আবেদন প্রত্যাখ্যাত রেকর্ড সংখ্যক শরণার্থীকে ফেরত পাঠাবে জার্মানি | বিশ্ব | DW | 20.02.2017
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

জার্মানি

আবেদন প্রত্যাখ্যাত রেকর্ড সংখ্যক শরণার্থীকে ফেরত পাঠাবে জার্মানি

গত বছর রেকর্ড সংখ্যক ৮০ হাজার শরণার্থীকে তাদের নিজ নিজ দেশে ফেরত পাঠিয়েছিল জার্মানি৷ কেননা তাদের আবেদন প্রত্যাখ্যাত হয়েছিল৷ এ বছর সে সংখ্যাটা আরও বাড়বে বলে জানিয়েছেন জার্মানির এক শীর্ষ কর্মকর্তা৷

ম্যার্কেলের চিফ অফ স্টাফ পেটার আল্টমায়ার স্থানীয় পত্রিকা বিল্ড আম সনটাগ-কে জানান, ‘‘যেহেতু চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেলে আসন্ন নির্বাচনে জয়ী হতে চান, তাই রক্ষণশীল ভোটারদের সমর্থন পেতে এর বিকল্প নেই৷'' চলতি বছরের সেপ্টেম্বরে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে৷ আল্টমায়ার জানান, ‘‘২০১৬ সালে ৭ লাখ শরণার্থী জার্মানিতে থাকার আবেদন করেছিলেন, এদের মধ্যে প্রায় অর্ধেকের আবেদন প্রত্যাখ্যাত হয়েছে এবং এই বিপুল পরিমাণ শরণার্থীকে দেশে ফেরত পাঠানো হবে৷''

২০১৫ সালে বিপুল পরিমাণ শরণার্থী জার্মানিতে প্রবেশ করে৷ কেননা ম্যার্কেলের নীতি ছিল ‘ওপেন ডোর' নীতি, অর্থাৎ সীমান্ত খুলে দাও৷ ৷ এর ফলে রক্ষণশীলদের সমালোচনা মুখে পড়েছেন চ্যান্সেলর৷ তাঁর দল ক্রিস্টিয়ান ডেমোক্র্যাট পার্ট সিডিইউ এ সব শরণার্থীদের দেশে পাঠানোর পক্ষে৷ যেসব শরণার্থী অপরাধী হিসেবে চিহ্নিত এবং যাদের আবেদন প্রত্যাখ্যাত হয়েছে, তাদের অবিলম্বে দেশে ফেরত পাঠানো উচিত৷ এমনটাই মনে করছে সিডিইউ৷ আল্টমায়ার বলেন, নির্বাচনে বিপুল জনসমর্থন পেতে হলে প্রত্যাখ্যাত শরণার্থীদের অবিলম্বে দেশে ফেরত পাঠাতে হবে৷

গত ১৮ মাসে ১০ লাখেরও বেশি শরণার্থী গ্রহণ করেছে জার্মানি৷ এদের বেশিরভাগই সিরিয়া, ইরাক এবং আফগানিস্তানের যুদ্ধ বিধ্বস্ত এলাকা থেকে এসেছেন৷ যাদের আবেদন প্রত্যাখ্যাত হয়েছে, খুব শিগগিরই তাদের ফেরত পাঠানো হবে বলে জানালেন আল্টমায়ার৷ তিনি বলেন, তা না করলে আইনের শাসনের ভিত্তিতে পরিচালিত আমাদের রাষ্ট্রের বিশ্বাসযোগ্যতা ক্ষুণ্ণ হবে৷

এপিবি/ডিজি (এপি, এএফপি, ডিপিএ, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন