1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

রাশিয়া সফরে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিন্টন

পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ আর মধ্যপ্রাচ্যসহ নানা ইস্যু নিয়ে আলোচনা করতে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিন্টন এখন রাশিয়ায়৷ বৃহস্পতিবার রাতে তিনি বৈঠক করবেন দেশটির পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে৷ শুক্রবারও রয়েছে একাধিক আলোচনা৷

default

ফাইল ফটো

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সামনে এই মুহূর্তে ইস্যু অনেক৷ প্রথমত নতুন করে পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ চুক্তি, দ্বিতীয়ত ভেঙ্গে পড়া মধ্যপ্রাচ্য শান্তি আলোচনা আর একইসঙ্গে ইরানের পরমাণু কর্মসূচির বিরুদ্ধে জনমত বৃদ্ধি৷ এই তিন উদ্যোগকে একসঙ্গে নিয়েই রাশিয়ায় হাজির মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী হিলারি ক্লিন্টন৷

রাশিয়া এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র গত এক বছর ধরেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে পরমাণু নিরস্ত্রীকরণের উদ্যোগে নতুন করে সমঝোতায় পৌছাঁতে৷ কারণ ১৯৯১ সালের পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ চুক্তি এস.টি.এ.আর.টি'র মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে ইতিমধ্যেই৷ আর তাই সেই চুক্তির নবরূপ দিতে হিলারির রাশিয়া সফর৷ এই প্রসঙ্গে রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই লাভরভ জানিয়েছেন, আগামী এপ্রিল নাগাদ দুই দেশের মধ্যে পরমাণু নিরস্ত্রীকরণের নতুন উদ্যোগের সূচনা হতে পারে৷

জাতিসংঘের মহাসচিব বান কি-মুনও শুক্রবারের মধ্যপ্রাচ্য শান্তি আলোচনায় অংশ নিতে বর্তমানে মস্কো অবস্থান করছেন৷ ইতিমধ্যে তিনি সাক্ষাৎ করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট দিমিত্রি মেদভেদেভ এর সঙ্গে৷ বৈঠকে মুন পরমাণু অস্ত্র কমানোর বিষয়ে দ্রুত সিদ্ধান্ত নিতে রাশিয়ার প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন৷ জবাবে মেদভেদেভ জানিয়েছেন, তিনিও তা আশা করছেন৷

এখন উল্লেখ না করলেই নয়, সমগ্র বিশ্বের পরমাণু অস্ত্রভাণ্ডারের প্রায় ৮০ শতাংশই রয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার হাতে৷ আমেরিকার হাতে প্রায় ২,২০০ এবং রাশিয়ার হাতে প্রায় ২,৭৯০টি পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্র রয়েছে৷ গত বছর মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা এবং মেদভেদেভ এই অস্ত্র সংখ্যা কমিয়ে যথাক্রমে ১,৫০০ ও ১৬৭৫ এ নামিয়ে আনার কথা বললেও শীতল যুদ্ধকালীন সাবেক দুই শত্রুর মধ্যে বিশ্বাসের ঘাটতি এখনো পরিলক্ষিত৷

এদিকে, মধ্যপ্রাচ্য শান্তি আলোচনার অচলাবস্থা কাটাতে শুক্রবার মস্কোতে বৈঠক করবেন ইউরোপীয় ইউনিয়ন, জাতিসংঘ, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এবং রাশিয়ার উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধিরা৷ বৈঠকে ইসরায়েলের সঙ্গে ফিলিস্তিনিদের পরোক্ষ শান্তি প্রক্রিয়া পুনরায় শুরুর বিষয়ে আলোচনা হবে৷ উল্লেখ্য পূর্ব জেরুসালেমে বসতি নির্মাণে ইসরায়েলের সাম্প্রতিক ঘোষণার পর ভেঙ্গে পড়ে শান্তি আলোচনার উদ্যোগ৷ ফিলিস্তিন সাফ জানিয়েছে, নতুন বসতি নির্মাণের উদ্যোগ নিলে আলোচনায় বসবে না তারা৷

পরমাণু অস্ত্র আর মধ্যপ্রাচ্য শান্তি আলোচনা ছাড়াও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র তথা হিলারি ক্লিন্টনের তৃতীয় উদ্বেগ ইরান নিয়ে৷ ইরানের পরমাণু সমৃদ্ধকরণ প্রকল্প বন্ধে রাশিয়ার সমর্থন চায় যুক্তরাষ্ট্র৷ আর সেটা এগিয়ে নিতেও এবারকার সফর কাজে লাগাবেন হিলারি৷

প্রতিবেদক: আরাফাতুল ইসলাম

সম্পাদনা: সঞ্জীব বর্মন

সংশ্লিষ্ট বিষয়