‘ইউরোপের উন্নতির সঙ্গে জার্মানির উন্নতি জড়িত’ | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 01.01.2014
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

‘ইউরোপের উন্নতির সঙ্গে জার্মানির উন্নতি জড়িত’

চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল তাঁর নববর্ষের বার্তায় বলেছেন, জার্মানির উন্নয়নে ইউরোপের গুরুত্ব রয়েছে৷ সামগ্রিকভাবে ইউরোপের উন্নতি হলেই জার্মানিরও উন্নতি হবে বলে মনে করেন তিনি৷

ভিডিও দেখুন 06:10
এখন লাইভ
06:10 মিনিট

জার্মান চ্যান্সেলরের নববর্ষের বার্তা

২০১৪ সালকে স্বাগত জানিয়ে জার্মান নাগরিকদের উদ্দেশ্যে একটি ভিডিও বার্তা দিয়েছেন চ্যান্সেলর ম্যার্কেল৷ সেখানে তিনি প্রতিটি নাগরিককে চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করার মানসিকতা অর্জনের আহ্বান জানিয়েছেন৷ ম্যার্কেল বলেন, ‘‘আমরা নাগরিক হিসেবে প্রত্যেকে নিজেদের জীবনে যা অর্জন করি, সেটা যত ছোটই হোক, বৃহত্তর পরিসরে তা আমাদের দেশকে প্রভাবিত করে৷'' তিনি বলেন, জার্মানি তথা ইউরোপকে এগিয়ে নিতে প্রতিটি জার্মানের ব্যক্তিগত দায়িত্ববোধ ও উদ্যোগ – এই দুটো গুণ থাকা প্রয়োজন৷

নাগরিকদের উদ্দেশে জার্মান চ্যান্সেলর বলেন, ‘‘আপনাদের ছাড়া রাজনীতি খুব অল্পই সফল হতে পারে৷''

তিনি তাঁর বার্তায় পরিবার প্রথাকে ‘সমাজের মধ্যমণি' হিসেবে আখ্যায়িত করে শিশু ও তরুণদের জন্য সবচেয়ে ভালো শিক্ষার ব্যবস্থা করার অঙ্গীকার করেন৷ এছাড়া জার্মানি যে ধীরে ধীরে আণবিক শক্তির উপর নির্ভরশীলতা কমিয়ে বিকল্প জ্বালানির দিকে ঝুঁকছে, সেই কথাও উল্লেখ করেন ম্যার্কেল৷ উল্লেখ্য, ২০২২ সালের মধ্যে দেশের সব পরমাণু বিদ্যুৎ কেন্দ্র বন্ধ করে দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে ম্যার্কেল সরকার৷

চ্যান্সেলর তাঁর বক্তৃতায় অতীতের কথাও উল্লেখ করেছেন৷ মনে করিয়ে দিয়েছেন যে, ২০১৪ সাল হতে যাচ্ছে প্রথম বিশ্বযুদ্ধ শুরুর শততম বার্ষিকী, দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ শুরুর ৭৫তম আর বার্লিন প্রাচীর পতনের ২৫তম বার্ষিকীর বছর৷

ম্যার্কেল বলেন, ‘‘কয়েকজনের স্বপ্ন আর অনেকের প্রচেষ্টার ফলে ইউরোপ এখন মিলিয়ন মিলিয়ন নাগরিকের জন্য একটি শান্তিপূর্ণ আবাসে পরিণত হয়েছে৷''

জেডএইচ/ডিজি (ডিপিএ, এপি, এএফপি, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

এই বিষয়ে অডিও এবং ভিডিও

বিজ্ঞাপন