ফ্রান্স এবং ইটালিতে ব্যাপক করোনা বিক্ষোভ | বিশ্ব | DW | 09.08.2021
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ইউরোপ

ফ্রান্স এবং ইটালিতে ব্যাপক করোনা বিক্ষোভ

হেলথ পাসের বিরুদ্ধে সরব ফ্রান্স এবং ইটালি। শনি এবং রোববার প্রবল বিক্ষোভ হয়েছে দুইটি দেশেই।

কোনো ভাবেই স্বাস্থ্য কার্ড চালু করা যাবে না। ফ্রান্সে এ নিয়ে বিক্ষোভ শুরু হয়েছিল এক মাস আগেই। রোববার সব চেয়ে বড় বিক্ষোভ হয়েছে গোটা দেশ জুড়ে। বিভিন্ন শহরে সব মিলিয়ে দুই লাখ ৩৭ হাজার মানুষ রাস্তায় নেমেছিলেন। ইটালিতেও প্রচুর মানুষ বিক্ষোভ দেখিয়েছেন। অভিনব সোনালি স্টার পরে অনেকে রাস্তায় নেমেছিলেন। গোটা ইউরোপেই এই সোনালি স্টার ভয়াবহতার প্রতীক। নাৎসি জার্মানিতে ইহুদিদের এই ব্যাজ পরতে হতো। ইটালির বিক্ষোভকারীরা সেই ব্যাজ পরে বিক্ষোভ দেখিয়ে বলার চেষ্টা করেছেন, হেলথ পাস সোনালি স্টারেরই নামান্তর।

গত এক মাস ধরে হেলথ পাসের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখছে ফ্রান্স। গত সপ্তাহান্তে দুই লাখ মানুষ রাস্তায় নেমেছিলেন। এই সপ্তাহান্তে আরো বেশি জমায়েত হয়েছে গোটা ফ্রান্স জুড়ে। প্যারিসের রাস্তায় নেমেছিলেন ১৭ হাজার মানুষ। নিসে ছিলেন প্রায় ২০ হাজার মানুষ। সকলেরই বক্তব্য, স্বাস্থ্য পাস চালু করা যাবে না। গোটা দেশ জুড়ে স্বাস্থ্য পাস চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফরাসি প্রশাসন। আদালতও তাতে শিলমোহর দিয়েছে। এর অর্থ, সকলকে সর্বক্ষণ এই পাস সঙ্গে রাখতে হবে। যাতে লেখা থাকবে নির্দিষ্ট ব্যক্তির দুইটি ভ্যাকসিন হয়েছে কি না। ভ্যাকসিন না নিলে প্রতি ৭২ ঘণ্টায় করোনার পরীক্ষা করতে হবে। সেই রিপোর্ট থাকলে তবেই বিভিন্ন জায়গায় ঢোকা যাবে। স্কুল-কলেজ থেকে শুরু করে কর্মক্ষেত্র এমনকী, রেস্তোরাঁতে ঢুকতে গেলেও এই পাস দেখাতে হবে। ফ্রান্সে পঞ্চাশ শতাংশ মানুষের ভ্যাকসিনের সম্পূর্ণ ডোজ হয়ে গেছে। কিন্তু বাকি পঞ্চাশ শতাংশ মানুষই মূলত বিক্ষোভে অংশ নিয়েছেন। তারা এই পাসের বিরোধী কারণ, তাদের ভ্যাকসিন নেওয়া হয়নি। পাস না থাকলে কার্যত বাড়িতে বসে থাকতে হবে।

এর মধ্যেই ফ্রান্সে করোনার চতুর্থ ঢেউ শুরু হয়েছে। হাজার হাজার মানুষ প্রতিদিন আক্রান্ত হচ্ছেন। এই পরিস্থিতিতে সরকার চাইছে দ্রুত সকলে ভ্যাকসিন নিয়ে নিন। জুলাই থেকে নতুন ভ্যাকসিন ড্রাইভও চালু হয়েছে।

ইটালির পরিস্থিতি

ইটালিতেও নতুন করে করোনার সংক্রমণ বাড়ছে। ইটালির সরকার গ্রিন পাস চালু করার কথা বলেছে। এই পাসটিও অনেকটা ফ্রান্সের হেলথ কার্ডের মতোই। গত প্রায় এক মাস ধরে সেখানেও ওই কার্ডের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ চলছে।

মিলানে হাজার হাজার বিক্ষোভকারী সোনালি ব্যাজ পরে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন। রোমে প্রায় দেড় হাজার মানুষ জড়ো হয়ে বিক্ষোভ দেখিয়েছেন। তবে ইটালিতে ১২ বছরের কম বয়সের শিশুদের টিকা দেওয়ার জন্যও বিক্ষোভ দেখাচ্ছেন কেউ কেউ। তাদের আন্দোলন পাস-বিরোধী আন্দোলনের চেয়ে আলাদা।

এসজি/জিএইচ (রয়টার্স, এএনএসএ, এএফপি)

সংশ্লিষ্ট বিষয়