জাকার্তায় ভয়াবহ বন্যা | বিশ্ব | DW | 02.01.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ইন্দোনেশিয়া

জাকার্তায় ভয়াবহ বন্যা

টানা ১৮ ঘণ্টা বৃষ্টি৷ তার জেরে ভয়াবহ বন্যা পরিস্থিতি ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায়৷ এখনও পর্যন্ত মৃতের সংখ্যা ২১৷ গৃহহীন বহু মানুষ৷

গত ২৪ বছরে এমন বৃষ্টি দেখেনি ইন্দোনেশিয়া৷ টানা ১৮ ঘণ্টা ধরে ভারী বৃষ্টিপাতের পর বন্যায় ভাসছে রাজধানী জাকার্তা৷ ১২ হাজার মানুষ গৃহহীন৷ এখন পর্যন্ত মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের৷ বহু মানুষ নিখোঁজ৷

প্রত্যক্ষদর্শীদের বক্তব্য, বুধবার বৃষ্টি শুরুর পর ১৮ ঘণ্টা ধরে এমন ভারী বৃষ্টিপাত বহুদিন হয়নি৷ কিছুক্ষণ বৃষ্টির পর থেকেই জল জমতে শুরু করে৷ ভেঙে পড়তে শুরু করে ঘর বাড়ি৷ বেগতিক দেখে বৃষ্টির মধ্যেই রাস্তায় নেমে পড়ে ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট টিম৷ তাদের সাহায্যেই গৃহহীন মানুষদের নিয়ে যাওয়া হচ্ছে বিভিন্ন আশ্রয়ে৷ ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট টিমের তরফ থেকে জানানো হয়েছে, এখনও পর্যন্ত ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে৷ যার মধ্যে বেশ কয়েকজন বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়েছেন৷ তবে সংবাদ সংস্থা রয়টার্সের খবর, মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের৷

বন্যা পরিস্থিতি পর্যালোচনা করে দেশবাসীর উদ্দেশে টুইট করেছেন প্রেসিডেন্ট জোকো উইডোডো৷ জানিয়েছেন, পরিস্থিতির মোকাবিলায় সব রকম ব্যবস্থা নিচ্ছে সরকার৷

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানাচ্ছেন, জাকার্তার কোনও কোনও এলাকায় পানি উঠে গিয়েছে প্রায় আট ফুট৷ বহু বাড়ি তলিয়ে গিয়েছে৷ জলের তোড়ে ভেসে গিয়েছে রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকা গাড়ি৷ বন্ধ হয়ে গিয়েছে বিমানবন্দর৷

ইন্দোনেশিয়ায় বন্যা নতুন কিছু নয়৷ প্রতি বছরই বন্যার কবলে পড়েন স্থানীয় মানুষ৷ তবে এ বারের বন্যার ভয়াবহতা সব কিছু ছাড়িয়ে গিয়েছে৷ সরকার জানিয়েছে, প্রাথমিক ভাবে প্লাবন নিয়ন্ত্রণে এলে বন্যা বন্ধের বেশ কিছু ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে৷ গুরুত্বপূর্ণ নদীগুলিতে বাঁধের ব্যবস্থাও করা হবে৷

এসজি/কেএম (এপি, ডিপিএ, রয়টার্স)