1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

সমাজ সংস্কৃতি

‘সিগারেট শিম্পাঞ্জি’ আর নেই

মারা গেল লাখো দর্শকের প্রিয় শিম্পাঞ্জি চার্লি৷ সে সবার প্রিয় ছিল৷ কারণ সিগারেট খেয়ে সবাইকে আনন্দ দিত দক্ষিণ আফ্রিকার ব্লুমফন্টেইনের একটি চিড়িয়াখানার এই শিম্পাঞ্জিটি৷

default

এই শিম্পাঞ্জিটি গাজর খাচ্ছে৷ কিন্তু চার্লি খেত সিগারেট

কিন্তু শিম্পাঞ্জি সিগারেট খেত কেন? জানা গেছে, কয়েক বছর আগে কয়েকজন দর্শক চার্লির দিকে জ্বলন্ত সিগারেট ছুড়ে মেরেছিল৷ চার্লি সেই সিগারেট মুখে নিয়ে টানা শুরু করে৷ আর সেটা দেখে দর্শকরা মহাখুশি৷ কিন্তু চার্লিরও সেটা ভাল লেগে যায়৷ তাই তখন থেকেই সিগারেট খাওয়া শুরু৷ চলেছে জীবনের শেষ পর্যন্ত৷

প্রতিবছর প্রচুর দর্শক যেত সেই চিড়িয়াখানায় শুধু চার্লির সিগারেট খাওয়া দেখতে৷ তবে চিড়িয়াখানার কিউরেটর কোন্ডিলে খেদামা অনেক চেষ্টা করেছেন চার্লির সিগারেট খাওয়া বন্ধ করতে৷ দর্শকদেরও অনুরোধ করা হয়েছে তারা যেন চার্লিকে সিগারেট না দেয়৷

কিন্তু কে শোনে কার কথা! চার্লি সিগারেট খাচ্ছে এটাইতো দর্শকদের দেখার প্রিয় বিষয় ছিল৷ তাই দর্শকরাও সিগারেট দিয়ে গেছে আর চার্লিও তা মজা করে খেয়েছে৷

সিগারেটই কী ৫২ বছর বয়সী চার্লির জীবন কেড়ে নিল৷ না, তা মনে করেন না কিউরেটর খেদামা৷ তিনি বলছেন একটি শিম্পাঞ্জি যত বছর বাঁচে চার্লি তার চেয়ে ১০ বছর বেশি বেঁচেছে৷ তবে এরপরও ময়নাতদন্ত করতে দেয়া হয়েছে মৃত্যুর কারণ বের করার জন্য৷

এদিকে চার্লি মারা যাওয়ায় তার স্ত্রী জুডির জন্য এখজন সঙ্গি খোঁজা শুরু হয়েছে৷ তবে খেদামা বলছেন এটা প্রায় অসম্ভব একটি কাজ৷

প্রতিবেদন: জাহিদুল হক

সম্পাদনা: ফাহমিদা সুলতানা

সংশ্লিষ্ট বিষয়