দিল্লিতে কারখানায় ভায়াবহ আগুন, ৪৩ শ্রমিকের মৃত্যু | বিশ্ব | DW | 08.12.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

দিল্লিতে কারখানায় ভায়াবহ আগুন, ৪৩ শ্রমিকের মৃত্যু

ভারতের রাজধানী দিল্লিতে ছয় তলা একটি কারখানায় আগুন লেগে অন্তত ৪৩ শ্রমিকের মৃত্যু হয়েছে৷ আগুন লাগার সময় ভবনের বিভিন্ন তলায় শতাধিক শ্রমিক ঘুমিয়ে ছিলেন৷ এ ঘটনায় মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে জানান উদ্ধারকর্মীরা৷

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী একে ‘অত্যন্ত ভয়াবহ' ঘটনাকে বলে বর্ণনা করেছেন৷ দিল্লি ফায়ারফাইটার কর্তৃপক্ষ জানান, স্থানীয় সময় রোববার ভোর ৫টা ২২ মিনিটে ফোনে প্রথম কারখানায় আগুন লাগার খবর পান৷ ছয়তলা কারখানা ভবনটির নীচের দিকের কোন তলায় প্রথমে আগুন লাগে এবং তা দ্রুত উপরের তলাগুলোতে ছড়িয়ে পড়ে৷ ভবনের বিভিন্ন তলায় তখন অনেক শ্রমিক ঘুমিয়ে ছিলেন৷

কারখানাটি পুরান দিল্লির সদর বাজারের আজাদ মার্কেট এলাকার সরু গলিতে হওয়ায় অন্ধকারে আগুন নেভাতে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে বেগ পেতে হয়েছে৷ উদ্ধারকর্মীরা হতাহতদের কাঁধে করে বয়ে নিয়ে যান৷ পরে দেয়াল ভেঙ্গে ও জানালার গ্রিল কেটে ফায়ারইঞ্জিনগুলোকে ঘটনাস্থলে যেতে হয়েছে৷ সেখানে এখন প্রায় ৩০টি ফায়ার ইঞ্জিন আগুন নেভানোর কাজ করছে৷

দিল্লির চিফ ফায়ার অফিসার সুনীল চৌধুরি বলেন, আগুনে অন্তত ৪৩ জনের মৃত্যু হয়েছে৷ নিহতদের বেশিরভাগই কারখানার শ্রমিক, যারা ভবনের বিভিন্ন তলায় ঘুমিয়ে ছিলেন৷ ঘটনাস্থলে থাকা আরেক কর্মকর্তা অতুল গার্গ বলেন, ‘‘আমরা ৫০ জনের বেশি মানুষকে উদ্ধার করেছি৷ তাদের অধিকাংশই ধোঁয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন৷''

আহতদের কাছের হাসপাতালগুলোতে ভর্তি করা হয়েছে৷ তাদের কয়েকজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় মৃতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে শঙ্কা কর্তৃপক্ষের৷ আগুনের সূত্রপাতে কারণ খুঁজে বের করতে তদন্ত শুরু হয়েছে৷ দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল এ ঘটনাকে ‘অত্যন্ত করুণ সংবাদ' বলেছেন৷ গত ফেব্রুয়ারিতে দিল্লিতেই একটি ছয়তলা হোটেলে আগুন লেগে ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছিল৷

এসএনএল/এআই (এপি, এএফপি, রয়টার্স, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

বিজ্ঞাপন