1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

লাদেন’এর বাবুর্চির জন্য ১৪ বছরের কারাদণ্ড

রামায়ণের রামের ১৪ বছরের বনবাস হয়েছিল বিমাতা কৈকেয়ীর দুরভিসন্ধিতে৷ আর এবার, অন্যতম জঙ্গি নেতা ওসামা বিন-লাদেন’এর সাবেক বাবুর্চি আর চালক হওয়ার অপরাধে ১৪ বছরের কারাবাস পেলেন ইব্রাহাম আল-কোসি৷

default

ইব্রাহাম আল-কোসি'র জন্ম সুদানে৷ বয়স এখন প্রায় ৫০৷ তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ - যে তিনি উগ্রবাদী জঙ্গিগোষ্ঠী আল-কায়েদা'র সঙ্গে যুক্ত ছিলেন এবং বিভিন্ন ষড়যন্ত্রে অংশগ্রহণ সহ মালামাল সরবরাহ করে সন্ত্রাসবাদে সহায়তা করে আসছিলেন৷ আর এই অভিযোগেই গত প্রায় নয় বছর যাবত কিউবার গুয়ান্তানামো বন্দিশালায় আটক ছিলেন ইব্রাহাম আল-কোসি৷

গত মাসে কোসি স্বীকার করেন , ‘‘হ্যাঁ, আফগানিস্তানে অবস্থিত বিন-লাদেন'এর ‘স্টার অব জিহাদ' রান্না-ঘর পরিচালনার সময়, আমি জানতাম যে আল-কায়েদা একটি সন্ত্রাসি সংগঠন৷'' আর গুয়ান্তানামো উপসাগরের মার্কিন নৌ-ঘাঁটিতে অবস্থিত যুদ্ধাপরাধ আদালতে এ কথা স্বীকার করতেই, তাঁকে ১৪ বছরের হাজতবাস দেয় যুক্তরাষ্ট্রের একটি সামরিক আদালত৷

কোসি'র আইনজীবী তাঁকে নেহাতই একজন বাবুর্চি বলে চিহ্নিত করতে চাইলেও, বিরোধী পক্ষ কিছুতেই তাতে সায় দেয় না৷ তাদের কথায়, কোসি নাকি সুদানে লাদেন'এর সঙ্গে সাক্ষাৎ হওয়ার পর আফগানিস্তানে আসেন এবং সেখানকার তোরা বোরা পর্বতমালা দিয়ে আল-কায়েদা নেতাদের পালাতে সহায়তা করেন৷ তবে ঘটনার সত্যতা যাই হোক না কেন, শোনা যাচ্ছে মার্কিন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে গোপন সমঝোতার কারণে শেষ পর্যন্ত হয়ত অনেক কম সাজা ভোগ করতে হবে কোসি'কে৷ ১৪ বছরের থেকে হয়ত বাদ পড়বে গত প্রায় নয় বছরের কারাবাসের দিনগুলি৷

প্রতিবেদন: দেবারতি গুহ

সম্পাদনা: ফাহমিদা সুলতানা