টুইটার হাসছে যে মেয়ের কারণে | বিশ্ব | DW | 20.03.2018
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

ভাইরাল ভিডিও

টুইটার হাসছে যে মেয়ের কারণে

থিম পার্কে রাইড চড়ার সময় মেয়েটি এমন ভয় পেয়েছিল যে, তা দেখে হাসতে হাসতে অজ্ঞান নেটিজেনরা৷ টুইটারে ছড়ানো ভিডিওটি এখন ভাইরাল৷

থিম পার্কে রাইড চড়তে ভয় পান না এমন মানুষ কমই আছে৷ কোনো না কোনো রাইডে একটু না একটু ভয় তো সবারই লাগে৷ আর সেটাই তো অ্যাডভেঞ্চার৷

সেই অ্যাডভেঞ্চার করতেই তো লোকে পয়সা খরচ করে রাইড চড়েন৷

কিন্তু সেই ভয় যদি মাত্রাতিরিক্ত হয়ে যায়, তা হলে সেটা ‘মিসফায়ার' হতে পারে৷ তেমনটিই ঘটেছে একটি মেয়ের ক্ষেত্রে৷ তাও তিনি কিনা একজন অ্যাথলেট!

মেগান কনোলি নামের এই অ্যাথলেটের বাড়ি আয়ারল্যান্ডে হলেও এখন যুক্তরাষ্ট্রে পড়াশোনা করছেন৷ সেখানেই বান্ধবীর সঙ্গে গিয়েছিলেন রাইড চড়তে৷

ঘটনাটি হলো, মেগান বসে আছেন৷ সঙ্গে তাঁর বান্ধবী, যাকে বেশ স্বাভাবিক মনে হচ্ছিল৷ কিন্তু মেগান রাইড শুরু হবার আগ থেকেই ভয় পাচ্ছিলেন৷

‘‘আমার পাগল পাগল লাগছে৷'' বলছিলেন তিনি৷

কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই রাইড শুরু হলো৷ আর মেগানরা উড়ে গেলেন একেবারে ৩০০ ফিট ওপরে৷ আর তখনই ঘটা শুরু হলো আসল ঘটনা৷ মেগান শুরু করলেন চিৎকার৷ যে সে চিৎকার নয়, যাকে বলে আর্তচিৎকার৷ বিশ সেকেন্ড টানা চিৎকার করলেন৷ এমনকি রাইড বন্ধ করার মিনতিও জানালেন৷ তাঁর এমন প্রতিক্রিয়ায় বন্ধুরা তো মজা পেলেনই, সঙ্গে টুইটারেও এটি ব্যাপক জনপ্রিয় হয়ে গেল৷ শনিবার মেগানের প্রোফাইলে আপলোড করা ভিডিওটি দু'দিনেই দেখা হয়েছে সাড়ে নয় লাখ বার৷ শুধু তাই নয়, মজার মজার হাজারো কমেন্ট পড়ছে৷

এমনকি এটি নিয়ে মজার জিফ ইমেজও তৈরি করা হয়েছে৷

জেডএ/এসিবি

 

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন