1. Inhalt
  2. Navigation
  3. Weitere Inhalte
  4. Metanavigation
  5. Suche
  6. Choose from 30 Languages

বিশ্ব

রাজনৈতিক অস্থিরতায় ক্ষতি ৪৯ হাজার কোটি টাকা

বাংলাদেশে রাজনৈতিক অস্থিরতা, অবরোধ, হরতাল আর সহিংসতায় চলতি অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে চারটি খাতে ৪৯ হাজার কোটি টাকারও বেশি ক্ষতি হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ বা সিপিডি৷

চলতি অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে ৫৫ দিন হরতাল এবং অবরোধ পালিত হয়েছে৷ সিপিডির গবেষণায় দেখা গেছে, এ কারণে চারটি খাতে যোগাযোগ, কৃষি, পর্যটন এবং রপ্তানিমুখী পোশাক খাতে মোট ক্ষতির পরিমাণ ৪৯ হাজার ১৮ কোটি টাকা৷ যা মোট দেশজ আয়ের ৪ দশমিক সাত শতাংশ৷ সিপিডি মনে করে, এর ফলে এবার অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি হবে সর্বোচ্চ ৫ দশমিক আট শতাংশ৷ যদিও সরকারের লক্ষ্যমাত্রা ছয় দশমিক তিন শতাংশ৷
সিপিডি শনিবার তাদের গবেষণা রিপোর্ট প্রকাশ করে জানায়, চারটি খাতের মধ্যে রেল, সড়ক ও যোগাযোগ খাতে ১৬ হাজার ৬৮৯ কোটি, কৃষি ও কৃষিজাত শিল্প খাতে ১৫ হাজার ৮২৯ কোটি, রপ্তানিমুখী বস্ত্র খাতে ১৩ হাজার ৭৫০কোটি এবং পর্যটন খাতে ২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে৷ সংবাদপত্রে প্রকাশিত তথ্য এবং উপাত্তের ভিত্তিতে সিপিডি এই প্রতিবেদন তৈরি করেছে৷
সিপিডি জানিয়েছে, উচ্চ প্রবৃদ্ধির যে সম্ভাবনা বাংলাদেশে দেখা দিয়েছিল তা হারিয়ে গেছে৷ আর সেই সম্ভাবনাকে ফিরিয়ে আনাই সরকারের জন্য এখন বড় চ্যালেঞ্জ৷ আর বর্তমান প্রবৃদ্ধিকে ধরে রাখার জন্য তারা কিছু সুপারিশও দিয়েছে৷ তারমধ্যে রয়েছে বাজেটে সরকারের আয়-ব্যয়ের কাঠামো বাস্তবতার ভিত্তিতে পুনর্নিধারণ করা, বোরো চাষ ও ক্ষতিগ্রস্ত গ্রামীণ অর্থনীতিকে সহায়তা করা, রপ্তানিমুখী শিল্পসহ রাজনৈতিক সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্ত শিল্পকে সহায়তা এবং বিনিয়োগকে উত্‍সাহিত করতে অনিশ্চয়তা দূর করা৷
সিপিডি মনে করে, বিনিয়োগ অনিশ্চয়তা দূর করতে হলে রাজনৈতিক এবং সামাজিক সমঝোতা প্রয়োজন৷ বিরোধী দলের সঙ্গে আলোচনা না করে কোনো নীতি গ্রহণ করলে সেটি বাস্তবায়ন অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়ে যাবে৷ সবার অংশগ্রহণে একটি সুষ্ঠু এবং গ্রহণযোগ্য নির্বাচন না হলে রাজনৈতিক অনিশ্চয়তা কাটবেনা৷
সিপিডির অর্থনীতিবিদ ড. দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য বলেন, ‘‘রাজনৈতিক অস্থিরতা না কাটলে দীর্ঘকালীন বিনিয়োগ হবেনা৷ আর আস্থাভাজন নির্বাচন ছাড়া রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা আসবেনা৷’’
তিনি বলেন, ‘‘গত ৬ মাসে রাজনৈতিক অস্থিরতায় গ্রামীণ অর্থনীতি এবং দেশীয় শিল্পখাত ভয়াবহ ক্ষতির মুখে পড়েছে৷ তাই শুধু রপ্তানিমুখী নয় সব ধরনের শিল্পখাতকে সহায়তা দিতে হবে৷’’
আর সিপিডির নির্বাহী পরিচালক ড. মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ‘‘গত ৬ মাসে ভোক্তারা বেশি দামে পণ্য কিনেছেন৷ কিন্তু উদ্যোক্তাদের উত্‍পাদন করতে হয়েছে লোকসান দিয়ে৷’’ তিনি বলেন, ‘‘এসময়ে খাদ্যের মজুদ গতবছরের তুলনায় ৩৮ শতাংশ কমেছে৷’’

নির্বাচিত প্রতিবেদন