1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

সাত খুনের মামলায় আরো তিন র‌্যাব সদস্য গ্রেপ্তার

নারায়ণগঞ্জের আলোচিত সাত খুনের মামলায় আরো তিন র‌্যাব সদস্যকে গ্রেপ্তারের পর সাত দিনের রিমান্ডে নিয়েছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ৷ আলোচিত এ মামলায় এ নিয়ে র‌্যাবের মোট ১৭ জন সদস্য ও কর্মকর্তা গ্রেপ্তার হলেন৷

গ্রেপ্তার হওয়া র‌্যাব সদস্যরা হলেন, নারায়ণগঞ্জ র‌্যাবের এএসই আবুল কালাম আজাদ ও বজলুর রহমান এবং হাবিলদার মো. নাছিরউদ্দিন৷ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মামুনুর রশিদ মণ্ডল জানান, সোমবার রাতে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়৷ মঙ্গলবার সকালে নারায়ণগঞ্জের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম আদালতে হাজির করে ১০ দিনের রিমান্ড চাওয়া হলে বিচারক মনোয়ারা বেগম সাত দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি দেন৷ তিনি বলেন, ‘‘এর আগে সাত খুনের ঘটনায় গ্রেপ্তার র‌্যাব সদস্যদের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে এই তিনজনের নাম এসেছে৷ তাই তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে৷''

সাত খুনের ঘটনায় এ পর্যন্ত ১৭ জন র‌্যাব সদস্যসহ মোট ৩০ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে৷ তাঁদের মধ্যে ১০ জন র‌্যাব সদস্যসহ ১৩ জন আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন৷

মামুনুর রশিদ ডয়চে ভেলেকে বলেন, ‘‘আমরা তদন্তের কাজ দ্রুত গতিতে এগিয়ে নিচ্ছি৷ সংশ্লিষ্ট সব তথ্য উপাত্তই বিশ্লেষণ করে দেখা হচ্ছে৷ যাঁরা স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন তাঁদের জবানবন্দির তথ্য যাচাই বাছাই করে পরবর্তী পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে৷''

মামলার তদন্ত রিপোর্ট জমা দেয়ার জন্য আদালত এরইমধ্যে সময় বেঁধে দিয়েছে৷ আগামী বছরের ২২শে জানুয়ারির মধ্যে তদন্ত শেষ করে রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে৷ তদন্তকারীদের হাতে এখন দুই মাসেরও কম সময় আছে৷ নারায়ণগঞ্জের জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম এইচ এম শফিকুল ইসলাম সোমবার এ নির্দেশ দেন৷

এ নিয়ে আদালতে আবেদনকারী নারায়ণগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি সাখাওয়াত হোসেন ডয়চে ভেলেকে বলেন, ‘‘সাত মাস পার হলেও আদালতে এখনও অভিযোগপত্র দেওয়া হয়নি৷ আবেদনের শুনানিতে আমরা এ বিষয়ে আবেদন জানালে আদালত অভিযোগপত্র দাখিলের জন্য সময় ২২শে জানুয়ারি নির্ধারণ করে দেন৷''

মামলার এজাহারভুক্ত প্রধান আসামি নূর হোসেনকে ভারত থেকে এখনও দেশে ফিরিয়ে না আনায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি৷ সাখাওয়াত হোসেন অভিযোগ করেন, ‘‘নূর হোসেনকে দেশে ফিরিয়ে আনা হলে অনেক রাঘব বোয়ালের নাম বেরিয়ে আসবে৷ তাই তাঁকে দেশে ফেরত আনছে না সরকার৷''

তবে মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দাবি করেন, ‘‘এই মামলার তদন্তে কাউকে ছাড় দেয়ার প্রশ্নই ওঠেনা৷ গুরুত্বপূর্ণ মামলাটি তদন্তে স্বাভাবিক কারণেই সময় লাগছে৷ আশা করি আদালতের বেঁধে দেয়া সময়ের মধ্যেই তদন্ত শেষ হবে৷''

গত ২৭শে এপ্রিল নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের কাউন্সিলর নজরুল ইসলাম ও আইনজীবী চন্দন কুমার সরকারসহ সাতজনকে অপহরণ করা হয়৷ তিন দিন পর শীতলক্ষ্যা নদীতে তাঁদের লাশ ভেসে ওঠে৷ এরপর নজরুল ইসলামের শ্বশুর শহীদুল সলাম অভিযোগ করেন, নূর হোসেনের কাছ থেকে নারায়ণগঞ্জের র‌্যাব কর্মকর্তারা ৬ কোটি টাকা ঘুসের বিনিময়ে সাতজনকে হত্যা করেছে৷ পরে আদালতের নির্দেশে নারায়ণগঞ্জ র‌্যাবের তিন শীর্ষ কর্মকর্তা গ্রেপ্তার হলে জানা যায় র‌্যাব সদস্যরা কীভাবে সাতজনকে অপহরণ ও হত্যা করেছে৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়