আফগানিস্তানে তালেবান আক্রমণ ঠেকাতে মার্কিন বিমান হামলা | সমাজ সংস্কৃতি | DW | 10.08.2018
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

আফগানিস্তান

আফগানিস্তানে তালেবান আক্রমণ ঠেকাতে মার্কিন বিমান হামলা

শুক্রবার তালেবান সদস্যরা অতর্কিত হামলা চালিয়ে আফগানিস্তানের গজনি নিয়ন্ত্রণ নেয়ার চেষ্টা করলে মার্কিন বিমান বাহিনী পালটা হামলায় চালায়৷ এতে করে পিছু হঠতে বাধ্য হয় তালেবান জঙ্গিরা৷

হামলায় যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে হাত মেলান আফগান সেনারাও৷ বার্তা সংস্থা এএফপি-র এক প্রতিবেদন থেকে জানা যায় যে, ঐ হামলায় আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর ১৪ জন সদস্য নিহত হয়৷

এদিকে রাজ্যটির গভর্নরের মুখপাত্র আরিফ নুরি এএফপিকে জানান, দু'পক্ষের এ হামলায় বেশ কিছু বাড়িঘর ও নিরাপত্তা বাহিনীর নিয়ন্ত্রণ কেন্দ্র ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে৷ এছাড়া রাস্তার ওপর বেশ কিছু তালেবান সদস্যের দেহ পড়ে থাকতে দেখা গেছে বলেও জানিয়েছেন তিনি৷

প্রতিবেদনে এএফপি জানায়, শুক্রবার ভোর রাতে তালেবান সদস্যরা অতর্কিত হামলা চালিয়ে শহরটির বিভিন্ন এলাকায় নিজেদের নিয়ন্ত্রণ নেয়ার চেষ্টা চালায়৷ এর কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই অ্যামেরিকান বিমান বাহিনী ও আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা পালটা হামলা চালিয়ে তালেবান সদস্যদের পিছু হঠতে বাধ্য করে৷ নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা এ সময় শহরটির বিদ্যুত সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয় এবং স্থানীয়দের বাড়ির বাইরে বের না হওয়ার নির্দেশনা দেয়৷

আফগানিস্তানে নিযুক্ত অ্যামেরিকান বাহিনীর টুইটার অ্যাকাউন্ট থেকে জানানো হয় যে শহরটি এখন পুরোপুরি দেশটির নিরাপত্তা বাহিনীর নিয়ন্ত্রণে রয়েছে৷

এদিকে জঙ্গি গোষ্ঠি তালেবান এক বিবৃতিতে জানিয়েছে যে তারা শহরটির অধিকাংশ সরকারি স্থাপনার নিয়ন্ত্রণ নিয়ে নিয়েছে৷ নিরাপত্তা বাহিনীর প্রায় ১৪০ জন সদস্যের হতাহতের দাবিও করেছে জঙ্গি গোষ্ঠিটি

২০১৪ সালে ন্যাটো সদস্যদের প্রত্যাহারের পর থেকেই দেশটির বিভিন্ন অঞ্চলের নিয়ন্ত্রণ ধরে রাখার জন্য তালেবান বাহিনীর সাথে লড়তে হচ্ছে আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের৷ গত মে মাসে দেশটির পশ্চিমাঞ্চলীয় শহর ফারাহ-এ হামলা চালায় তালেবান জঙ্গিরা৷ এ সময় অ্যামেরিকান বিমান বাহিনী ও আফগান নিরাপত্তা বাহিনীর হামলা ও পালটা হামলার মুখে পিছু হঠতে বাধ্য হয় তালেবান৷

দেশটিতে শান্তি-শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে তালেবান জঙ্গিদের সঙ্গে আলোচনায় বসার পরিকল্পনা করছে আফগান সরকার৷ গত ফেব্রুয়ারি মাসে তালেবানকে শান্তি আলোচনায় বসার প্রস্তাব দেয় তারা৷ এ প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে তালেবান জঙ্গিরা জানিয়েছে যে, তারা সরাসরি মার্কিন বাহিনীর সাথে শান্তি আলোচনা বসতে চায়৷ তালেবানের এ প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে ওয়াশিংটন জানিয়েছে, শান্তি আলোচনা হতে হবে আফগান প্রশাসনের নেতৃত্বে৷ শান্তি আলোচনার বিষয়ে কূটনৈতিক তৎপরতা এখনও চলছে আফগানিস্তানে৷

আরআর/ডিজি (এপি, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন