কাটালুনিয়ার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে স্পেন | বিশ্ব | DW | 28.10.2017
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

স্পেন

কাটালুনিয়ার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে স্পেন

কাটালুনিয়ার বাসিন্দাদের শনিবার দিন শুরু হয়েছে এক নতুন প্রেসিডেন্টের অধীনে৷ স্পেনের প্রধানমন্ত্রী মারিয়ানো রাখোই কাটালুনিয়ার সংসদ ভেঙে দিয়ে স্বায়িত্তশাসিত অঞ্চলটির প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব নিয়ে নিয়েছেন৷

কাটালুনিয়ার দায়িত্ব নিয়ে নেয়ার পাশাপাশি সেখানে আগামী ২১ ডিসেম্বর সাধারণ নির্বাচন আয়োজন করা হবে বলে জানিয়েছেন রাখোই৷ কাটালুনিয়ার সংসদ শুক্রবার স্বাধীনতা ঘোষণা করলে স্পেন তা বাতিল করতে হস্তক্ষেপের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে৷ সংশ্লিষ্টি অঞ্চলে আর্টিকেল ১৫৫ প্রয়োগের ব্যাপারে স্পেনের সিনেটে ভোটাভুটি হয়৷ সেখানে ২১৪ জন সদস্য কাটালুনিয়ার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নেয়ার পক্ষে ভোট দেন, বিপক্ষে ছিলেন মাত্র ৪৭ জন৷ আর ভোট দেয়া থেকে বিরত থাকেন দু'জন৷ 

রাখোই অবশ্য বারংবারই বলেছেন যে, কাটালুনিয়ার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নেয়ার কোনো ইচ্ছার তাঁর ছিল না৷ বরং তিনি চেয়েছিলেন সংশ্লিষ্ট অঞ্চল স্বাধীনতা ঘোষণা করা থেকে বিরত থেকে অন্যান্য দাবি দাওয়া নিয়ে আলোচনার টেবিলে আসুক৷ কিন্তু গত পহেলা অক্টোবর স্পেনের কেন্দ্রীয় সরকারের নিষেধাজ্ঞা সত্ত্বেও স্বায়ত্তশাসিত অঞ্চলটিতে স্বাধীনতার বিষয়ে গণভোটের আয়োজন করে আঞ্চলিক সরকার৷ আর শুক্রবার সেখানকার প্রেসিডেন্ট কার্লেস পুজদেমনের নেতৃত্বে আঞ্চলিক সংসদ স্পেন থেকে আলাদা হয়ে যেতে স্বাধীনতা ঘোষণা করে৷ এই ঘোষণার পরপরই স্পেন সরকার সংশ্লিষ্ট অঞ্চলের উপর সরাসরি নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠার ঘোষণা দেয়৷ কাটালুনিয়ার নিয়ন্ত্রণ গ্রহণের পর রাখোই জানিয়েছেন, সেখানে স্বাভাবিক অবস্থা এবং বৈধ কর্মকাণ্ডের পরিবেশ নিশ্চিত করাই হচ্ছে তাঁর লক্ষ্য৷

এদিকে, স্পেন সরকার নিয়ন্ত্রণ নেয়ার পর পুজদেমন এবং তাঁর মন্ত্রিসভার ১২ জন সদস্যদকে তাঁদের দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে৷ পাশপাশি তাঁদের বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় সরকারের নির্দেশনা অমাণ্য করার অভিযোগ আনার উদ্যোগও নেয়া হচ্ছে৷ সেখানকার পুলিশ প্রধানকেও অব্যাহিত দেয়া হয়েছে৷ এছাড়া, আগামী সপ্তাহে পুজদেমনের বিরুদ্ধে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে বিদ্রোহের অভিযোগ আনা হতে পারে৷ স্পেনের আইন অনুযায়ী, এই অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাঁর সর্বোচ্চ ৩০ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ড হতে পারে৷

উল্লেখ্য, কাটালুনিয়া ইস্যুতে স্পেন সরকারের প্রতি সমর্থন জানিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)৷ কাটালুনিয়ার স্বাধীনতা ঘোষণাকে ইইউভুক্ত কোনো রাষ্ট্র স্বীকৃতি দেবে না বলেও জানা গেছে৷

এআই/ডিজি (এপি, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন