1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

জার্মানি

শেষ পর্যন্ত নতুন সরকার পেতে চলেছে জার্মানি?

গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে সাধারণ নির্বাচনের পর থেকে জার্মানিতে সরকার গড়া সম্ভব হয়নি৷ সেই অনিশ্চয়তা কাটিয়ে এবার নতুন করে মহাজোট সরকার গড়ার সম্ভাবনা উজ্জ্বল হয়ে উঠেছে৷

প্রথমে উদারপন্থি ও সবুজ দলের সঙ্গে জোট গড়ার চেষ্টা চালিয়ে বিফল হয়েছিলেন চ্যান্সেলর আঙ্গেলা ম্যার্কেল৷ তারপর সামাজিক গণতন্ত্রী এসপিডি দল বিরোধী আসন ছেড়ে মহাজোট গড়ার বিষয়ে আলোচনা করতে রাজি হয়৷ সেই প্রাথমিক আলোচনা বৃহস্পতিবার শেষ হবার কথা৷ গোপনীয়তার বেড়াজালে আলোচনা সত্ত্বেও সাফল্যের ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছে৷ অর্থাৎ শেষ পর্যন্ত কোনো বাধা না এলে দুই শিবির আনুষ্ঠানিকভাবে জোট সরকার গড়ার আলোচনা শুরু করতে পারে৷

একদিকে এসপিডি, অন্যদিকে সিডিইউ ও সিএসইউ দলের ইউনিয়ন শিবির৷ বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ বিষয় নিয়ে তাদের মতপার্থক্য এখনো পুরোপুরি কাটেনি৷ বিশেষ করে কর ও রাজস্বের বণ্টন, অভিবাসন, কর্মসংস্থান, স্বাস্থ্য, অবসর ভাতা ও ইউরোপ সংক্রান্ত নীতি নিয়ে দুই শিবিরের বিপরীত অবস্থান রয়েছে৷ তাই বৃহস্পতিবার গভীর রাত পর্যন্ত দরকষাকষি হতে পারে বলে অনুমান করা হচ্ছে৷ তারপর শুক্রবার মহাজোট গড়ার সিদ্ধান্তের ঘোষণা করা হবে, এমনটাই আপাতত ধরে নেওয়া হচ্ছে৷ সংবাদ মাধ্যমের একাংশের সূত্র অনুযায়ী, আগামী ৪ বছরে দুই শিবিরের লক্ষ্য পূরণ করতে প্রায় ১০,০০০ কোটি ইউরো প্রয়োজন হবে৷ অথচ বাস্তবে সর্বোচ্চ ৪,৫০০ কোটি ইউরো ব্যয়ের সুযোগ রয়েছে৷

তবে দলের শীর্ষ নেতারা মহাজোট গড়ার সিদ্ধান্ত নিলেই তা চূড়ান্ত হবে না৷ দলগুলিকেও সামগ্রিকভাবে সেই সিদ্ধান্ত অনুমোদন করতে হবে৷ বিশেষ করে এসপিডি দলের মধ্যে এখনো সরকারে যোগদান নিয়ে যথেষ্ট সংশয় রয়েছে৷ দলের নিজস্ব নীতি রূপায়নের যথেষ্ট সুযোগ না থাকলে মহাজোট সরকারে যোগ দেবার ক্ষেত্রে অনীহা দেখা দিতে পারে৷ আগামী ২১শে জানুয়ারি বন শহরে এসপিডি দলের সম্মেলনে এ বিষয়ে তর্ক-বিতর্ক হবে৷ তবে দলের শীর্ষ নেতা মার্টিন শুলৎস মহাজোট গড়ার বিষয়ে যথেষ্ট আশাবাদী৷

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়