1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ড: কবে পাব বিচার?

সাংবাদিক দম্পতি সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ডের দুই বছর পূর্তিতে ফেসবুকে অনেকের জিজ্ঞাসা, ‘‘কবে পাব বিচার?’’ এ সংক্রান্ত একটি ব্যানার কভার ফটো হিসেবে ব্যবহার করছেন বহু মানুষ৷ অন্যদিকে বিচারের দাবিতে রাজপথে আবারো সমবেত জনতা৷

২০১২ সালের ১১ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় নিজেদের ভাড়া বাসার বেডরুমে খুন হন সাংবাদিক সাগর সরওয়ার এবং মেহেরুন রুনি৷ এরপর দুই বছর পেরিয়ে গেলেও ধরা পড়েনি সাংবাদিক দম্পতির খুনিরা৷ এমনকি পুলিশ এবং ব়্যাব এখনও জানাতে পারেনি খুনের কারণ৷ তাদের তদন্তে গাফেলতির অভিযোগ এনেছে সাংবাদিক দম্পতির পরিবারের সদস্যরা৷

সাগর-রুনির হত্যাকারীদের বিচারের দাবিতে সরব অনেকেই৷ জনপ্রিয় বাংলা ব্লগ সামহয়্যার ইন ব্লগে এই বিষয়ে সৈয়দা গুলশান ফেরদৌস জানার নিবন্ধের শিরোনাম, ‘‘সাগর-রুনি হত্যার ৭৩২তম দিন আজ৷ প্রশাসনিক অক্ষমতায় উদ্বিগ্ন আমরা!''

একসময় সামহয়্যার ইন ব্লগে নিয়মিত লিখতেন সাগর সরওয়ার৷ সস্ত্রীক হত্যাকাণ্ডের শিকার এই তরুণ সাংবাদিকের স্মরণে আজও বিশেষ ব্যানার রয়েছে ব্লগ সাইটটির প্রথম পাতায়৷ সেখানে দিনগোনা হচ্ছে৷ জানা লিখেছেন, ‘‘এখনও অন্ধকারেই আমরা!!!! আমরা উদ্বিগ্ন, আমরা লজ্জিত৷ তবুও লক্ষ লক্ষ চোখ খোলা রেখেছি এই আমরাই৷ সত্য উদ্ঘাটন এবং ন্যায় বিচার হতেই হবে.... হবেই হবে...৷''

সাগর-রুনির একমাত্র সন্তান মেঘের উদ্দেশ্যে সামহয়্যার ইন ব্লগের প্রতিষ্ঠাতা লিখেছেন, ‘‘ সমস্ত বাংলা ব্লগারের পক্ষ থেকে ‘মেঘ'-র জন্য ভালোবাসা৷''

এদিকে, হত্যাকাণ্ডের দুই বছর পূর্তিতে ঢাকার কারওয়ান বাজারে মানববন্ধনের আহ্বান জানানো হয় একটি ফেসবুক ইভেন্টের মাধ্যমে৷ ‘‘দীর্ঘতম ৪৮ ঘণ্টা!'' শিরোনামের এই ইভেন্টের পাতায় লেখা হয়েছে, ‘‘দুই বছর অতিবাহিত হয়েছে হেলাফেলায়৷ এতকিছু আমরা পারি, আর একটা বিচারের দাবিতে নিজেরা একাট্টা হয়ে থাকতে পারিনি, লেগে থাকতে পারিনি৷ এ লজ্জা আর কারোর না৷ কান্নাকাটির সময় দুই বছরে শেষ হয়েছে নিশ্চয়৷ আসুন এবার শক্ত চোয়ালে বিচারের দাবি নিয়ে দাঁড়াই৷''

ব্লগার আরিফ জেবতিক এই ইভেন্টের প্রতি সমর্থন জানিয়ে মঙ্গলবার সকালে ফেসবুকে লিখেছেন, ‘‘সাগর-রুনি আমাদের মতোই দু'জন মানুষ ছিল৷ একরাতে তাঁরা দু'জন খুন হয়ে গেলে মেঘ নামের ছোট্টশিশুটি এখনও কী সীমাহীন নিঃসঙ্গতায় বেড়ে উঠছে৷ সাগর-রুনিকে ফিরিয়ে আনা যাবে না, কিন্তু মেঘ নামের শিশুটি যাতে তাঁর পিতা-মাতা হত্যার বিচার পায়, এ জন্য কিছু সতীর্থ আজ বিকেলে কারওয়ান বাজার সার্ক ফোয়ারার সামনে দাঁড়াবেন৷''

ডয়চে ভেলের ‘দ্য বব্স' অ্যাওয়ার্ডজয়ী এই ব্লগার লিখেছেন, ‘‘কাল রাতে যদি আমি কিংবা আপনি খুন হয়ে যাই, তাহলে আমাদের সন্তানরা যাতে অন্তত ন্যায়বিচার পায়, এ জন্য আজকে বিকেলে যারা দাঁড়াবেন তাঁদের প্রতি সংহতি প্রকাশ করা আমার আপনার দায়...৷''

উল্লেখ্য, মঙ্গলবার বিকেলে কারওয়ান বাজারের সার্ক ফোয়ারার সামনে ইভেন্টটি সম্পন্ন হয়েছে৷ সাগর-রুনির কাছের মানুষ, বন্ধুরা ছাড়াও আরো অনেকে এতে অংশ নেন৷

সংকলন: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: দেবারতি গুহ

নির্বাচিত প্রতিবেদন