বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট নিয়ে এ কী বললেন হানিফ! | বিশ্ব | DW | 06.05.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভাইরাল ভিডিও

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট নিয়ে এ কী বললেন হানিফ!

বাংলাদেশের বঙ্গবন্ধু ১ স্যাটেলাইট থেকে আবহাওয়ার আগাম তথ্য পাওয়ায় ঘূর্ণিঝড় ফণীর ক্ষয়ক্ষতি কমিয়ে আনা সম্ভব হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ৷

 মাহবুব-উল আলম হানিফের এই মন্তব্য ভাইরাল হয়ে গেছে৷

 ঘূর্ণিঝড় ফণী মোকাবিলায়  নেয়া উদ্যোগ প্রসঙ্গে শনিবার আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, ‘‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণের মাধ্যমে ঘূর্ণিঝড়ের আগাম খবর আমাদের দেশের আবহাওয়া অধিদপ্তর সংগ্রহ করেছিল৷ আগাম তথ্য পেয়েছিলাম বিধায় সরকার ও দলীয়ভাবে ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় সর্বাত্মক প্রস্তুতি গ্রহণ করেছিলাম, যার ফলে ক্ষয়ক্ষতি কমিয়ে আনা সম্ভব হয়েছে৷''

হানিফের এই বক্তব্য প্রকাশের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে বঙ্গবন্ধু ১ স্যাটেলাইটের আবহাওয়া বিষয়ক কোন তথ্য দেয়ার আদৌ কোনো ক্ষমতা আছে কিনা তা নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন, কেননা, বাংলাদেশ সরকার ইতোপূর্বে জানিয়েছে, এটি বাংলাদেশের প্রথম ভূস্থির যোগাযোগ ও সম্প্রচার স্যাটেলাইট৷

ডয়চে ভেলের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত এই স্যাটেলাইট বিষয়ক এক প্রতিবেদনে বিশেষজ্ঞরা নিশ্চিত করেছেন, আবহওয়া বিষয়ক কোনো তথ্য দেয়ার ক্ষমতা স্যাটেলাইটটির নেই৷ এটিকে মূলত সম্প্রচার এবং প্রাকৃতিক দুর্যোগে স্বাভাবিক যোগাযোগ ব্যবস্থা ভেঙে পড়লে কিংবা অন্য কোনো জরুরি প্রয়োজনে টেলিকমিউনিকেশন এবং ইন্টারনেটভিত্তিক যোগাযোগের কাজে ব্যবহার করা সম্ভব৷

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসরত বাংলাদেশ যোগাযোগ এবং সাইবারনিরাপত্তা বিশেষজ্ঞ জাভেদ ইকবাল এই বিষয়ে বলেন, ‘‘বঙ্গবন্ধু ১ স্যাটেলাইটটির আবহাওয়া পর্যবেক্ষণের কোনো ক্ষমতা নেই৷ এটি শুধুমাত্র সম্প্রচার, টেলিযোগাযোগ ও ডেটা যোগাযোগের জন্য ব্যবহার করা যাবে৷''

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটটিকে ঘূর্ণিঝড় ফণীর সঙ্গে সম্পৃক্ত করে বক্তব্য দেয়ায় তাই অনেকে ফেসবুকে আওয়ামী লীগ নেতার সমালোচনা করেছেন৷ তিনি কি বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের কর্মক্ষমতা সত্যিই জানতেন না, নাকি জানার পরও শুধুমাত্র সাফল্যের খতিয়ান দিতে ‘ভুল তথ্য' প্রকাশ করেছেন সেটা জানতে চেয়েছেন অনেকে৷ ডয়চে ভেলের ফেসবুক পাতায় এ সংক্রান্ত একটি পোস্টে তিন হাজারের বেশি মন্তব্য পাওয়া গেছে৷

এআই/এসিবি

নির্বাচিত প্রতিবেদন

বিজ্ঞাপন