1. কন্টেন্টে যান
  2. মূল মেন্যুতে যান
  3. আরো ডয়চে ভেলে সাইটে যান
Leopard 2A7V MBT
ছবি: picture-alliance/Ralph Zwilling - Tank-Masters.de

ইউক্রেনকে চিতা ট্যাংক সরবরাহ করবে জার্মানি

২৭ এপ্রিল ২০২২

প্রবল চাপের মুখে জার্মানি অবশেষে ইউক্রেনকে এই প্রথম ভারি অস্ত্র সরবরাহের সিদ্ধান্ত নিয়েছে৷ তবে গেপার্ড ছাড়াও অন্যান্য অস্ত্র ও সরঞ্জাম সরবরাহ হবে কিনা, তা এখনো স্পষ্ট নয়৷

https://www.dw.com/bn/%E0%A6%87%E0%A6%89%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B0%E0%A7%87%E0%A6%A8%E0%A6%95%E0%A7%87-%E0%A6%9A%E0%A6%BF%E0%A6%A4%E0%A6%BE-%E0%A6%9F%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%BE%E0%A6%82%E0%A6%95-%E0%A6%B8%E0%A6%B0%E0%A6%AC%E0%A6%B0%E0%A6%BE%E0%A6%B9-%E0%A6%95%E0%A6%B0%E0%A6%AC%E0%A7%87-%E0%A6%9C%E0%A6%BE%E0%A6%B0%E0%A7%8D%E0%A6%AE%E0%A6%BE%E0%A6%A8%E0%A6%BF/a-61604298

যাবতীয় জল্পনাকল্পনার অবসান করে জার্মানি অবশেষে ইউক্রেনকে ভারি অস্ত্র সরবরাহের ঘোষণা করেছে৷ রামস্টাইন বিমান ঘাঁটিতে পশ্চিমা দেশের প্রতিরক্ষামন্ত্রীদের এক বৈঠকে  জার্মান প্রতিরক্ষামন্ত্রী ক্রিস্টিনে লামব্রেশট বলেন, রাশিয়ার হামলা মোকাবিলা করতে ইউক্রেনকে ৫০টি গেপার্ড বা চিতা ট্যাংক সরবরাহ করা হবে৷ জার্মানির কেএমডাব্লিউ কোম্পানির এই ট্যাংকে বিমান বিধ্বংসী বন্দুকও রয়েছে৷ লামব্রেশট বলেন, সরকারের ঘোষিত নীতি অনুযায়ী ইউক্রেন সরাসরি জার্মান বেসরকারী কোম্পানি থেকে অস্ত্র ও সরঞ্জাম কিনবে এবং জার্মানি তার দাম মেটাবে৷

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন জার্মানির এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে বলেন, এই চিতা প্রণালী ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীর ক্ষমতা মজবুত করবে৷ উল্লেখ্য, গেপার্ড ট্যাংক সরবরাহের অনুমতি দিলেও জার্মানির রাইনমেটাল কোম্পানির ১০০টি পুরানো মার্ডার ট্যাংক ও ৮৮টি পুরানো লেপার্ড ওয়ানএফাইভ ট্যাংকের বিষয়ে এখনো সিদ্ধান্ত নেয় নি শলৎসের সরকার৷

ইউক্রেনকে ভারি অস্ত্র সরবরাহের প্রশ্নে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে প্রবল চাপের মুখে পড়েছে চ্যান্সেলর ওলাফ শলৎসের সরকার৷ ইউক্রেন ও ইউরোপীয় সহযোগী তো বটেই, জার্মানির বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতা, এমনকি সরকারি জোটের মধ্যেও শলৎসের এমন দ্বিধা-দ্বন্দ্বের প্রবল সমালোচনা শোনা যাচ্ছিল৷ গেপার্ড ট্যাংকের কার্যকরিতা নিয়ে কিছু বিতর্ক থাকলেও যুদ্ধক্ষেত্রে ভারি অস্ত্র পাঠানোর বিষয়ে জার্মানির নীতি পরিবর্তন অবশ্যই বিশেষ নজর কাড়ছে৷ পোল্যান্ডের উপ পররাষ্ট্রমন্ত্রী শিমন শিনকফস্কি সেই পরিবর্তনকে স্বাগত জানালেও এই পদক্ষেপ যথেষ্ট নয় বলে জার্মান সরকারের সমালোচনা করেছেন৷

চ্যান্সেলর শলৎস অবশ্য তার অবস্থানে এখনো অটল রয়েছেন৷ তার মতে, খোদ জার্মান সেনাবাহিনীর এতকালের দুর্বলতার কারণে অন্যদের সাহায্যের ক্ষমতা কম৷ ইউক্রেনকে যা দেওয়া হয়েছে, এর বেশি আর তেমন কিছু দেওয়া সম্ভব নয়৷ জার্মানি তথা ন্যাটোর সুরক্ষার ক্ষমতা আরও দুর্বল না করে বুন্ডেসভেয়ারকে কাজ করতে হবে৷ তাছাড়া মস্কো জার্মানিকে যুদ্ধের অংশীদার হিসেবে গণ্য করলে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ শুরু হবার আশঙ্কা রয়েছে বলে শলৎস মনে করেন৷

অভ্যন্তরীণ সমালোচনা সামলাতে জার্মানির সরকারের তিন শরিক দল সংসদের নিম্ন কক্ষে ইউক্রেনকে ভারি অস্ত্র সরবরাহের নীতি সংক্রান্ত এক প্রস্তাব পেশ করতে চলেছে বলে সংবাদ সংস্থা এএফপি দাবি করেছে৷ সেই প্রস্তাবে ইউক্রেনকে অস্ত্র সরবরাহের নীতি চালিয়ে যাওয়া এবং যখনই সম্ভব আরও দ্রুত ভারি ও জটিল সরঞ্জাম পাঠানোর উল্লেখ থাকবে৷ সেইসঙ্গে ইউক্রেনের সৈন্যদের জার্মানিতে প্রশিক্ষণেরও ব্যবস্থা করতে চায় সরকার৷ বিরোধী ইউনিয়ন শিবির নিজস্ব প্রস্তাব এনে সরকারকে চাপে ফেলার তোড়জোড় করছিল বলে শলৎস নড়েচড়ে বসেছেন, এমন ধারণা জোরালো হচ্ছে৷

এসবি/কেএম (রয়টার্স, এএফপি, ডিপিএ)

স্কিপ নেক্সট সেকশন ডয়চে ভেলের শীর্ষ সংবাদ

ডয়চে ভেলের শীর্ষ সংবাদ

Symbolbild I Energiearmut I Hohe Energiepreise

‘গ্যাস সংকটের সহসা সমাধান নেই’

স্কিপ নেক্সট সেকশন ডয়চে ভেলে থেকে আরো সংবাদ

ডয়চে ভেলে থেকে আরো সংবাদ

প্রথম পাতায় যান