1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

সাবধান! লাদেনের ছবির আড়ালে ভাইরাস

লাদেনের মৃত্যুর পর থেকেই ফেসবুক ছড়াচ্ছে বিভিন্ন পোস্ট৷ কোনটির দাবি এখানে নিহত লাদেনের ছবি পাবে, কোনটি বলছে ভিডিও’র কথা আবার কারো দাবি ‘লাদেন বেঁচে আছে’, ক্লিক করে দেখো৷ সাবধান, এগুলোতে ক্লিক করলেই বিপদ আসন্ন৷

CORRECTS TO AFGHAN NEWSPAPERS - A collection of Afghan newspaper fronts show headlines referring to the killing of the al-Qaida leader Osama bin Laden, in Kabul, Afghanistan Tuesday, May 3, 2011. Bin Laden, the mastermind behind the Sept. 11, 2001, terror attacks that killed thousands of people was slain in his luxury hideout in Pakistan early Monday in a firefight with U.S. forces, ending a manhunt that spanned a frustrating decade. (AP Photo/Musadeq Sadeq)

মার্কিন কর্তৃপক্ষ, গুলিতে নিহত ওসামা বিন লাদেন-এর ছবি প্রকাশ না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে৷ তাছাড়া যে ছবিটি দেখিয়ে ফেসবুকে এসব পোস্ট করছে দুষ্টচক্র, সেটি একটি ভুয়া ছবি৷ কম্পিউটারে ছবি সম্পাদনার সফটওয়্যার দিয়ে আজকাল অনেকেই বানাতে পারে এমন ছবি৷ তাই, এগুলোকে বিশ্বাস করার কোন কারণ নেই৷

প্রশ্ন জাগতে পারে, এসব লিংকে ক্লিক করলে কি হবে? ফেসবুকের কথাই ধরা যাক, আপনার ওয়ালে হঠাৎ দেখলেন একটি পোস্ট এসেছে, লাদেনকে হত্যার ভিডিও দেখতে ক্লিক কর৷ দেখলেন আপনারই কোন ফেসবুক বন্ধু সেটা পাঠিয়েছে৷ অনুসন্ধানী মনে ক্লিক করলেন৷ এবার আসবে বাড়তি লিংকসহ একটি পাতা৷ বলা হবে, এটি কপি করে ব্রাউজারে পেস্ট করতে৷ এটাও যদি করেন, তাহলে আপনার অজান্তেই আপনার নামে ফেসবুকে বিভিন্ন জনের কাছে যেতে শুরু করবে বার্তা, ‘‘লাদেনকে হত্যার ভিডিও দেখতে ক্লিক কর''৷ একইসঙ্গে আপনার প্রোফাইলের গোপন সব তথ্যে প্রবেশাধিকার পাবে দুষ্টচক্র৷

FILE - In this 1998 file photo, Ayman al-Zawahri, left, holds a press conference with Osama bin Laden in Khost, Afghanistan and made available Friday March 19, 2004. A person familiar with developments said Sunday, May 1, 2011 that bin Laden is dead and the U.S. has the body. (AP Photo/Mazhar Ali Khan)

ওসামার মৃত্যুর পর থেকে তার নামে ছড়াচ্ছে কম্পিউটার ভাইরাস

মার্কিন কেন্দ্রীয় তদন্ত সংস্থা এফবিআই লাদেন এর ছবি এবং ভিডিওযুক্ত ভাইরাস সম্পর্কে রক্ষা পেতে কয়েকটি পরামর্শ দিয়েছে৷ এগুলো হচ্ছে:

- ফেসবুক সেটিংসে গিয়ে আপনার প্রোফাইলটিকে আরো মজবুত করুন৷ যাতে করে বন্ধু বা অবন্ধুরা সহজে আপনার ফেসবুক ওয়ালে কিছু পোস্ট করতে না পারে৷

- লাদেন হত্যার ভিডিও দেখার লোভে ভুলেও কোন বাড়তি সফটওয়্যার কম্পিউটারে ইন্সটলের আমন্ত্রণ গ্রহণ করবেন না৷ এধরনের সফটওয়্যার আপনার কম্পিউটারের ক্ষতি করবে৷ তাছাড়া এগুলো আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্টসহ গোপন তথ্য অন্যের হাতে তুলে দিতে পারে৷

- ই-মেইল এবং সামাজিক যোগাযোগে প্রাপ্ত ওসামা সংক্রান্ত পোস্টগুলো ভালো করে পড়ে দেখুন৷ ক্ষতিসাধনের ইচ্ছায় প্রেরিত বার্তাগুলোয় সাধারণত ভুল ব্যাকরণ, ভুল বানান এবং দুর্বোধ্য ইংরেজি ব্যবহার করা হয়৷

- এফবিআই বা অন্য কোন গোয়েন্দা সংস্থার নামে বার্তা পেলে দয়া করে তাদেরকে রিপোর্ট করুন৷ দুষ্টচক্র এফবিআই বা অন্য গোয়েন্দা সংস্থার লেবাসে বার্তা পাঠিয়ে আপানাকে বিভ্রান্ত করতে পারে৷

আরেকটি তথ্য জানিয়ে শেষ করি, টুইটারে আজ পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি যে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হয়েছে, তা হচ্ছে ওসামা নিহতের খবর৷ পিউ গবেষণা সংস্থা জানিয়েছে, আনুপাতিক হারে সবচেয়ে বেশি মানুষ এই মৃত্যু নিয়ে টুইটারে রসিকতাপূর্ণ বার্তা পাঠিয়েছে৷ কেউ কেউ সন্দেহ প্রকাশ করেছে যে, আসলেই কি লাদেনকে হত্যা করা হয়েছে? এছাড়া ছিল লাদেন নিজের স্ত্রীকে ঢাল হিসেবে ব্যবহারের অশুদ্ধ খবরটি নিয়ে আলোচনা৷

প্রতিবেদন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: ফাহমিদা সুলতানা