অযোধ্যায় করোনা হানা, আক্রান্ত পুরোহিত | বিশ্ব | DW | 31.07.2020
  1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages
বিজ্ঞাপন

ভারত

অযোধ্যায় করোনা হানা, আক্রান্ত পুরোহিত

অযোধ্যায় রামমন্দিরের ভূমিপুজোর আগেই সেখানে করোনার হানা। যে পুরোহিতরা ভূমিপুজোর অনুষ্ঠান করবেন, তাঁদেরই একজন করোনায় আক্রান্ত।

রামমন্দিরের ভূমিপুজোর চূড়ান্ত অনুষ্ঠান হবে আগামী ৫ অগাস্ট। ভূমিপুজোর সূচনা অবশ্য হয়ে যাবে ৩ অগাস্ট থেকে। ৪ তারিখ রামের পুজো হবে। কিন্তু সেখানেই করোনার হানা। এই পুজো করার কথা বারাণসী ও অযোধ্যার পুরোহিতদের। অনুষ্ঠানের আগে সকলের করোনা পরীক্ষা হচ্ছে। সেখানেই ধরা পড়েছে, রামলালার মন্দিরের প্রধান পুরোহিত সত্যেন্দ্র দাসের সহকারী পুরোহিত প্রদীপ দাস করোনায় আক্রান্ত। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে আইসোলেশনে পাঠানো হয়েছে। শুধু তিনিই নন, করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন নিরাপত্তায় দায়িত্বে থাকা ১৫ জন পুলিশ কর্মী।   

আগামী ৫ অগাস্টের অনুষ্ঠানে সত্যেন্দ্র দাসই প্রধান পুরোহিতের ভূমিকায় থাকবেন। তার আগে প্রদীপ দাসের করোনা ধরা পড়ায় রীতিমতো আলোড়ন শুরু হয়ে গিয়েছে অযোধ্যায়। দিন ছয়েক আগে প্রস্তুতি খতিয়ে দেখতে উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ অযোধ্যায় গিয়েছিলেন। তিনি রামলালার পুজো দেন। সেখানেও প্রদীপ ছিলেন।

তবে প্রশাসন জানিয়েছে, প্রদীপের সঙ্গে থাকা বাকিদের করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট এসে গেছে। তাঁরা কেউই করোনায় আক্রান্ত নন। তবে প্রশাসন কোনো ঝুঁকি নিচ্ছে না। যেহেতু প্রধানমন্ত্রী থেকে শুরু করে অনেক ভিভিআইপি থাকবেন, তাই দরকারে আবার করোনা পরীক্ষা করে দেখা হতে পারে।

পরামর্শ মানলে মোদীও যোগ দিতে পারেন না

করোনা নিয়ে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রক একটা স্ট্যান্ডার্ড অপারেটিং প্রসিডিওর(এসওপি) ঘোষণা করেছে। সেই এসওপি-তে বলা হয়েছে, ‘‘৬৫ বছরের বেশি বয়সের ব্যক্তি, যাঁদের অন্য গুরুতর অসুখ আছে, গর্ভবতী মহিলা এবং ১০ বছরের কম বয়সী বাচ্চারা বাড়িতে থাকার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে।’’ ধর্মীয় বিষয় যাঁরা সংগঠন করছেন, তাঁদেরও এই পরামর্শ মাথায় রাখার কথা বলা হয়েছে। আনলক ৩-এর নীতি নির্দেশিকা সম্প্রতি প্রকাশ করা হয়েছে। সেখানেও একই পরামর্শ বহাল রয়েছে।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বয়স ৬৯ বছর। লালকৃষ্ণ আডবাণী আর কয়েক মাস পরে ৯৩-এ পা দেবেন। মুরলী মনোহর জোশীর বয়স  ৮৬, আরএসএস প্রধান মোহন ভাগবতের ৬৯, বিজেপি নেতা ও প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী কল্যাণ সিং-এর ৮৮, আরএসএস নেতা ভাইয়াজি জোশীর ৭৩ বছর বয়স। তা হলে তো কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের এসওপি মানলে তাঁদের বাড়িতে থাকা উচিত। রামমন্দিরের ভূমিপুজোর অনুষ্ঠানে যাওয়া উচিত নয়।  

স্বাস্থ্য মন্ত্রকের এই এসওপি প্রথম জারি করা হয়, আনলক ১-এর সময়। তারপর থেকে তা এখনও পর্যন্ত বহাল রাখা হয়েছে। গত ১০ জুন সাংবাদিক সম্মেলনে স্বাস্থ্য মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব লব আগরওয়াল বলেছিলেন, ‘‘এসওপি জারির পিছনে আমাদের মূল উদ্দেশ্য হলো করোনার সংক্রমণ রোধ করা। তাই সেখানে সামাজিক দূরত্ব সহ সব বিষয়ই আছে।’’

করোনার মধ্যেই রামমন্দিরের ভূমিপুজো নিয়ে ইতিমধ্যেই প্রশ্ন উঠেছে। প্রবীণ রাজনীতিক শরদ পাওয়ার বলেছেন, করোনার সংক্রমণ রোধ করাই অগ্রাধিকার হওয়া উচিত ছিল। এই অবস্থায় সরকারের জারি করা এসওপি বিড়ম্বনায় ফেলেছে বিজেপি শীর্ষ নেতৃত্বকে।

দৈনিক আক্রান্ত ৫০ হাজার

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৫৫ হাজারেরও বেশি মানুষ। সবমিলিয়ে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ১৬ লাখ ছাড়াল। স্বাস্থ্যমন্ত্রী হর্ষবর্ধন জানিয়েছেন, সুস্থ হয়ে ওঠার হার ৬৪ শতাংশ ছাড়িয়ে গিয়েছে। এ পর্যন্ত মারা গেছেন ৩৫ হাজার ৭৪৭ জন।

জিএইচ/এসজি( পিটিআই, দ্য প্রিন্ট)

সংশ্লিষ্ট বিষয়

বিজ্ঞাপন