1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

খেলাধুলা

সোচি অলিম্পিকে যাবেন না জার্মান প্রেসিডেন্ট

মানবাধিকার লঙ্ঘণের প্রতিবাদে জার্মান প্রেসিডেন্ট ইওয়াখিম গাউক রাশিয়ার সোচিতে অনুষ্ঠেয় শীতকালীন অলিম্পিকে যোগ দিচ্ছেন না৷ সোমবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছে তাঁর কার্যালয়৷ তবে এটাকে ‘বর্জন' বলতে রাজি নন প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র৷

সাপ্তাহিক পত্রিকা ‘ডের স্পিগেল' এক প্রতিবেদনে বলেছে, ২০১৪ সালের ফেব্রুয়ারিতে রাশিয়ার সোচিতে হতে যাওয়া শীতকালীন অলিম্পিক বয়কট করেছেন গাউক৷ সাধারণ মানুষের অধিকার লঙ্ঘন এবং বিরোধী দলের প্রতি রুশ সরকারের কঠোর আচরণের প্রতিবাদে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি৷ এক সময়ের মানবাধিকার কর্মী গাউক ২০১২ সালে দায়িত্ব নেয়ার পর এখন পর্যন্ত রাশিয়া সফর করেননি৷

এদিকে, জার্মান প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র এএফপিকে নিশ্চিত করেছেন, শীতকালীন অলিম্পিক অনুষ্ঠানে যোগ দিচ্ছেন না গাউক৷ এর আগের বেশ কয়েকজন জার্মান প্রেসিডেন্টও শীতকালীন অলিম্পিকে যাননি – এই তথ্য জানিয়ে প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র বলছেন, এই ঘটনা ‘বর্জন' নয়৷

জার্মানি থেকে সরকারের কোনো প্রতিনিধি যাবেন কিনা, তা এখনও ঠিক হয়নি বলে জানিয়েছেন তিনি৷ এমনও হতে পারে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী প্রতিনিধি হিসেবে যেতে পারেন, যোগ করেন ঐ মুখপাত্র৷

জার্মানির মানবাধিকার কমিশনার মার্কুস ল্যোনিং জাতীয় সংবাদ সংস্থা ডিপিএ কে বলেছেন, গাউকের এই ভাবনা অসাধারণ, যা রাশিয়ার প্রতিটি মানুষের প্রতি কেবল হৃদ্যতাই প্রকাশ করে না, বরং তাঁর এই আচরণই প্রমাণ করে তিনি রুশ জনগণের স্বাধীনতা, গণতন্ত্র এবং অধিকারে বিশ্বাসী৷

২০১২ সালে লন্ডন অলিম্পিক ও প্যারালিম্পিক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন গাউক৷ এবার তিনি শীতকালীন অলিম্পিক থেকে ফেরার পর মিউনিখে ২৪ ফেব্রুয়ারি জার্মান অ্যাথলেটদের সংবর্ধনা দেবেন৷

এবারের অলিম্পিকে ৫০ বিলিয়ন ডলার খরচ করছে রুশ সরকার৷ কিন্তু সমকামীবিরোধী আইন এবং মানবাধিকার লঙ্ঘনের কারণে আন্তর্জাতিকভাবে বেশ সমালোচনার মুখে রয়েছে পুটিন সরকার৷ এমনকি সোচির পার্শ্ববর্তী এলাকা নর্থ ককাসে যেখানে প্রায়ই সহিংসতার ঘটনা ঘটে সেখানে খেলার ভেন্যুর নিরাপত্তা নিয়েও প্রশ্ন উঠেছে৷

এপিবি/জেডএইচ (এএফপি, ডিপিএ, রয়টার্স)

নির্বাচিত প্রতিবেদন