জার্মান সামরিক বাহিনীতে হ্যাকিং প্রতিরোধে প্রশিক্ষণ | বিশ্ব | DW | 03.04.2018
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি

জার্মান সামরিক বাহিনীতে হ্যাকিং প্রতিরোধে প্রশিক্ষণ

এক বছর আগে জার্মান সামরিক বাহিনী ইন্টারনেটের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে একটি কমান্ড সেন্টার প্রতিষ্ঠা করে৷ মিউনিখের এই প্রতিষ্ঠানে এখন চলছে হ্যাকিং প্রতিরোধের প্রশিক্ষণ৷

জার্মান সামরিক বাহিনী বা বুন্দেসভের তাদের সাইবার নিরাপত্তা আরো জোরদার করার প্রক্রিয়া চালাচ্ছে৷ এই কাজটি করতে তাদের আরো দক্ষ জনশক্তি দরকার৷ সেই প্রয়োজন মেটাতে এ বছরের শুরু থেকে মিউনিখে জার্মান সামরিক প্রশিক্ষণ বিশ্ববিদ্যালয়ে সাইবার নিরাপত্তার ওপর একটি মাস্টার্স কোর্স চালু করেছে তারা৷ ‘‘আমরা এই কোর্সে ১২০ জন শিক্ষার্থীকে প্রশিক্ষণ দিতে চাচ্ছি,'' বলছিলেন জার্মানির কোড অফ রিসার্চ ইন্সটিটিউটের প্রধান নির্বাহী, আইটি বিশেষজ্ঞ গাবি ড্রেও৷

ক্যাম্পাস এলাকায় শিক্ষার্থীদের জন্য আবাসন তৈরির কাজ চলছে এখন৷ গাবি বলেন, ‘‘শিক্ষার্থীরা অন্তত ১২ বছর সামরিক বাহিনীর হয়ে দায়িত্ব পালন করবেন, এই চুক্তিতেই তাদের প্রশিক্ষণ দেয়া হবে৷'' এই এক বছরে বুন্দেসভেরের আইটি বিষয়ক সমস্ত কাজ সাইবার ও ইনফরমেশন স্পেস নামের নতুন এক হেডকোয়ার্টারকেন্দ্রিক করা হয়েছে৷ কয়েক বছরের মধ্যে ১৩ হাজর ৫শ' সেনাসদস্য ও দেড় হাজার অসামরিক ব্যক্তিকে নিয়োগ দেয়ার পরিকল্পনা আছে এই এজেন্সির৷ 

ভিডিও দেখুন 42:38
এখন লাইভ
42:38 মিনিট

New challenges for the German army

এতটা গুরুত্ব দেয়ার কারণ হিসেবে জার্মানির প্রতিরক্ষা মন্ত্রীউরসুলা ফন ডেয়ার লাইয়েন বলেন, এটি একটি গ্লোবাল যুদ্ধ৷ হেডকোয়ার্টারের উদ্বোধন করে তিনি বলেছিলেন, ‘‘সাইবার জগতের কোনো সীমানা নেই৷''

নতুন এই উদ্যোগে গাবি ড্রেও তরুণ প্রজন্মকে আকৃষ্ট করা সম্ভব বলে মনে করেন৷ ‘‘নতুন প্রজন্ম শুধু টাকার পেছনে ছোটে না৷ তাঁরা কাজ ও জীবনের মধ্যে একটি সুন্দর ভারসাম্য চায়৷''

সাইবার অস্ত্র কতটা ইতিবাচক কাজে লাগানো হবে, তা নিয়ে সন্দিহান অনেকেই৷ কিন্তু প্রফেসর গাবি জানিয়েছেন, এটি মূলত প্রতিরক্ষমূলক ব্যবস্থা তৈরিতেই লাগানো হবে৷

‘‘সাইবার হামলা আমাদের লক্ষ্য নয়৷ কিন্তু একজন সাইবার হামলাকারী কিভাবে চিন্তা করে, সেটিও আমাদের জানা দরকার,'' বলেন তিনি৷ 

বুন্দেসভেরের সাইবার সক্ষমতা কতটা, তা এখনো পরিস্কার নয়৷ সামরিক বাহিনীর কম্পিউটার নেটওয়ার্ক অপারেশন বা সিএনও ইউনিট এর আগে তালেবানের ওপর নজর রাখার জন্য আফগানিস্তানের একটি টেলিফোন কোম্পানি হ্যাক করেছে৷

হাইনার কিজেল/জেডএ

নির্বাচিত প্রতিবেদন

এই বিষয়ে অডিও এবং ভিডিও

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন