প্রবল বৃষ্টিতে জলমগ্ন কলকাতা | বিশ্ব | DW | 06.12.2021
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

প্রবল বৃষ্টিতে জলমগ্ন কলকাতা

ঘূর্ণিঝড় জওয়াদ আছড়ে পড়েনি, কিন্তু তার প্রকোপে প্রবল বৃষ্টি হচ্ছে কলকাতায়। অনেক রাস্তায় জল জমেছে।

বৃষ্টির পর জল জমেছে কলকাতার অনেক রাস্তায়। সোমবার সকালে ঠনঠনিয়ার ছবি।

বৃষ্টির পর জল জমেছে কলকাতার অনেক রাস্তায়। সোমবার সকালে ঠনঠনিয়ার ছবি।

আশঙ্কা ছিল জওয়াদ আছড়ে পড়বে কলকাতা বা তার আশপাশে। কিন্তু জওয়াদ ক্রমশ শক্তিক্ষয় করেছে। ফলে ঘূর্ণিঝড়ের হাত থেকে বেঁচেছে কলকাতা ও পশ্চিমবঙ্গ। কিন্তু জওয়াদের প্রভাবে গভীর নিম্নচাপ তৈরি হয়েছে। রাত থেকেই বৃষ্টি শুরু হয়েছে। পশ্চিমবঙ্গের উপকূলে ঝোড়ো হাওয়া বইছে।

সোমবার সকালেও কলকাতায় প্রবল বৃষ্টি হয়েছে। ফলে অনেক রাস্তাই জলের তলায় চলে গেছে। ঠনঠনিয়া কালীবাড়ি, আমহার্স্ট স্ট্রিট. মানিকতলায় জল জমেছে। সকাল পর্যন্ত কলকাতায় কিছু এলাকায় ৬৭ মিলিমিটার পর্যন্ত বৃষ্টি হয়েছে। বেশ কিছু রাস্তায় গাছ পড়েছে। জওয়াদ আছড়ে পড়তে পারে বলে পুরসভা সতর্ক ছিল। তারা পাম্প চালিয়ে দ্রুত জল বের করছে।

Kolkata Sturzflut Überschwemmung Unwetter Katastrophe

পুরসভার কর্মীরা রাস্তার জমা জল বের করতে ব্যস্ত।

তবে চিন্তার কথা শুনিয়েছে আবহাওয়া অফিস। সোমবার বিকেলে মাঝারি থেকে ভারি বৃষ্টি হতে পারে। বৃষ্টি পড়বে মঙ্গলবারও। পশ্চিমবঙ্গের উপকূলে পঞ্চাশ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইবে। মৎসজীবীদের সমুদ্রে মাছ ধরতে নিষেধ করা হয়েছে। 

নিম্নচাপের প্রভাবে কলকাতা ছাড়া হাওড়া, হুগলি, বীরভূম, বাঁকুড়া, নদিয়া, মুর্শিদাবাদ, পূর্ব বর্ধমান, পশ্চিম বর্ধমানে ভারি বৃষ্টি হতে পারে। দুই ২৪ পরগনা, দুই মেদিনীপুর ও ঝাড়গ্রামে প্রবল বৃষ্টি হতে পারে।

Kolkata Sturzflut Überschwemmung Unwetter Katastrophe

জল ঢুকে গেছে মন্দিরের ভিতরেও।

আগাম সতর্কতা হিসাবে মঙ্গলবার পর্যন্ত সেচ, বিদ্যুৎ ও বিপর্যয় মোকাবিলা দফরের কর্মীদের ছুটি বাতিল করেছে প্রশাসন। পূর্ব মেদিনীপুর এবং দক্ষিণ ২৪ পরগনা জেলার পরিস্থিতির উপর বিশেষ নজর রাখছে নবান্ন। এই দুই জেলায় প্রবল বৃষ্টির আশঙ্কা আছে।

Kolkata Sturzflut Überschwemmung Unwetter Katastrophe

বিবেকানন্দ রোডে গাছ পড়েছে।

উত্তরবঙ্গের জেলাগুলিতে হালকা বৃষ্টি হতে পারে। মেঘ কাটলে ফিরতে পারে ঠান্ডা।

জিএইচ/এসজি (পিটিআই)