1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিজ্ঞান পরিবেশ

শিশুদের পছন্দ ট্যাবলেট, চিন্তিত বিশেষজ্ঞরা

বলছি ট্যাবলেট কম্পিউটারের কথা৷ হালের এই প্রযুক্তি পণ্যটির ব্যবহার এতই সহজ যে, তিন বছরের একটা শিশুও সেটাতে ভিডিও দেখতে বা গেম খেলতে পারে৷ তাই চিন্তিত অনেক শিশু বিশেষজ্ঞ৷

মাত্র বছর তিনেক হলো ট্যাবলেট কম্পিউটারের আগমন হয়েছে৷ তাই এটা শিশুদের জন্য উপকারী নাকি ক্ষতিকর, সে ব্যাপারে এখনো উল্লেখযোগ্য গবেষণা হয়নি৷ শিশু বিশেষজ্ঞদের মতামতেও দেখা যাচ্ছে ভিন্নতা৷ একই কথা প্রযোজ্য বাবা-মা'র দৃষ্টিভঙ্গীর ক্ষেত্রেও৷

বিশেষজ্ঞরা যা বলেন

একদল বিশেষজ্ঞ মনে করেন টিভি দেখে বা ট্যাবলেটে ভিডিও দেখে বাচ্চাদের শিক্ষাগত বা অন্য কোনো উপকার হয়েছে, এমন প্রমাণ পাওয়া যায়নি৷ বরং টিভি ও ট্যাবের ব্যবহার মেধা বিকাশে সহায়ক এমন বিষয় অনুশীলনের সময়টা কমিয়ে দেয়৷

Kind vor dem Rechner

‘ট্যাবের ব্যবহার মেধা বিকাশে সহায়ক এমন বিষয় অনুশীলনের সময়টা কমিয়ে দেয়’

এই বিশেষজ্ঞরা এটাও মনে করিয়ে দিয়েছেন যে, যারা একটু বড় শিশু তাদের ক্ষেত্রে, বেশি সময় ধরে স্ক্রিনে কিছু দেখা, তাদের মানবীয় ব্যবহার ও সামাজিক আচরণের উন্নয়নে দেরি করিয়ে দেয়৷

যুক্তরাষ্ট্রের সিয়াটল শিশু হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. দিমিত্রি ক্রিসটাকিস বলেন, শিশুদের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হলো বাবা-মার সঙ্গে বেশি সময় কাটানো৷ ট্যাবলেট ব্যবহার যেন সেই পরিমাণটা কমিয়ে না দেয়, সেদিকে নজর রাখতে মা-বাবাকে পরামর্শ দিয়েছেন তিনি৷

ডা. ক্রিসটাকিস মনে করেন শিশুরা দিনে এক ঘণ্টা সময় টিভি বা ট্যাবলেটে কিছু দেখতে পারে, এর বেশি নয়৷ অবশ্য ‘অ্যামেরিকান অ্যাকাডেমি অফ পেডিয়াট্রিকস' এর মতে, সময়টা ঘণ্টা দুই হতে পারে, কিন্তু এর বেশি কখনোই নয়৷

নিউইয়র্কের আরেক চিকিৎসক ডা. রাহিল ব্রিগস মনে করেন, বেশি সময় ধরে টিভি দেখা বা ট্যাবলেট ব্যবহার ভাষা শিক্ষার গতি কমিয়ে দিতে পারে৷

এবার ট্যাবলেটের উপকারিতা সম্পর্কে বিশেষজ্ঞ মতামত জানবো আমরা৷

যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াটারবুরি কানেকটিকাটের পোস্ট ইউনিভার্সিটির জিল বুবান বলেন, স্কুলে যাওয়ার আগে একটা শিশু যত বেশি প্রযুক্তি সম্পর্কে জ্ঞান লাভ করবে তত ভাল৷ এক্ষেত্রে তিনি ট্যাব কম্পিউটারের জন্য তৈরি শিক্ষা বিষয়ক অ্যাপ, বিশেষ করে যেগুলো ইন্টারঅ্যাকটিভ, সেগুলো ব্যবহারের উপর গুরুত্ব দিয়েছেন৷ এগুলো শিশুদের জন্য উপকারি হতে পারে বলে মনে করেন তিনি৷ তবে, তারপরও শিশুরা যেন বেশি সময় ধরে ট্যাব ব্যবহার না করে সেটাও মনে করিয়ে দিয়েছেন তিনি৷

বাবা-মা'রা যা বলছেন

নিউ ইয়র্কের অ্যাডাম কোহেন তাঁর পাঁচ বছরের ছেলে মার্ককে দেড় বছর বয়সেই আইপ্যাড ব্যবহার করতে দিয়েছিলেন৷ মার্কের শিক্ষার ব্যাপারে আইপ্যাড বেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে বলে জানান তিনি৷

কোহেন বলেন, মার্কের নিজেরই একটা আইপ্যাড আছে, যেটা শিক্ষা বিষয়ক অ্যাপ দিয়ে ভর্তি৷ আর মার্কের ছোট বোন, যার বয়স এখনো এক হয়নি – নিজের আইপ্যাড না থাকায় তাকে (বোনকে) এখনই হতাশ দেখায়!

আরেক বাবা সমারফেল্ড জানান, তাঁদের কোনো আইপ্যাড নেই৷ এবং তাঁদের পাঁচ বছরের ছেলের বয়স তিন হওয়ার আগে তাকে টিভিও দেখতে দিতেন না৷ এখন অবশ্য ছেলেকে মাঝেমধ্যে আইফোনে অ্যাপ ব্যবহার করতে দেন৷ ছেলেও সেটা খুব পছন্দ করে বলে জানান সমারফেল্ড৷

জেডএইচ / এসিবি (এপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন