগের প্রমাণ নেই: মোদী সরকার | বিশ্ব | DW | 16.09.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

বলিউডে মাদকযোগের প্রমাণ নেই: মোদী সরকার

বলিউড তারকাদের মাদক পাচার বা নেয়া নিয়ে কোনো প্রমাণ তাদের হাতে নেই। সংসদে জানিয়ে দিল সরকার।

সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর পরেই অভিযোগ উঠতে শুরু করে বলিউডের নায়ক-নায়িকারা মাদক নেন এবং মাদক চোরাকারবারের সঙ্গে তাঁদের যোগাযোগ আছে। মাদক রাখার অভিযোগে সুশান্তের বন্ধু অভিনেত্রী রিয়া চক্রবর্তী ও তাঁর ভাই শৌভিক চক্রবর্তীর গ্রেফতারের ঘটনা সেই অভিযোগ আরো উসকে দেয়। কঙ্গনা রানাওয়াতের মতো বলিউডের নায়িকা মাদক নিয়ে একের পর এক টুইট করেন। তাঁর দাবি ছিল, ঠিকভাবে তদন্ত করলে প্রচুর বলিউড তারকা মাদক-যোগের জন্য জেলে যাবেন।

সংসদেও এই নিয়ে বিজেপির তারকা সাংসদ রবি কিষেনের সঙ্গে সমাজবাদী পার্টির তারকা সাংসদ জয়া বচ্চনের কথার লড়াই হয়েছে। রবি কিষেন বলিউডের তারকাদের মাদকাশক্তি নিয়ে অভিযোগ করেছিলেন। তার প্রতিবাদ করেন জয়া বচ্চন। তিনি রবির অভিযোগ পুরোপুরি খারিজ করে দেন।

বিতর্ক যখন জোরদার, তখনই সরকারের তরফে জবাব এলো, বলিউডেরসঙ্গে মাদক যোগের কোনো প্রমাণ নেই। স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী জি কিষেণ রেড্ডি একটি প্রশ্নের লিখিত জবাবে জানিয়েছেন, কোভিড লকডাউনের সময়ে এই মাদক যোগের কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তবে গত ২৮ অগাস্ট মুম্বইয়ে নারকোটিক্স ব্যুরো একটি অভিযান চালায়। সেখানে গাঁজা, চরস, এলএসডির মতো মাদক বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। ১০ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে মন্ত্রী জানিয়েছেন।

জিএইচ/এসজি(পিটিআই, এএনআই)

বিজ্ঞাপন