‘খেলা বন্ধ করে দেশের স্বার্থে সিদ্ধান্ত নিন′ | বিশ্ব | DW | 14.01.2019
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

ব্রিটেন

‘খেলা বন্ধ করে দেশের স্বার্থে সিদ্ধান্ত নিন'

ব্রিটেনের সংসদে ব্রেক্সিট সংক্রান্ত গণভোটের এক দিন আগে প্রধানমন্ত্রী মে শেষ পর্যন্ত ইইউ-তে থেকে যাবার সম্ভাবনা সম্পর্কে সাবধান করে দিয়েছেন৷ মঙ্গলবারের ভোট ও তার পরিণতি সম্পর্কে অনিশ্চয়তা এখনো কাটছে না৷

আর মাত্র এক দিন বাকি৷ মঙ্গলবার ব্রিটেনের সংসদ সদস্যদের দেশের ভবিষ্যৎ নিয়ে সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে হবে৷ ব্রেক্সিট নিয়ে বিভক্ত জনপ্রতিনিধিরা ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গে ব্রিটেনের চুক্তি অনুমোদন না করলে চরম অনিশ্চয়তা সম্পর্কে সতর্ক করে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী টেরেসা মে৷ সপ্তাহান্তে তিনি এমন সিদ্ধান্তের পরিণতি সম্পর্কে আবার সাবধান করে দিয়েছেন৷ চুক্তি ছাড়াই ইইউ ত্যাগ করার বদলে ব্রিটেন শেষ পর্যন্ত এই রাষ্ট্রজোটে থেকে যেতে পারে বলে ব্রেক্সিটপন্থিদের মনে করিয়ে দিচ্ছেন তিনি৷ সোমবার তিনি এই বার্তা তুলে ধরতে চান৷ সে-ক্ষেত্রে গণভোটের রায় অমান্য করতে হবে৷ গণতন্ত্রের প্রতি মানুষের আস্থা কমে যাবে৷ এমন প্রেক্ষাপটে প্রধানমন্ত্রী সংসদ সদস্যদের উদ্দেশ্যে গণভোটের রায় কার্যকর করার দায়িত্ব সম্পর্কে সচে6তন করে দিয়েছেন৷ জনপ্রতিনিধিদের প্রতি তাঁর স্পষ্ট বার্তা হলো, ‘খেলা' ভুলে দেশের স্বার্থে সঠিক সিদ্ধান্ত নিন৷

 ইইউ-র সঙ্গে ব্রেক্সিট চুক্তি নিয়ে ব্রিটেনের দুই প্রধান দলই বিভক্ত৷ এখনো পর্যন্ত সংখ্যাগরিষ্ঠ অংশ এই চুক্তির বিরোধিতা করে চলেছে৷ তবে এর বিকল্প সম্পর্কেও কোনো ঐকমত্য বিরাজ করছে না৷ চুক্তি ছাড়াই ইইউ ত্যাগ, দ্বিতীয় গণভোট ইত্যাদি কোনো বিকল্পের পক্ষেই যথেষ্ট সমর্থন নেই৷ ফলে প্রথম অথবা দ্বিতীয় প্রচেষ্টা চুক্তি অনুমোদন না হলে কী হবে, তা সম্পূর্ণ অনিশ্চিত৷ গত সপ্তাহে সংসদে এক প্রস্তাব অনুমোদন করা হয়েছে৷ তার আওতায় চুক্তি নিয়ে ভোটাভুটিতে পরাজয় হলে প্রধানমন্ত্রীকে ৩ দিনের মধ্যে বিকল্প পথ বাতলে দিতে হবে৷

বিরোধী লেবার দলের নেতা জেরেমি কর্বিন বলেছেন, চুক্তি ছাড়া ইইউ ত্যাগ করলে ব্রিটেনের জন্য তা বিপর্যয় বয়ে আনবে৷ তাঁর দল সর্বশক্তি প্রয়োগ করে এমন সম্ভাবনা প্রতিরোধ করার চেষ্টা করবে৷ তিনি অবশ্য অনাস্থা ভোটের মাধ্যমে সরকারের পতন ঘটিয়ে আগাম নির্বাচনে বেশি আগ্রহ দেখাচ্ছন৷ শনিবার লন্ডনে একদল বিক্ষোভকারী আগাম নির্বাচনের দাবি জানিয়েছেন৷

সংসদ যেভাবে ধীরে ধীরে  ব্রেক্সিট সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত সরকার হাত থেকে কেড়ে নিচ্ছে, তার জের ধরে ব্রেক্সিট পুরোপুরি বানচাল করার সম্ভাবনা বেড়ে চলেছে৷ কারণ, চুক্তি ছাড়াই ইইউ থেকে বিদায় নেবার ভয়াবহ বিকল্প বেছে নিতে চাইছেন না সংসদ সদস্যরা৷ সে ক্ষেত্রে অনির্দিষ্টকালের জন্য ব্রিটেন ইইউ-তে থেকে যেতে পারে৷ কারণ, ইউরোপীয় আদালতের রায় অনুযায়ী, ব্রিটেন ইইউ ত্যাগ করার সিদ্ধান্ত একতরফাভাবে প্রত্যাহার করতে পারে বটে, কিন্তু এমনটা করলে সে দেশকে ইইউ-তে থেকে যাবার অঙ্গীকার করতে হবে৷

ব্রিটেনের উদ্দশ্যে ইউরোপীয় ইউনিয়নে থেকে যাবার ডাক দিয়েছেন ইইউ পার্লামেন্টের প্রায় ১০০ জন সদস্য৷ এক আবেগভরা চিঠিতে তাঁরা ভবিষ্যৎ প্রজন্মের স্বার্থে এই সিদ্ধান্ত পুনর্বিবেচনা করার ডাক দিয়েছেন৷ তাঁরা এমন পদক্ষেপকে আন্তরিকভাবে স্বাগত জানাবেন বলে আশ্বাস দিয়েছেন৷

এসবি/এসিবি (রয়াট্রস, ডিপিএ)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন