1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

রাশিয়ার অংশ হতে ক্রাইমিয়ার সংসদে প্রস্তাব

ইউক্রেনের ক্রাইমিয়া উপদ্বীপের সংসদ বৃহস্পতিবার সর্বসম্মতিক্রমে রাশিয়ান ফেডারেশনে যোগ দেবার সিদ্ধান্ত নিয়েছে৷ আগামী ১৬ই মার্চ একটি গণভোটেরও ঘোষণা করা হয়েছে৷ ইইউ শীর্ষ সম্মেলনের আগে চলছে কূটনৈতিক তৎপরতা৷

বেশ কয়েক দিন ধরেই ক্রাইমিয়া কার্যত ইউক্রেন থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে রয়েছে৷ এবার সেখানকার মস্কোপন্থি প্রশাসন রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুটিনের উদ্দেশ্যে ক্রাইমিয়াকে রাশিয়ান ফেডারেশনে গ্রহণ করার আনুষ্ঠানিক অনুরোধ জানিয়েছে৷ সংসদে এই প্রস্তাব অনুমোদনের পর এবার গণভোটের মাধ্যমে এই সিদ্ধান্তকে আরও বৈধ করার উদ্যোগ নিয়েছে৷

যাবতীয় উত্তেজনা সত্ত্বেও ইউক্রেনকে ঘিরে বর্তমান সংকট কাটাতে যে এক রাজনৈতিক সমাধানসূত্রের প্রয়োজন, এ বিষয়ে প্রায় সব পক্ষই একমত৷

সামরিক অভিযানের আশঙ্কা আপাতত দূর হলেও চলছে বাকযুদ্ধ৷ অভিযোগ ও পাল্টা অভিযোগের মধ্যেই দেখা যাচ্ছে নানা কূটনৈতিক তৎপরতা৷

প্রবল প্রতিবাদ-বিক্ষোভের পর প্রেসিডেন্ট হিসেবে ভিক্টর ইয়ানুকোভিচ-এর প্রস্থান ও বিরোধীদের অন্তবর্তীকালীন সরকার গঠন নিয়ে রাশিয়া ও পশ্চিমা জগতের মধ্যে মৌলিক মতবিরোধ রয়ে গেছে৷ মস্কোর অভিযোগ, ইয়ানুকোভিচকে অবৈধভাবে ক্ষমতাচ্যুত করা হয়েছে৷ তাছাড়া ইউক্রেনের বর্তমান সরকারের মধ্যে চরম দক্ষিণপন্থি, নব্য নাৎসিরাও রয়েছে৷ এর মধ্যে অভিযোগ উঠেছে, যে ইয়ানুকোভিচ-বিরোধী বিক্ষোভের সময় স্নাইপারদের চোরাগোপ্তা হামলার পেছনে বিরোধীদেরই হাত ছিল৷ ২০ ও ২১শে ফেব্রুয়ারি কিয়েভের ময়দানে ১৫ জন পুলিশ অফিসার সহ প্রায় ৮৮ জন বিক্ষোভকারী নিহত হয়৷

ইউটিউবে প্রকাশিত একটি ভিডিওতে এস্টোনিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও ইইউ পররাষ্ট্র প্রধান ক্যাথরিন অ্যাশটন-এর মধ্যে একটি টেলিফোন সংলাপ শোনা যাচ্ছে৷

Ukraine Russland Soldaten Krim 5.3.2014

ক্রাইমিয়া কার্যত ইউক্রেন থেকে বিচ্ছিন্ন

তাতে এস্টোনিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী এই অভিযোগ করে ঘটনার তদন্ত সম্পর্কে সন্দেহ প্রকাশ করছেন৷ এস্টোনিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রীর মুখপাত্র এই ‘লিক' সম্পর্কে দুঃখ প্রকাশ করেছেন৷ তবে তাঁর মতে, এই কথোপকথনের অংশবিশেষ শুনে সঠিক মূল্যায়ন করা হয় নি৷ রাশিয়ার টেলিভিশন বিষয়টিকে ইউক্রেনের নতুন প্রশাসনের স্বরূপ হিসেবে তুলে ধরছে৷

এদিকে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী জন কেরি বৃহস্পতিবার রোমে ইটালি, ফ্রান্স, জার্মানি ও ব্রিটেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন৷ ইউক্রেনের সংকটের বিষয়ে ব্রাসেলসে ইউরোপীয় ইউনিয়নের শীর্ষ সম্মেলনের প্রাক্কালে পশ্চিমা শক্তিগুলির মধ্যে নিজেদের অবস্থান সম্পর্কে সমন্বয় করাই এই আলোচনার লক্ষ্য৷ ব্রাসেলসে রাশিয়ার উপর নিষেধাজ্ঞা চাপানোর বিষয়েও আলোচনা হবে৷

এসবি/এসি (রয়টার্স, এএফপি)

নির্বাচিত প্রতিবেদন

সংশ্লিষ্ট বিষয়