1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

অন্বেষণ

সাধারণ মানুষের জন্য কম্পিউটার

মেক্সিকোর সাধারণ মানুষ, বিশেষ করে নারীদের অনেক ক্ষেত্রে কম্পিউটার বা ইন্টারনেটের সঙ্গে কোনো সম্পর্ক থাকে না৷ এক মার্কিন শিক্ষিত মেক্সিকান তরুণ সেই ফাঁকটাই পূরণ করার চেষ্টা করছেন৷

সমাজকর্মী মোয়াস খেরেম-এর মেক্সিকোয় যে বস্তুটি ভালো লাগে, সেটি হলো, রাস্তার মোড়ে মোড়ে খাবার দোকান – যেমন কানকুনে৷ এই সব দোকানিরা ছোট ব্যবসায়ী৷ মহিলারা নিজের হাতে খাবার তৈরি করে থাকেন৷ তাদের ইন্টারনেট অ্যাক্সেস বা কম্পিউটার আছে কিনা – জিজ্ঞাসা করলেন মোয়াস৷ মহিলা জানালেন, ‘‘সখ তো ছিল, কিন্তু সামর্থ্য কই?’’

বিশেষ করে দরিদ্র এলাকাগুলিতে আধুনিক প্রযুক্তির দেখা পাওয়া ভার৷ যেখানে প্রযুক্তি নেই, সেখানে তথ্যপ্রযুক্তিও নেই৷ মোয়াস খেরেম সেটা বদলানোর চেষ্টা করছেন৷ তাঁর কোম্পানি গোটা মেক্সিকোয় মোট ৭০টি স্কুল ও প্রশিক্ষণ কেন্দ্র গড়ে তুলেছে৷

07.10.2015 DW Global 3000 SEMois

সমাজকর্মী মোয়াস খেরেম

মোয়াস জানালেন, ‘‘ইন্টারনেট আছে – শুনতে ভালো লাগে৷ কিন্তু অনেকেই নতুন প্রযুক্তির সঙ্গে পরিচিত নন৷ এই মহিলা আমাদের কোনো শিক্ষাকেন্দ্রে প্রশিক্ষণ পেতে পারতেন৷ উনি আসলে গৃহিণী; আমি ওনাকে বুঝিয়েছি, মা ও বাচ্চাদের জন্য আলাদা প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা আছে৷ মায়েরা যান একটি কোর্সে, বাচ্চারা যায় আরেকটি কোর্সে৷ সকলেই আধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করতে শেখে৷''

মোয়াস সহজেই মানুষের সঙ্গে আলাপ করতে পারেন, সে যেখানেই হোক৷ পড়াশুনো করেছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে, খরচ দিয়েছেন বাবা-মা৷ মেক্সিকোর সব মানুষ অত ভাগ্যবান নন৷ প্রতি একশ স্কুলের ছাত্রছাত্রীর মধ্যে মাত্র ২৫ জন ফাইনাল পরীক্ষা অবধি টিকে থাকে৷ কলেজে পড়া মাত্র ১৩ শতাংশের৷ অথচ ভালো চাকরি পেতে গেলে পড়াশুনা করা দরকার৷

এনোভা'

মোয়াস খেরেম আমাদের একটি ইন্টারনেট কাফেতে নিয়ে গেলেন৷ এখানে কচিকাঁচা, কিশোর-কিশোরীরাও ইন্টারনেট ব্যবহারের সুযোগ পায়৷ খেলা দিয়ে শুরু৷ ছোটরা আসলে মজা পেতে চায়৷ মোয়াস খেরেম সেই মজার সঙ্গে শিক্ষা এবং তথ্য যোগ করতে চান৷ কাজেই তিনি ও তাঁর বন্ধুরা মিলে ‘এনোভা' কোম্পানিটি প্রতিষ্ঠা করেছেন৷ মোয়াস বললেন, ‘‘কোনো বাচ্চার যদি স্কুলে অঙ্কের বিষয়টিতে অসুবিধা থাকে, তাহলে সে আধুনিক প্রযুক্তি ও আমাদের শিক্ষকদের সাহায্য নিয়ে আরো সহজে অঙ্ক শিখতে পারবে৷ অন্য সব পাঠ্য বিষয়ের ক্ষেত্রেও যা প্রযোজ্য৷ প্রাপ্তবয়স্করা ইন্টারনেট থেকে শেখেন কাজের ধরন বা কী করে উৎপাদন বাড়ানো যায়৷ ফলে চাকরি পেতে সুবিধা হয়৷''

মেক্সিকো আজ শিক্ষাখাতে বেশি বিনিয়োগ করে থাকে, তা সত্ত্বেও ধনী-দরিদ্রের মধ্যে বিপুল ফারাক থেকে যায়৷ মোয়াস খেরেম-এর মতে, শিক্ষা বাবা-মা'র আয়ের উপর নির্ভর হওয়া উচিত নয়৷ মোয়াস যে শিক্ষা দেন, তা সকলেই পেতে পারে৷ স্পন্সররা সাহায্য করেন, ‘এনোভা'-র বাজেট বছরে দেড় কোটি মার্কিন ডলার – খুব কম নয়৷ মোয়াস-এর শিক্ষাকেন্দ্রগুলিতে লক্ষাধিক মেক্সিকান প্রশিক্ষণ পেয়েছেন৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

ইন্টারনেট লিংক