উইম্বলডনে উইলিয়ামস পরিবারের দাপট চলছেই | খেলাধুলা | DW | 04.07.2010
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

উইম্বলডনে উইলিয়ামস পরিবারের দাপট চলছেই

উইম্বলডনের ইতিহাসে উইলিয়াম পরিবারের দাপট এখনও বজায় রয়েছে৷ শনিবার চতুর্থবারের মত অল ইংল্যান্ড ক্লাবের এই শিরোপা জিতে নিলেন সেরেনা উইলিয়ামস৷ এই নিয়ে গত ১১ বছরে নয়বারই শিরোপা গেল উইলিয়ামস পরিবারের ঘরে৷

default

চতুর্থবারের মত উইম্বলডন জিতলেন সেরেনা উইলিয়ামস

তবে উইম্বলডন জেতার বেলায় বড় বোন ভেনাসের চেয়ে একটু পিছিয়ে রয়েছেন সেরেনা৷ ভেনাস উইলিয়ামস উইম্বলডন জিতেছেন পাঁচবার৷ শনিবার রাশিয়ার ভেরা জাভোনারেভাকে সহজেই হারাতে সেরেনার সময় লাগে মাত্র এক ঘন্টার কিছু বেশি৷ ম্যাচের ফলাফল ৬-৩, ৬-২৷ উল্লেখ্য, গত ১১০ সপ্তাহ ধরে প্রমিলা টেনিসের শীর্ষস্থানটি দখল করে রেখেছেন উইলিয়ামস পরিবারের ছোট মেয়ে সেরেনা৷ এই নিয়ে ১৩ বার গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা ঘরে তুললেন তিনি৷ টেনিস জগত দীর্ঘদিন ধরে তাঁদের দুই বোনের আধিপত্য দেখে আসছে৷ বিশেষ করে উইম্বলডনের ঘাসের কোর্টে তাঁরা প্রায় অপ্রতিদ্বন্দ্বী৷ ইচ্ছে ছিল দুই বোন একসঙ্গে ফাইনাল খেলবেন৷ কিন্তু ভেনাস উইলিয়ামস কোয়ার্টার ফাইনাল থেকেই বিদায় নেন৷ শিরোপা জয়ের পর সেরেনা বলেন, আমি শিরোপা ধরে রাখতে পেরে খুশী, বিশেষ করে ভেনাস হেরে যাওয়ার পর৷ আমি চাচ্ছিলাম আমাদের দুজনের একজন চ্যাম্পিয়ন হোক৷ টানা ১১ বছর ধরে প্রাধান্য বজায় রাখাটা সত্যিই দারুণ ব্যাপার৷

এদিকে ছেলেদের খেলায় আজ ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছেন শীষ বাছাই রাফায়েল নাদাল এবং চেক প্রজাতন্ত্রের টমাস বার্ডিখ৷ ২৪ বছর বয়স্ক এই বার্ডিখের কাছে হেরেই কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায় নিয়েছেন ঘাসের কোর্টের চ্যাম্পিয়ন রজার ফেডেরার৷ ২০০৪ সালে এই বার্ডিখের কাছেই হেরেছিলেন ফেডেরার৷ তখন বার্ডিখ ছিলেন মাত্র ১৮ বছরের তরুণ৷ যাই হোক এবারের টুর্নামেন্টে ফেডেরারকে হারানোর পরও বার্ডিখকে তেমন গুরুত্ব দেওয়া হয়নি৷ কিন্তু সেমিফাইনালে যখন তার কাছেই বিদায় নিলেন নোভাক ইয়কোভিচ তখন অনেকেই নড়ে চড়ে বসলেন৷ কারণ অত্যন্ত আগ্রাসী ভঙ্গিতে খেলে থাকেন বার্ডিখ৷ পাশাপাশি তাঁর শক্তিশালী ফোরহ্যান্ড এবং বেস লাইন থেকে বল ফেরানোর ক্ষমতাও অনেক কিছু মনে করিয়ে দিচ্ছে৷ নাদালের কাছ থেকেও বেশ সমীহ আদায় করে নিয়েছেন তিনি৷ নাদাল বলেন, সে যখন ভালো খেলে তখন তাঁকে থামানো সত্যিই কঠিন এবং সে এবার ভালো খেলছে৷ উল্লেখ্য, এই প্রথমবারের মত কোন গ্র্যান্ডস্লামের ফাইনালে উঠলেন চেক প্রজাতন্ত্রের খেলোয়াড় টমাস বার্ডিখ৷

প্রতিবেদন: রিয়াজুল ইসলাম, সম্পাদনা: জাহিদুল হক

সংশ্লিষ্ট বিষয়